ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

আইন ও আদালত

পাঁচ বছরের শিশুকে বিদেশ নিতে নিষেধাজ্ঞা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৫, ২০২১
পাঁচ বছরের শিশুকে বিদেশ নিতে নিষেধাজ্ঞা

ঢাকা: বাবা মায়ের ডিভোর্স হওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে পাঁচ বছরের শিশু কন্যাকে দেশের বাইরে না নেওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন হাইকোর্ট।

একইসঙ্গে ওই শিশুটিকে মায়ের জিম্মায় দিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়েছেন আদালত।

শিশুটির মায়ের করা এক আবেদনের শুনানি নিয়ে সোমবার (২৫ অক্টোবর) বিচারপতি মাহমুদুল হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন

আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী খুরশীদ আলম খান, জেড আই খান পান্না ও এম আব্দুল কাইয়ুম।

আবেদনকারী রাজধানী গুলশানের বাসিন্দা ইকবাল কামাল ও নাজমা সুলতানার মেয়ে তাসনুভা ইকবাল একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থাপত্য বিভাগের শিক্ষক। ২০১৫ সালের ২০ অক্টোবর তিনি আদাবরের বাসিন্দা ড. শামসুল আলমের ছেলে মুশফেক আলম সৈকতকে বিয়ে করেন। ২০১৬ সালের ১৮ ডিসেম্বর তিনি একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। পরবর্তীতে তাদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয়ে বনিবনা হচ্ছিল না। এরমধ্যে তাসুনভা আদালতেরও দ্বারস্থ হন। পরবর্তীতে চলতি বছরের ৩ জানুয়ারি সৈকত তাসনুভাতে ডিভোর্স নোটিশ দেন।

এ অবস্থায় বাবার কাছে থাকা মেয়েকে দেখতে চেয়ে নিম্ন আদালতে মামলা করে তাসনুভা।

খুরশীদ আলম খান জানান, নিম্ন আদালত শিশুটিকে ভার্চ্যুয়ালি দেখার সুযোগ দিয়ে আবেদনটি খারিজ করে দেন। এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে আবেদন করেন তাসনুভা। আবেদনের শুনানি নিয়ে আদালত রুল জারি করেছেন। সেইসঙ্গে রুল নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত শিশুটিকে বিদেশে নেওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন আদালত।

এ আবেদনের বিবাদী করা হয় শিশুটির বাবা মুসফেক আলম সৈকত, দাদা ড. শামসুল আলম ও দাদি মোমতাজ আলমকে। ড. শামসুল আলম সরকারের পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী।

বাংলাদেশ সময়: ২০১৭ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৫, ২০২১
ইএস/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa