ঢাকা, সোমবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

নির্বাচনে স্বত:স্ফূর্ত অংশ নেয়ার আহ্বান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৪৬ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২, ২০১৪
নির্বাচনে স্বত:স্ফূর্ত অংশ নেয়ার আহ্বান ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

চট্টগ্রাম: দেশকে কলঙ্কমুক্ত, মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা এবং সাংবিধানিক গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতা রক্ষা করতে ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে স্বত:স্ফূর্তভাবে অংশ নিতে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের প্রতি আহ্বান জানান পেশাজীবীরা।

বৃহস্পতিবার বিকেলে নগরীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদ, চট্টগ্রামের উদ্যোগে আয়োজিত এক মত বিনিময় সভায় বক্তারা এ আহ্বান জানান।



মানুষ হত্যা, জ্বালাও-পোড়াও, বোমাবাজি, সন্ত্রাস প্রতিরোধ করে সাংবিধানিক প্রক্রিয়ায় গণতন্ত্র সংহতের প্রত্যয় নিয়ে এ মত বিনিময় সভার আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী স্থপতি ড. ইয়াফেস ওসমান।

তিনি বলেন,‘ নির্বাচনই শেষ কথা নয়, নির্বাচনের পরই হবে চূড়ান্ত লড়াই। এ লড়াইয়ে আমাদেরকে অবশ্যই বিজয়ী হতে হবে। কারণ বিএনপি-জামায়াতসহ স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি যেভাবে সন্ত্রাস বোমাবাজি করে নির্বাচন বানচাল ও বিদেশে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করতে তৎপর সেখানে কারোরই ঘরে বসে থাকার সুযোগ নেই। বাড়ি-ঘরে আগুন দিয়ে হিংসাত্বক কর্মকাণ্ড করছে। এখন পাশের ঘরও নিরাপদ নয়। ’

স্বাধীনতার চেতনা ও সাংবিধানিক গণতন্ত্র সমুন্নত রাখতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে সব ষড়যন্ত্র নসাৎ করতে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদ, চট্টগ্রামের সভাপতি ডা. একিউএম সিরাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের মহাসচিব অ্যাডভোকেট রাণা দাশগুপ্ত, পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের কেন্দ্রীয় মহাসচিব প্রফেসর ডা. কামরুল হাসান খান, বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির (বাকবিশিস) সভাপতি অধ্যাপক নুর মোহাম্মদ তালুকদার, বিএমএ মহাসচিব প্রফেসর ডা. ইকবাল কবির আর্সলান এবং ইনস্টিটিটিউট অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্সের সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর শামসুর রহমান প্রমুখ।

বক্তারা বলেন,‘দেশকে পরিপূর্ণভাবে মুক্তিযুদ্ধের মূল চেতনায় প্রতিষ্ঠিত করতে হলে আগামী নির্বাচনে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির ঐক্যের বহিঃপ্রকাশ ঘটাতে হবে। এজন্য আগামী নির্বাচনে সর্বোচ্চ সংখ্যক ভোটারের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে হবে। একই সঙ্গে তাদের সার্বিক নিরাপত্তাও দিতে হবে। ’

তারা বলেন,‘যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বানচাল ‌এবং তা প্রশ্নবিদ্ধ করতে জামায়াত-শিবির বিভিন্ন চক্রান্ত করেছে। কিন্তু তাদের সব ধরনের চক্রান্ত ধূলিসাৎ হয়েছে। বাঙালি একাত্তরে জয়ী হয়েছে এখন তারা পরাজিত হতে পারে না। ’

আগামী নির্বাচনে জনগণকে অংশগ্রহণের আহ্বান জানিয়ে বক্তারা বলেন,‘দশম জাতীয় নির্বাচন সাংবিধানিক ধারাবাহিকতা রক্ষার নির্বাচন। এই নির্বাচনে জয় হতেই হবে। অন্যথায় গণতন্ত্র ব্যহত হবে। ক্ষমতায় আসবে অগণতান্ত্রিক শক্তি। ’

এজন্য থানা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে বিগ্রেড গড়ে সব ধরনের ষড়যন্ত্র নসাৎ করে নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোটার উপস্থিতি নিশ্চিত করতে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান তারা।
 
পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের কেন্দ্রীয় মহাসচিব প্রফেসর ডা. কামরুল হাসান খান বলেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার অব্যাহত রাখতে হলে বিএনপি-জামায়াতের অপশক্তির বিরুদ্ধে সকলকে নৈতিকভাবে মাঠে থাকতে হবে।

পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রিয়াজ হায়দার চৌধুরীর সঞ্চালনায় সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি আবু সুফিয়ান, বিএমএর কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. উত্তম কুমার বড়ুয়া, পরিষদের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব অধ্যক্ষ মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর, চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি শহীদ উল আলম, প্রকৌশলী নেতা মোহাম্মদ হারুন, পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের কোষাধ্যক্ষ অ্যাড. মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী, সহ-সম্পাদক রাশেদ হাসান, শিক্ষক নেতা অঞ্চল চৌধুরী, বিএমএ সভাপতি ডা. মুজিবুল হক খান,চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. সেকান্দর চৌধুরী এবং শহীদ পরিবারের সন্তান শেখ শহীদুল আনোয়ার প্রমুখ।

এদিকে এর আগে সকালে পেশাজীবীদের পৃথক এক মত বিনিময় সভায় সংহতি জানিয়ে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা জিয়া উদ্দিন বাবলু, সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ও চট্টগ্রাম জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আজম নাছির উদ্দিন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪০ঘণ্টা, জানুয়ারি ০২, ২০১৪
সম্পাদনা: তপন চক্রবর্তী, ব্যুরো এডিটর।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa