ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ মাঘ ১৪২৮, ২৭ জানুয়ারি ২০২২, ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য বিশ্ববাসীকে বিভ্রান্ত করবে: জামায়াত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১০৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১০
প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য বিশ্ববাসীকে বিভ্রান্ত করবে: জামায়াত

ঢাকা: জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৬৫তম অধিবেশনে অসত্য বক্তব্য দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্ববাসীকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা চালিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছে জামায়াতে ইসলামী।

রোববার জামায়াতের প্রচার বিভাগের সম্পাদক অধ্যাপক তাসনীম আলম সাক্ষরিত এক বিবৃতিতে দলের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল এটিএম আজহারুল ইসলাম এ অভিযোগ করেন।



এর আগে শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত আড়াইটায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৬৫তম অধিবেশনে বক্তৃতাকালে বলেন ‘১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় গুরুতর মানবতাবিরোধী অপরাধ ও যুদ্ধাপরাধের সঙ্গে জড়িতদের বিচারের জন্য গঠিত যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালকে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত সংক্রান্ত রোম ঘোষণার সঙ্গে সম্পূর্ণ সঙ্গতিপূর্ণ। ’

প্রধানমন্ত্রীর এ বক্তব্যের বিরোধিতা করে এটিএম আজহারুল ইসলাম বলেন, ‘১৯৭৩ সালের যে আইনে যুদ্ধাপরাধের তথাকথিত বিচারের চেষ্টা করা হচ্ছে, সে আইন সম্পর্কে দেশি বিদেশি আইনজীবী ও আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা আপত্তি জানিয়েছে। ’

এটিএম আজহারুল ইসলাম অভিযোগ করেন, কথিত যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের যে প্রক্রিয়া বিশ্ববাসী প্রত্যক্ষ করছে তাতে তদন্তকারী কর্তৃপক্ষ, সরকারি কৌসুলি, বাদী ও সাক্ষী জামায়াতে ইসলামী’র প্রতি বিদ্বেষ পোষণকারী মহল থেকেই নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।  

যুদ্ধাপরাধ বিচার নিয়ে দেশি বিদেশি বিভিন্ন সংস্থা শঙ্কা প্রকাশ করছে দাবি করে এটিএম আজহারুল ইসলাম বলেন, ‘এই বিচার প্রক্রিয়ায় যুদ্ধাপরাধের সংজ্ঞা, আওতা, তদন্ত, প্রসিকিউশন ও ট্রাইব্যুনাল গঠনে নিরপেতা, স্যা-আইন, প্রভৃতি মৌলিক বিষয় আন্তর্জাতিক আইন ও আদালত, রোম স্ট্যাটিউটের বিধি বিধানকে হেয় করা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৬ ঘণ্টা,  সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa