ঢাকা, সোমবার, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৫ আগস্ট ২০২২, ১৬ মহররম ১৪৪৪

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

ক্ষতি পোষাতে সাপ্তাহিক ছুটি কমানোর দাবি ব্যবসায়ীদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৪৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৩, ২০১৪
ক্ষতি পোষাতে সাপ্তাহিক ছুটি কমানোর দাবি ব্যবসায়ীদের ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

চট্টগ্রাম: রাজনৈতিক অস্থিরতায় ব্যবসায়িক ক্ষতি পোষাতে সাপ্তাহিক ছুটি একদিন করার দাবি জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। এসময় তারা রোববার সাপ্তাহিক ছুটি রাখার দাবি তোলেন।

 

বৃহস্পতিবার বিকেলে অনুষ্ঠিত এক সভায় এ দাবি জানানো হয়। নগরীর আগ্রাবাদে চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র(সিএমসিসিআই) সভা কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সিএমসিসিআই’র পঞ্চম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে এ মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় ব্যবসায়ীরা বলেন, গত ছয় সাত ধরে হরতাল অবরোধ ও রাজনৈতিক অস্থিরতার কারণে অর্থনৈতিকভাবে আমরা অনেক পিছিয়ে গেছি। তাই এ ক্ষতি পুষিয়ে নিতে সাপ্তাহিক ছুটি দুইদিনের পরিবর্তে একদিন করা উচিত।

মেট্রোপলিটন চেম্বারের পরিচালক অধ্যাপক জাহাঙ্গীর চৌধুরী বলেন,‘রাজনৈতিক অস্থিরতার কারণে অর্থনৈতিকভাবে আমরা অনেক পিছিয়ে গেছি। এ ক্ষতি পোষাতে হলে সাপ্তাহিক ছুটি একদিন করা দরকার। ’

সুশাসনের অভাবে দেশের প্রকৃত উন্নয়ন হয়নি মন্তব্য করে তিনি দুর্নীতি নির্মুল করে সুশাসন কায়েম করার জন্য বর্তমান সরকারের কাছে প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

মেট্রোপলিটন চেম্বারের প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক মো.আব্দুল আওয়াল বলেন,‘লস কাভার আপ করতে হলে হলি ডে’র প্রয়োজন নেই। তবে যেহেতু ছুটি বন্ধ করা যাবে না তাই সাপ্তাহিক ছুটি একদিন করা হোক। ’

তিনি বলেন, সফলতা পেতে হলে আমাদের পরিশ্রম করতে হবে। কর্মঘন্টা বাড়িয়ে অর্থনৈতিক সফলতা আনতে হবে।

বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে সাপ্তাহিক ছুটি রোববার করা প্রয়োজন উল্লেখ করে তিনি বলেন, বিশ্বের অধিকাংশ দেশে সাপ্তাহিক ছুটি রোববার। কিন্তু আমাদের এখানে শুক্রবার। অথচ মালয়েশিয়ার মতো মুসলিম দেশেও সাপ্তাহিক ছুটি রোববার। ’

তিনি যুক্তি দেখিয়ে বলেন, আমাদের দেশে সপ্তাহে দুইদিন ছুটি রয়েছে। অন্যদিকে রোববার বিশ্বের অধিকাংশ দেশে ছুটি। ফলে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা মূলত সপ্তাহে চারদিন কাজ করতে পারে।

সাপ্তাহিক ছুটি রোববার করা হলে অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে গতি আসবে বলে মনে করেন তিনি।

সভাপতির বক্তব্যে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সভাপতি খলিলুর রহমান বলেন, ব্যবসায়ীদের দীর্ঘদিনের দাবি ও আকাঙ্খার প্রেক্ষিতে এ চেম্বার প্রতিষ্ঠা হয়েছে। অন্যান্য চেম্বারের সমান হতে না পারলেও এগিয়ে যাচ্ছি আমরা।

ব্যবসায়ীদের বিভিন্ন সমস্যা সরকারের কাছে তুলে ধরাই চেম্বারর কাজ উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রতিষ্ঠার পর থেকে এ চেম্বার ব্যবসা-বাণিজ্যে গ্যাস, বিদ্যুৎ সহ নানা সমস্যা সরকারের কাছে তুলে ধরেছি। বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনাও হয়েছে।

তবে বাস্তবায়নের দায়িত্ব চেম্বারের নয় জানিয়ে বিশিষ্ট এ ব্যবসায়ী বলেন,‘সমস্যা সমাধান আমাদের কাজ নয়। সমাধান করবে সরকার। ‘

চট্টগ্রামকে বাণিজ্যিক রাজধানী বলা হলেও প্রকৃতপক্ষে তা হয়ে উঠেনি অভিযোগ করে তিনি বলেন,‘চট্টগ্রাম যেদিন সত্যিকার অর্থে বাণিজ্যিক রাজধানী হবে সেদিন চট্টগ্রামবাসীর স্বপ্ন পূরণ হবে। ’

চেম্বারের পরিচালক ড.মহসিন জিল্লুর করিম বলেন, চট্টগ্রামকে বাণিজ্যিক রাজধানী, প্রাচ্যের রাণী কতো বিশেষণেই না ডাকা হয়। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে এ চট্টগ্রাম অবহেলিত। বিশ্বমানের এ নগরীকে যেন আর অবহেলা করা না হয়।

তিনি বলেন,‘সবার সহযোগিতা পেলে চট্টাগ্রামকে বিশ্বমানের নগরী হিসেবে গড়ে তুলবো। ’

প্রতিষ্ঠার পর গত ৪ বছরে মেট্রো পলিটন চেম্বারের তেমন কোন সফলতা নেই বলে মনে করেন সাধারণ সদস্যরা। হতাশা রয়েছে অনেক পরিচালকের মধ্যেও। মতবিনিময় সভায় অনেকের বক্তব্যে ফুটে উঠেছে হতাশার কথা।

তবে চেম্বারের সহ-সভাপতি মাহবুব চৌধুরীর দাবি তারা শতভাগ সফল। উচ্চ পর্যায়ে কাজ করার কারণে তা প্রকাশ্যে আসছে না।

‘বিশ্বের প্রায় সব বন্দরে মেট্রোপলিটন চেম্বার রয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, এসব চেম্বার ‘পলিসি মেকারে’ কাজ করে। আমরাও করছি। গত চার বছরে যে কাজ করেছি তাতে আমরা শতভাগ সফল। ’

বিগত সময়ে সরকারি নীতি নির্ধারণী পর্যায়ে অনেক কাজ করা হয়েছে দাবি করে মাহবুব চৌধুরী বলেন,‘ আমাদের দাবির প্রেক্ষিতেই শুল্কমুক্তভাবে ক্যাপিটাল মেশিনারি আমদানি হচ্ছে। একইভাবে আমাদের দাবির প্রেক্ষিতেই চট্টগ্রাম বন্দরে এডভাইজারি কমিটি করা হয়েছে। ‘
 
দায়সারা অনুষ্ঠান:
চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র পঞ্চম বর্ষপূর্তি অনেকটা দায়সারাভাবেই পালন করা হয়েছে।

৪২ জন পরিচালকের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মাত্র ১৩জন। সাধারণ সদস্যদের উপস্থিতিও তেমন লক্ষ্য করা যায়নি।

বিকেল তিনটায় অনুষ্ঠান শুরু হওয়ার ঘোষণা থাকলেও বিকেল ৪টায় শুরু হয় এ অনুষ্ঠান।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৪৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৩, ২০১৪

* নিয়ম রক্ষার আবর্তে ঘুরছে চট্টগ্রাম মেট্টোপলিটন চেম্বার

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa