ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ মাঘ ১৪২৮, ২৮ জানুয়ারি ২০২২, ২৪ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

সারাদেশেই ছাত্রদের হাফ ভাড়া নিশ্চিত করতে হবে: জিএম কাদের

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১, ২০২১
সারাদেশেই ছাত্রদের হাফ ভাড়া নিশ্চিত করতে হবে: জিএম কাদের

ঢাকা: জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সংসদে বিরোধী দলীয় উপনেতা জিএম কাদের বলেছেন, শুধু রাজধানী নয়, সারাদেশেই শর্তহীনভাবে ছাত্রদের হাফ ভাড়া নিশ্চিত করতে হবে।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) দুপুরে বনানী কার্যালয়ে ব্যারিস্টার খাজা তানভির আহমেদের নেতৃত্বে অর্ধশত নেতা-কর্মী জাতীয় পার্টিতে যোগদান উপলক্ষে তিনি একথা বলেন।

জাপা চেয়ারম্যান বলেন, হাফ ভাড়ার জন্য ছাত্ররা রাজপথে আন্দোলন করছে, ছাত্রদের হাফ ভাড়ার আন্দোলন যৌক্তিক। ছাত্রদের আন্দোলনে সাধারণ মানুষ রাজধানীর সড়কে আটকে সীমাহীন ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন, কিন্তু কারো যেন কিছুই করার নেই। ছাত্রদের হাফ ভাড়ার দাবিতে কোনো শর্ত গ্রহণযোগ্য নয়।

তিনি বলেন, সড়কের নৈরাজ্য বন্ধ করতে হবে। তেলের দাম বাড়ার পর থেকে সরকারের সঙ্গে আলোচনায় যে হারে ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে, শ্রমিকরা তার চেয়েও বেশি ভাড়া আদায় করছেন। অযৌক্তিকভাবে ভাড়া বাড়িয়েছে সিএনজি চালিত বাসও। প্রতিবাদ করলে যাত্রীদের লাঞ্ছিত করে পথে নামিয়ে দিচ্ছেন শ্রমিকরা।

তিনি আরও বলেন, পরিবহন মালিক ও শ্রমিকরা এক শ্রেণির নেতার কাছে জিম্মি হয়ে আছেন। সরকার সাধারণ মানুষের স্বার্থ না দেখে, পরিবহন মালিকদের সঙ্গে আঁতাত করে ভাড়া বাড়িয়ে দিয়েছে। সরকার জনগণের পক্ষে কাজ করছে না, সাধারণ মানুষ মনে করছে সরকারও পরিবহন মালিকদের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে।

এ সময় সড়ক পথের চাঁদাবাজি বন্ধ করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান জাপা চেয়ারম্যান।

তিনি বলেন, আগামী দিনের রাজনীতিতে জাতীয় পার্টির জন্য সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়েছে। দেশের মানুষ জাতীয় পার্টিকে  আবরও রাষ্ট্র ক্ষমতায় দেখতে চায়, তাই প্রতিদিন বিশিষ্টজনরা জাতীয় পার্টিতে যোগ দিচ্ছেন।

জাতীয় পার্টি স্বার্থের রাজনীতি করে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমরা দেশ ও দেশের মানুষের জন্য রাজনীতি করছি। ১৯৯০ সালের পর থেকে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি দেশের মানুষকে যে প্রতিশ্রুতি দিয়েচিল তা রক্ষা করতে পারেনি। দেশের মানুষ বলতে শুরু করেছে, এরশাদের আমলেই তারা ভাল ছিলেন। তারা জাতীয় পার্টিকেই আবারও রাষ্ট্র ক্ষমতায় দেখতে চায়।

এ সময় মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু বলেন, ৩০০ আসনেই প্রার্থী দিতে কাজ করছে জাতীয় পার্টি। তাই সাধারণ মানুষের সঙ্গে যাদের সম্পর্ক ভাল, তারাই দলীয় মনোনয়ন পাবেন।
নেতা-কর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, জোটের কথা ভুলে কাজ করুন, কারো সঙ্গেই জোট হবে না। জাতীয় পার্টি এককভাবেই নির্বাচনে অংশ নেবে।

এ সময় তিনি দলকে আরও শক্তিশালী করতে নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান।
অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন জাপা প্রেসিডিয়াম সদস্য এটিইউ তাজ রহমান, অ্যাড. মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, যোগদানকারীদের মধ্যে ব্যারিষ্টার খাজা তানভির আহমেদ ও সামছুল ইসলাম মজনু।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০১, ২০২১
এসএমএকে/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa