ঢাকা, বুধবার, ৫ মাঘ ১৪২৮, ১৯ জানুয়ারি ২০২২, ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

‘দেশের মানুষ ভালো নেই’

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮১৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৯, ২০২১
‘দেশের মানুষ ভালো নেই’

ঢাকা: জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সংসদের বিরোধীদলীয় উপনেতা জি এম কাদের বলেছেন, যে সরকার অন্যায়, অবিচার, অনাচার, দুর্নীতি-দুঃশাসনের ভারে ক্রমেই ভারি হতে থাকে সেই সরকারকে হঠাতে আন্দোলনের প্রয়োজন হয় না। ওই ভারেই তাদের ন্যুয়ে পড়তে হয়।

বর্তমান সরকারের হয়েছে সেই অবস্থা।  

তিনি বলেন, দেশের মানুষ এখন কোনোভাবেই ভালো নেই। তারা চরম হতাশায় ভুগছে। এ পরিস্থিতি থেকে পরিত্রাণের জন্য বিকল্প রাজনৈতিক শক্তির উত্থান ঘটানো ছাড়া আর কোনো বিকল্প নেই। এখন জাতীয় পার্টিই হচ্ছে দেশের মানুষের প্রত্যাশিত সেই রাজনৈতিক শক্তি।

বৃহস্পতিবার (৯ ডিসেম্বর) রাজধানীর বনানীস্থ কার্যালয় মিলনায়তনে কিশোরগঞ্জ জেলার তাড়াইল ও করিমগঞ্জ উপজেলার আওয়ামী লীগ ও বিএনপির দুই শতাধিক নেতাকর্মী আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পার্টিতে যোগদান অনুষ্ঠানে জি এম কাদের এ কথা বলেন।  

জাপা চেয়ারম্যান বলেন, ক্ষমতাহীনভাবে ৩১ বছর ধরে টিকা থাকা আমাদের পার্টির প্রতি মানুষের আস্থা অর্জিত হয়েছে বলেই দেশের এ ক্রান্তিলগ্নে সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়ে বিভিন্ন দল থেকে নেতাকর্মীরা জাতীয় পার্টিতে যোগদান করছেন। দেশের রাজনীতিতে পরিবর্তন এখন অপরিহার্য। কারণ আওয়ামী লীগ আর বিএনপি এখন অচল মুদ্রার এপিঠ আর ওপিঠে পরিণত হয়েছে। এ মুদ্রায় আর লেনদেন চলবে না।  

তিনি বলেন, ’৯০ এর পর দুটি দল দেশের মানুষকে শান্তিতে রাখতে পারেনি। সব ক্ষেত্রে বিপর্যয়ের পরিস্থিতি চরম পর্যায়ে পৌঁছে গেছে। যানজটের কারণে নগরবাসী নাকাল অবস্থায় আছে। অযৌক্তিভাবে দ্রব্যমূল্য বেড়ে যাওয়া মানুষ এখন দিশেহারা। অর্থনীতি সচল রাখার স্নায়ুতন্ত্র তেলের দাম বাড়িয়ে দিয়ে মানুষের জীবন দুর্বিসহ করা হয়েছে। আঁতাত করে ট্রান্সপোর্টের ভাড়া বাড়ানো হয়েছে যুক্তিহীনভাবে। এ অবস্থায় দেশ চলতে পারে না।

জি এম কাদের বলেন, জনগণের প্রত্যাশা পূরণে এখন সবাই মিলে কাজ করতে হবে। আমাদের কল্যাণকামী রাজনীতিকে যদি প্রজন্ম থেকে প্রজন্ম প্রবাহিত করতে পারি তাহলেই জাতীয় পার্টি টিকে থাকবে এবং জনগণের আশা আকাঙ্ক্ষার বাস্তবায়ন ঘটবে।  

পার্টির মহাসচিব মো. মুজিবুল চুন্নু এমপির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত যোগদান সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন- জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সুনীল শুভ রায়, মীর আব্দুস সবুর আসুদ, শফিকুল ইসলাম সেন্টু, অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম পাঠান, যুগ্ম মহাসচিব জসীম উদ্দিন ভূঁইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী আবুল খায়ের, দপ্তর সম্পাদক-২ এম এ রাজ্জাক খান, যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক তিতাস মোস্তফা।
 
সভায় যোগদানকারী নেতাদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- তাড়াইল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জহিরুল ইসলাম ভূঁইয়া শাহীন, করিমগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আসমা আক্তার, তাড়াইল উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান নার্গিস সুলতানা, তাড়াইল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. হুমায়ুন কবির ভূঁইয়া, করিমগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আমজাদ হোসেন খান দিদার, জাতীয় পার্টির নব নির্বাচিত ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আশরাফ উদ্দিন, সায়েম দাদ খান নওশাদ, আওয়ামী লীগ নেতা আসাদুজ্জামান।

বাংলাদেশ সময়: ১৮১৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৯, ২০২১
এসএমএকে/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa