ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ বৈশাখ ১৪২৮, ১৩ মে ২০২১, ০০ শাওয়াল ১৪৪২

ইচ্ছেঘুড়ি

শরতের ছায়া | শাহ্‌জাহান সিরাজ

বিলে ঝিলে শাপলা হেসে হেসে কয় শরৎ এলে খুশিতে ফুটতে যে হয়। শিউলি ফুলের ঘ্রাণ কাছে ডেকে নেয় আকাশের সাদা মেঘ মনে উঁকি দেয়। শরৎ আনে

বরফদেশের বাড়ি ‘ইগলু’

যেসব দেশে সারাবছর শীত বেশি থাকে সেসব দেশকে বলা হয় শীতপ্রধান দেশ।  আমাদের দিন ২৪ ঘণ্টার অর্ধেক রাত আর অর্ধেক দিনের আলো। এসব দেশে

ছুটি | নাজিয়া ফেরদৌস

ছুটি মানে ঘুম থেকে  দেরি করে ওঠা, জুমার মসজিদে একসাথে ছোটা। স্কুল নেই আর নেই কোনো বাধা মাঠে মাঠে ছোটাছুটি গানে গলা সাধা। ছুটি

বাতাসপূর্ণ বেলুনের মতো কাজ করে জেট প্লেন!

এই চিহ্ন রেখে যাওয়া প্লেনগুলো হলো জেট প্লেন। মানে জেট ইঞ্জিনে চলে। সব প্লেন কিন্তু জেট ইঞ্জিনে চলে না। কিন্তু ওড়ার পর পেছনে দাগ রেখে

সবুজ টিয়া | জুলফিকার আলী

বড়শির মতো বাঁকানো ঠোঁট রংটিও রক্ত লাল, চোখ দুটো তার হলদে সাদা লেজ লম্বা সুচাল। এই পাখিটি বন-বাদাড়ে গাছের কোটরে থাকে, ঘুরে ঘুরে

শরৎ | রানাকুমার সিংহ

থেমে গেছে বর্ষা ও মেঘেদের গর্জন ঝকঝকে রোদ আনে আলোকিত অর্জন। বর্ষায় ডুবে যাওয়া পথ জাগে ফের তো সেই পথে চলাচল বেড়ে গেছে ঢের তো। শরতের

পরির হাসি | সুমাইয়া বরকতউল্লাহ্

‘রানিমা, আপনার বাবু হয়েছে জানতাম নাতো।’ পরিরানি বললো, ‘তুমি এসব কী বলো সুমু! আমরা এই বাচ্চাটাকে নিয়ে খুব চিন্তায় আছি।’  কেন,

শরৎ | আলাউদ্দিন হোসেন  

ভরা নদী নৌকা চলে শরৎ নদীর প্রাণ মাঝির সুরে ভেসে ওঠে ভাটিয়ালি গান।  নদীর চরে চখাচখি পানকৌড়ির মেলা স্বচ্ছ জলে চান্দা, পুঁটি খলসে

অহংকারী মাছি ও একটি পিঁপড়ে | বিএম বরকতউল্লাহ্

পিঁপড়ে বললো, ভাই মাছি, একি করছ তুমি! রসটুকু যে খেয়ে ফেলছ, আমাকে তো কিছুই বললে না। এটা কি ঠিক হচ্ছে তোমার?  মাছিটি তার অসংখ্য চোখ লাল

স্কুল ব্যাগটা | সাদাত সবুজ

পিঠে ব্যাগ বাঁধিয়ে আনমনে হাঁপিয়ে, অংক ইংরেজি- আরো যেন খোঁজে কি? বই খাতা উপড়িয়ে ব্যাগটা ঝেড়ে ঝুড়ে, খোঁজে আরো কোনটা! সাধারণ

ঘি আসল না নকল: ঘরে বসেই পরীক্ষা

যে উপায়ে পরীক্ষা: প্রথমে একটি টেস্টটিউবে পাঁচ মিলিলিটার পরিমাণ ঘি আগুনের তাপে উত্তপ্ত করতে হবে। ঘি গলে গেলে তাতে ঢালতে হবে

ঈদের চাওয়া | শাহজাহান মোহাম্মদ

ঈদের চাওয়া, ঈদের পাওয়া  দুঃখিনী মা হতাশ! চাল চুলো সব বানের জলে, এডিস এখন ত্রাস। বাংলাদেশ সময়: ২০২০ ঘণ্টা, আগস্ট ১১, ২০১৯ এএ

খুকির ঈদ | আলাউদ্দিন হোসেন

রংবেরঙের চুড়ি পড়ে নাচবে সারা বাড়ি নকশা আঁকা মেহেদীতে হাত রাঙাবে ভারি।  রঙিন পোশাক পরবে খুকি সাজবে সারাদিন ঈদ আনন্দ মনে প্রাণে

ঈদের দিনে | আলমগীর কবির 

ভালোবাসার রঙিন আকাশ  মিলে মিশে ভাগ করে। ঈদের দিনে কেমন বোকা  মুখখানি কেউ ভার করে? তবে? মায়ের হাতে খাবার খেয়ে  ঈদগাহে যায়

শ্রাবণ | আলাউদ্দিন হোসেন 

রং ছড়ানো কদম হাসি ভাসে শ্রাবণজুড়ে জুঁই কেয়া হেসে চলে পল্লি কুঁড়েঘরে।  নব রঙে বৃষ্টি ঝরে বর্ষা করে খেলা রঙে ঢঙে আকাশ পানে ভাসে

পড়া | নাজিয়া ফেরদৌস

পড়া, পড়া, পড়া শিক্ষাকে ছাড়া কিছু যায় না তো করা। পড়া, পড়া, পড়া যত মন্দের সাথে জ্ঞান দিয়ে লড়া। পড়া, পড়া, পড়া শিক্ষায় শিক্ষিত সুন্দর ধরা।

১০ বছরের শিশুর কঠিন পর্বত জয়ের রেকর্ড

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার ইয়োসেমাইট ন্যাশনাল পার্কের কঠিন পাথুরে পর্বতচূড়া এল ক্যাপিটান। উচ্চতা তিন হাজার ফুটের মতো। বাবা

বর্ষা ও ঝুমার গল্প | রানাকুমার সিংহ

বর্ষার বাবা একজন প্রখ্যাত প্রকৌশলী। শহরের বিভিন্ন বিখ্যাত দালান তথা অট্টালিকার নকশা এঁকেছেন তিনি। তাই তিনি চান মেয়েও ভবিষ্যতে

বর্ষার দিনলিপি | সুমন বিশ্বাস

বনজ, ফলজ কিংবা ভেষজ কিছুতে নেই মানা, সব গাছেই আছে কল্যাণ হোক সবার জানা। পথের ধার, বসতভিটা যেখানে জমি ফাঁকা সেখানেই হোক বৃক্ষরোপণ

মৌমাছি তোমার সাথে যাবো

নেচে গেয়ে ধেয়ে ধেয়ে কোথায় তুমি যাও? দূরে দূরে ঘুরে ঘুরে ভাসিয়ে দিয়ে নাও। আমার খুবই ইচ্ছে করে রঙিন পথে যেতে উড়ে উড়ে আকাশজুড়ে তোমার

এই বিভাগের সর্বাধিক জনপ্রিয়

Alexa