ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

রাজনীতি

আলজাজিরা রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছাড়া প্রতিবেদন করেনি: নুর

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২১
আলজাজিরা রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছাড়া প্রতিবেদন করেনি: নুর কথা বলছেন নুরুল হক নুর। ছবি: শাকিল আহমেদ

ঢাকা: সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। আলজাজিরা রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছাড়া প্রতিবেদন করেনি বলে জানিয়েছেন ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক সহ-সভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুর।

মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল সাড়ে ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে পলিটেকনিক শিক্ষার্থীরদের ওপর হামলার প্রতিবাদে ছাত্র অধিকার পরিষদ আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

নুর বলেন, আজকে বাংলাদেশের স্বাধীনতার সার্বভৌমত্বের প্রতীক সেনাবাহিনীকে নিয়ে ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে। আমি মনে করি, শুধু সেনাবাহিনীকে নয়, বাংলাদেশকে নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ছাত্র, যুবক, বন্ধুদের বলবো, আপনারা চোখ-কান খোলা রাখেন।

ডাকসুর সাবেক ভিপি আরও বলেন, এই যে আলজাজিরার প্রতিবেদনটির অবশ্যই অনেক সত্যতা রয়েছে। কিন্তু, আপনাদের বুঝতে হবে এটা একটি রাষ্ট্রের স্পর্শকাতর ও গুরুত্বপূর্ণ প্রতিবেদন। আলজাজিরা কিন্তু কোনো রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছাড়া এই প্রতিবেদন প্রকাশ করেনি। আমরা বলছি সত্যতা আছে কিন্তু একইসঙ্গে পলিটিক্যালি মোটিভেটেড। কারণ এই সরকার যতদিন ধরে ক্ষমতায় আছে আমেরিকা, চীন চাচ্ছে বাংলাদেশকে একটা পকেট বানাতে। কাজেই দুই পরাশক্তি এবং পার্শ্ববর্তী দেশের ত্রিমুখী প্রতিযোগিতা। এখন সরকার তো ভোটে নির্বাচিত নয়। তারা টিকে আছে তথাকথিত অপশক্তির কারণে। তাই নতুন কাউকে ক্ষমতায় এনে সত্য উন্মোচন করা হয়েছে। এটাকে সত্য বলতে পারেন আবার ষড়যন্ত্র বলতে পারেন। সত্য বলার পরিবেশ না থাকলে ষড়যন্ত্র করে পরিবেশ তৈরি করবে।

পলিটেকনিক শিক্ষার্থীদের দাবির কথা উল্লেখ করেন নুর বলেন, তাদের কোনো দাবি অযৌক্তিক নয়। প্রত্যেকটি ছাত্র সংগঠন জানিয়েছে যে, করোনাকালে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ফি নেওয়া যাবে না। প্রয়োজনে আমরা বলবো আপনারা অর্ধেক করে ফি নেন। কিন্তু আপনাদের মানবিক পরিচয় দিতে হবে।  

নুর বলেন, পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে করোনাকালে যারা কর্মহীন হয়েছে, সেদেশের সরকার ভর্তুকি দিয়েছে , রাষ্ট্র ভরণ পোষণের দায়িত্ব নিয়েছে। অথচ আমাদের সরকার ২ হাজার ৫শ টাকা দিয়েই সীমাবদ্ধ। তাও আমরা দেখেছি ৫০ লাখ মানুষের তালিকা করলেও কতজন পেয়েছে। মুজিব বর্ষের উপহার ঘর দিচ্ছে, সে ঘর উঠতে না উঠতেই ভেঙে পড়ে মানুষের গায়ে। আমি প্রধানমন্ত্রীকে বলতে চাই, আপনার এই উদ্যোগ অনেক ভালো, আপনার আশে-পাশে থাকা চোর-বাটপার, দুর্নীতিবাজদের কারণে ভেস্তে যাচ্ছে। আমরা যারা আপনার সমালোচক করি দুর্ভাগ্যজনক যে আপনারা আমাদের কথা নেন না।

সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন সংগঠনটির ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান, যুগ্ম আহ্বায়ক ফারুক খান প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৫০০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৯, ২০২১
এমএমআই/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa