ঢাকা, শনিবার, ৩০ চৈত্র ১৪৩০, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৩ শাওয়াল ১৪৪৫

ক্রিকেট

চ্যাম্পিয়ন হলে সাইফউদ্দিনকে দুটি ব্যাট দেবেন বলেছিলেন তামিম

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, স্পোর্টস | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৪৭ ঘণ্টা, মার্চ ২, ২০২৪
চ্যাম্পিয়ন হলে সাইফউদ্দিনকে দুটি ব্যাট দেবেন বলেছিলেন তামিম

তামিম ইকবালের সংবাদ সম্মেলনে ঘুরেফিরে এলো অনেক নাম। তবুও কারা ফরচুন বরিশালের হয়ে ব্যবধানটা গড়ে দিয়েছেন? অধিনায়কের প্রথম নামটাই এলো, ‘সাইফউদ্দিনের যোগ দেওয়া।

’ বিপিএলের শুরুতেও খেলতে পারছিলেন না মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।  

মন খারাপ নিয়েই তাকে ছাড়তে হয়েছে টিম হোটেল। পরে যখন ফিরেছেন, আলো ছড়িয়েছেন ব্যাট ও বল হাতে। চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের বিপক্ষে ১৮ বলে ৩০ ও দুর্দান্ত ঢাকার বিপক্ষে ৬ বলে ২৩ রানের অপরাজিত কার্যকরী ইনিংস খেলেন সাইফউদ্দিন।  

বল হাতেও বরিশালের বড় ভরসার নাম ছিলেন সাইফউদ্দিন। মাত্র ৯ ম্যাচে ১৫ উইকেট নিয়ে এবারের বিপিএলে চতুর্থ সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি। ফাইনালেও শেষ ওভার করতে এসে আন্দ্রে রাসেল স্ট্রাইকে থাকলেও একটি ছক্কাও হাঁকাতে পারেননি সাইফউদ্দিনকে। পুরো বিপিএল যাত্রায় অধিনায়ক তামিমের অবদান ছিল কতটা?  

সাইফউদ্দিন বলেন, ‘অসাধারণ। যখন রাসেল আগের ওভারে আমাকে দুটি ছক্কা মেরেছিল, আমাকে উনি (তামিম) এপ্রিশিয়েট জানিয়ে বলেছিল ইয়র্কার বল দিস। যার কারণে আমার আত্মবিশ্বাস ছিল রাসেল আমাকে একটাও বাউন্ডারি মারতে পারবে না। ’ 

‘সত্যি বলতে বড় ভাই বা অধিনায়ক হিসেবে না; উনি আমার পরিবারের সদস্যের মতো। হয়তো উনি আমাকে এরকম বুস্ট আপ না করলে...(বিপিএলে) এত ভালো খেলা হতো না। ’ 

পুরো বিপিএলে প্রায়ই সাইফউদ্দিনকে নানা খুনসুঁটিতে মাততে দেখা গেছে তামিমের সঙ্গে। বড় ভাইয়ের কাছ থেকে একটি প্রতিশ্রুতিও নিয়েছিলেন এই অলরাউন্ডার। শিরোপা জিতলে দুটি ব্যাট দেবেন, সাইফকে এমন কথা দিয়েছিলেন তামিম।

ওই গল্প শুনিয়ে সাইফউদ্দিন বলেন, ‘সবমিলিয়ে আলহামদুলিল্লাহ। আমাকে উনি বলেছিল দুইটা ব্যাট দেবে চ্যাম্পিয়ন হলে। এজন্য আমি আরও বেশি খুশি। অনেকের অনেক নেশা থাকে। টাকার নেশা বা বাড়ি-গাড়ি-জমি, আমার এসব নেশা নাই; আমার শুধু ব্যাটের নেশা। ’ 

এমন পারফরম্যান্সের পরও অবশ্য সাইফউদ্দিনের খেলা হচ্ছে না জাতীয় দলে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের দলে নেই তিনি। এ নিয়ে কি কোনো আক্ষেপ আছে?

সাইফউদ্দিনের উত্তর, ‘না, না। আক্ষেপ নাই। আল্লাহ যা করে ভালোর জন্যই করে। বিসিবি আমাকে মনে করেছে বিশ্রাম প্রয়োজন। আমি মনে করি পুরো ফিট হয়ে গেলে ভালো হবে। ’ 

হেড কোচ হাথুরুসিংহের সঙ্গে কথা হয়েছে কি না জানতে চাইলে সাইফউদ্দিন বলেন, ‘না, প্রথম যখন এসেছিলাম আমি জিজ্ঞেস করেছি কী ব্যাপার, তোমাকে আমি হোয়াটস অ্যাপে মেসেজ দিয়েছি, রিপ্লাই দেও নাই। বলতেছে খেয়াল করিনি। বলছে তুমি তো এখন ইনজুরড। সুস্থ হলে পরিকল্পনা করবো তোমাকে নিয়ে। এখন মেসেজ দেবো কি না মুডের ওপর নির্ভর করবে। ’ 

বাংলাদেশ সময় : ১২৪৭ ঘণ্টা, ২ মার্চ, ২০২৪
এমএইচবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad