ঢাকা, শনিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

শিল্প

হাইকোর্টের আদেশ পেলে ট্যানারির জরিমানার বিষয়ে আপিল

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৭ ঘণ্টা, জুন ১৯, ২০১৬
হাইকোর্টের আদেশ পেলে ট্যানারির জরিমানার বিষয়ে আপিল

ঢাকা: রাজধানীর হাজারীবাগ থেকে সাভারে ট্যানারি স্থানান্তর না করা পর্যন্ত প্রতিদিন ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানার বিষয়ে হাইকোর্টের আদেশ এখনো হাতে পাননি মালিকরা। আদালতের আদেশ অমান্য করে পরিবেশ দূষণ করায় ১৫৪ ট্যানারিকে ওই জরিমানা করেছেন উচ্চ আদালত।

হাইকোর্টের আদেশ হাতে পেলে ওই আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন ট্যানারি মালিকরা।  

ট্যানারিগুলোর সর্বশেষ অবস্থা সম্পর্কে আদালতের জিজ্ঞাসার জবাবে ১৫৫ ট্যানারির তালিকা বৃহস্পতিবার (১৬ জুন) আদালতে দাখিল করেছিলো শিল্প মন্ত্রণালয়। এর মধ্যে কেবল রিলায়েন্স ট্যানারি লিমিটেড ইউনিট-২ নামের একটি প্রতিষ্ঠান সাভারে স্থানান্তর করা হয়েছে বলে জানান শিল্পসচিব। বাকি ১৫৪টি ট্যানারি স্থানান্তরিত হয়নি।  

এরপর জরিমানার আদেশ দিয়ে সরকারি কোষাগারে টাকা জমা দেওয়ার নির্দেশ দেন বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি এ কে এম সাহিদুল হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ।  

রোববার (১৯ জুন) বাংলাদেশ ট্যানারিজ অ্যাসোসিয়েশনের (বিটিএ) সাধারণ সম্পাদক মো. শাখাওয়াত উল্লাহ বাংলানিউজকে বলেন, ‘বৃহস্পতিবার আদালতের আদেশ হয়েছিলো বলে আমরা শুনেছি। এখনো আদালতের লিখিত আদেশ পাইনি। লিখিত আদেশ হাতে পেলে আপিল করার বিষয়ে আইনজীবী ঠিক করে সিদ্ধান্ত নেবো’।  
 
এক রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে ২০০১ সালে ট্যানারি শিল্প হাজারীবাগ থেকে সাভারের বিসিক ট্যানারি শিল্পনগরীতে সরিয়ে নিতে নির্দেশ দিয়েছিলেন হাইকোর্ট।

দীর্ঘদিন ধরে ওই আদেশ বাস্তবায়িত না হওয়ায় অন্য এক রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে ২০১০ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারির মধ্যে হাজারীবাগের ট্যানারি শিল্প সরিয়ে নিতে ২০০৯ সালের ২৩ জুন হাইকোর্ট ফের নির্দেশ দেন।

সরকারপক্ষের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে পরে ওই সময়সীমা কয়েক দফা বাড়িয়ে ২০১১ সালের ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত করা হয়।

কিন্তু এ সময়ের মধ্যেও ট্যানারি স্থানান্তরিত না হওয়ায় আদালত অবমাননার মামলা করেন পরিবেশবাদী সংগঠন হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের পক্ষ থেকে মনজিল মোরসেদ।

এ মামলার প্রেক্ষিতে ২০১৪ সালের ১৫ এপ্রিল আদালত অবমাননার রুল জারি করেন হাইকোর্ট।

পরে গত বছরের ২১ এপ্রিল আদালতের তলবে হাইকোর্টে হাজির হয়ে এ বিষয়ে ব্যাখ্যা দেন শিল্পসচিব।

গত ১৩ এপ্রিল রাজধানীর হাজারীবাগে এখনো যেসব ট্যানারি ব্যবসা পরিচালনা করছে তাদের তালিকা চেয়েছিলেন হাইকোর্ট।

আদালতের এ আদেশ অনুসারে শিল্পসচিবের পক্ষে আইনজীবী রইস উদ্দিন ১৫৫টি ট্যানারির তালিকা হস্তান্তর করেন। এর মধ্যে মাত্র একটি ট্যানারি স্থানান্তর করে।

বাংলাদেশ সময়: ২২৪৯ ঘন্টা, জুন ১৯, ২০১৬
ইএস/এএসআর

** যেসব ট্যানারি প্রতিদিন ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা গুনবে
** ট্যানারি না সরালে প্রতিদিন ৫০ হাজার টাকা জরিমানা
** হাজারীবাগে থাকা ট্যানারির তালিকা চেয়েছেন হাইকোর্ট
** ট্যানারি বন্ধ করে অব্যাহতি পেলেন তিন মালিক

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa