ঢাকা, বুধবার, ৫ মাঘ ১৪২৮, ১৯ জানুয়ারি ২০২২, ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

স্বাধীনতার ৫০ বছরেও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হয়নি: মেনন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৩৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৮, ২০২১
স্বাধীনতার ৫০ বছরেও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হয়নি: মেনন

ঢাকা: স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছরেও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হয়নি বলে উল্লেখ করেছেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি এবং সংসদ সদস্য (এমপি) রাশেদ খান মেনন।

বুধবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে ঝালকাঠি প্রেসক্লাবে সম্মিলিত মুক্তিযোদ্ধা সংসদের উদ্যোগে ভার্চ্যুয়ালি বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা অনুষ্ঠানের উদ্বোধনকালে তিনি এ কথা বলেন।

রাশেদ খান মেনন বলেন, বিজয়ের ৫০ বছরেও স্বাধীনতার ঘোষণাপত্রের সাম্য, মানবিক মর্যাদা ও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হয়নি। মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতাসহ বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা বাড়ানো হলেও বৃহদাংশ বীর মুক্তিযোদ্ধাসহ দরিদ্র ও কর্মহীনতার শিকার। দীর্ঘ সময় ধরে সামরিক শাসন ও স্বৈরশাসন দেশের মানুষকে মুক্তিযুদ্ধের বিকৃত ইতিহাস মুখস্থ করতে বাধ্য করেছে।

তিনি বলেন, এখনও ষড়যন্ত্র থেমে নেই। ইউটিউব খুললেই জাতীয় পতাকা, জাতীয় সংগীত ও সংবিধান সম্পর্কে বিরূপ মন্তব্য শোনা যায়। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষে তার ভাস্কর্য ও ম্যুরাল ধ্বংস করার ঔদ্ধত্য দেখা যায়। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নতুন প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জানাতে হবে।

বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুর হক মৃধার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আমির হোসেন আমু।

বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং সংসদ সদস্য শাজাহান খান, প্রধান বক্তা ছিলেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির ঢাকা মহানগর সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসাইন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৮, ২০২১
আরকেআর/আরআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa