ঢাকা, শনিবার, ৭ কার্তিক ১৪২৮, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

শিক্ষা

ঢাবিতে কৃষ্ণচূড়া গাছ কাটায় শিক্ষার্থীদের ক্ষোভ

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯১২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২১
ঢাবিতে কৃষ্ণচূড়া গাছ কাটায় শিক্ষার্থীদের ক্ষোভ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) প্রক্টর অফিসের সামনে অবস্থিত কৃষ্ণচূড়া গাছটি কেটে ফেলা হয়েছে। এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন শিক্ষার্থীরা।

তবে গাছটি ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় সংশ্লিষ্টদের মতামত নিয়ে কাটা হয়েছে বলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, কৃষ্ণচূড়া গাছটির ডালপালা কেটে ফেলা হয়েছে। এখন গাছের গোড়া কাটা হচ্ছে।

শ্রমিকরা জানান, গাছটির গোড়া নরম হয়ে আসছে। চারদিকে কংক্রিট থাকায় মাটির গুণাগুণ নষ্ট হয়ে গেছে। এ কারণে গাছটি ঝুঁকিপূর্ণ।

তবে, শিক্ষার্থীরা গাছ কাটার কঠোর সমালোচনা করেছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী মাহমুদুল রহমান বলেন, গাছ আমাদের যে অক্সিজেন দেয় সেটি আমাদের প্রশাসনের লোকজন বোঝে না? প্রয়োজনের তাগিদে গাছ কাটা যেতে পারে। কিন্তু এখানকার গাছটি কোন ধরনের ঝুঁকিপূর্ণ হয়েছে বলে আমার মনে হয় না। এভাবে গাছ কাটলে সুবজের পরিমাণ কমে যাবে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের আরবরি কালচার সেন্টারের পরিচালক অধ্যাপক মিহির লাল সাহা বাংলানিউজকে বলেন, গাছের প্রতি আমার ভালোবাসা সন্তানের মতো। নিজেও গাছ লাগাতে ভালোবাসি। গাছের খাদ্য তৈরিতে সূর্যের আলো প্রয়োজন হয়। এ জন্য গাছ সূর্যের আলোর দিকে ঝুঁকে যায়। এ কারণে মূল আর আগার ওজনের ভারসাম্য থাকে না। ওখানে যেহেুতু চারদিকে কংক্রিট ও মাটিও নরম থাকায় গাছটিকে আমরা ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করি। সে কারণে এটি আমরা কেটে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

বাংলাদেশ সময়:১৯১১ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২১
এসকেবি/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa