ঢাকা, সোমবার, ১১ আষাঢ় ১৪৩১, ২৪ জুন ২০২৪, ১৬ জিলহজ ১৪৪৫

রাজনীতি

যারা গাজায় গণহত্যা অস্বীকার করে, তাদের নিষেধাজ্ঞায় মাথাব্যথা নেই: কাদের

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪২ ঘণ্টা, মে ২২, ২০২৪
যারা গাজায় গণহত্যা অস্বীকার করে, তাদের নিষেধাজ্ঞায় মাথাব্যথা নেই: কাদের ‘সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ স্মার্ট বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় আমাদের অভিনিবেশ ও কর্মস্পৃহা’ শীর্ষক সভা | ছবি: ডিএইচ বাদল

ঢাকা: যারা গাজার গণহত্যাকে অস্বীকার করে তারা কোথায় কাকে নিষেধাজ্ঞা-ভিসানীতি দিল, তাতে আমাদের কোনো মাথাব্যথা নেই বলে মন্তব্য করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

বুধবার (২২ মে) আওয়ামী লীগের এক সভায় সাবেক সেনাপ্রধান আজিজ আহমেদের ওপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের  উত্তরে তিনি এ কথা বলেন।

বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ‘সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ স্মার্ট বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় আমাদের অভিনিবেশ ও কর্মস্পৃহা’ শীর্ষক এ সভার আয়োজন করে দলের সংস্কৃতি বিষয়ক উপ-কমিটি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, যারা গাজার গণহত্যাকে অস্বীকার করে তারা কোথায় কাকে নিষেধাজ্ঞা, ভিসানীতি দিল, তাতে আমাদের কোনো মাথাব্যথা নেই।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডোনাল্ড লু’র বাংলাদেশ সফর প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, ডোনাল্ড লু আসলেন সম্পর্ক এগিয়ে নিতে। সেখানে আবার তিনি যেতে না যেতেই নিষেধাজ্ঞা এসেছে। আগে ৭ জনের ওপর, এখন আবার একজন। আমি এ কথাই বলতে চাই, যারা গাজার গণহত্যাকে এবং যারা গণহত্যা ঘটাচ্ছে তাদের এই নিষ্ঠুর ও বর্বরোচিত ভূমিকাকে গণহত্যা বলতে চায় না, তারা কোথায় কাকে নিষেধাজ্ঞা দিল, তাতে আমাদের কোনো মাথাব্যথা নেই। সাড়ে ৩৫ হাজার মানুষকে নির্বিচারে, নিষ্ঠুরভাবে অবিরাম হত্যা করছে গাজায়। ঘোষণা দিয়ে গণহত্যা করছে। হলোকাস্টের সময় ৬০ লাখ ইহুদিকে হত্যার কথা ইতিহাসে আছে। এখন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু যা করছে, তা হিটলারের চেয়েও ভয়াবহ।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, এই গণহত্যার বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের ওপর হামলা করা হচ্ছে। যারা প্রটেস্টারদের এভাবে হামলা করে, তাদের গণতন্ত্র, মানবাধিকার; যারা গণহত্যাকে অস্বীকার করে, তারা আমাদের কাকে নিষেধাজ্ঞা, ভীসানীতি দিল, সেটা নিয়ে আমাদের মাথাব্যথা নেই।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশের সশস্ত্র বাহিনীর আলাদা নিয়মকানুন আছে। সেখানে যদি কেউ অপরাধ করে থাকে, সেটা প্রমাণিত হলে কোনোদিনও ছাড় দেওয়ার লোক বঙ্গবন্ধুর কন্যা না।

সংস্কৃতি বিষয়ক উপ-কমিটি চেয়ারম্যান মঞ্চসারথি আতাউর রহমানের সভাপতিত্বে সভা পরিচালনা করেন সংস্কৃতি বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য সচিব অসীম কুমার উকিল। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী নাহিদ ইজাহার খান, সাবেক সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ, ঢাকা ১০ আসনের সংসদ সদস্য নায়ক ফেরদৌস আহমেদ ও আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য আনিসুল ইসলাম।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৬ ঘণ্টা, মে ২২, ২০২৪
এসকে/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।