ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ কার্তিক ১৪২৮, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

বিনোদন

বিপুল ভট্টাচার্যের চিকিৎসা-সহায়তার জন্য বিশেষ আয়োজন

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২৩১৪ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০১০
বিপুল ভট্টাচার্যের চিকিৎসা-সহায়তার জন্য বিশেষ আয়োজন

শিল্পী বিপুল ভট্টাচার্য ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে অনেক দিন ধরে চিকিৎসাধীন। ‘স্বাধীন বাংলা  বেতার  কেন্দ্র’ ও ‘মুক্তিসংগ্রামী শিল্পী সংস্থা’ ও ‘মুক্তির গানে’র জনপ্রিয় এ শিল্পীর চিকিৎসার জন্য প্রচুর অর্থ প্রয়োজন।

এত অর্থ তার পরিবার-পরিজনদের পক্ষে ব্যবস্থা করা সম্ভব হচ্ছে না। তাই চিকিৎসার তহবিল গঠনের উদ্দেশ্যে তার পাশে দাঁড়িয়েছেন সতীর্থ শিল্পীরা ও সংস্কৃতিজগতের মানুষেরা। এ উপলক্ষে ১১ অক্টোবর সোমবার বিকেল ৫টায়  কেন্দ্রীয় গণগ্রন্থাগারের শওকত ওসমান মিলনায়তনে আয়োজন করা হয়েছে বিশেষ সঙ্গীতানুষ্ঠানের।

অনুষ্ঠানে মুক্তিসংগ্রামী শিল্পী সংস্থার সদস্যরা ছাড়াও গান গাইবেন অর্ণব, আনুশেহ, কৃষ্ণকলি, তানভির আলম সজীবসহ বরেণ্য শিল্পীরা। গান ছাড়াও থাকবে তারেক মাসুদ ও ক্যাথরিন মাসুদ নির্মিত মুক্তিযুদ্ধের প্রামাণ্য চলচ্চিত্র ‘মুক্তির গানে’র বিশেষ প্রদর্শনী।

অসুস্থ মুক্তিযোদ্ধা শিল্পীর এ দুঃসময়ে যারা পাশে দাঁড়াতে চান তারা প্রদর্শনীর দিন মিলনায়তনের সামনে অবস্থানরত আয়োজকদের  ডেস্কে বিশেষ অনুদানের মাধ্যমে শুভেচ্ছা টিকিট ক্রয় করতে পারেন। এছাড়া সবার জন্য টিকিটের মূল্যমান ধরা হয়েছে ১০০ টাকা। অনুষ্ঠান  থেকে প্রাপ্ত অর্থ তার  চিকিৎসার জন্য ব্যয় করা হবে।

মানুষের সহায়তা প্রসঙ্গে অনুষ্ঠানের আয়োজক বিশিষ্ট চলচ্চিত্রকার তারেক মাসুদ বলেন ‘দেশের সব স্তরের শিল্পীরা এক কথায় আমাদের সহায়তা করতে রাজি হয়েছেন, যা আমার খুব ভালো লেগেছে। গণমাধ্যমগুলো বেশ সহায়তা করছে। প্রায় প্রতিটি টিভি চ্যানেলে শিল্পী বিপুল ভট্টাচার্যের সহায়তার জন্য ৩০ সেকেন্ডের প্রমো যাচ্ছে, যা তারা বিনামূল্যে প্রচার করছেন।

শিল্পীদের অসুস্থতার জন্য তহবিল গঠন প্রসঙ্গে তারেক মাসুদ জানান ‘অনেক শিল্পীই অসুস্থ হচ্ছেন। তাদের আর্থিক সহযোগিতার প্রয়োজন হচ্ছে। আমি মনে করি, এর জন্য বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমী এবং প্রধানমন্ত্রীর প  থেকে স্থায়ী তহবিল গঠন করা  যেতে পারে। যাতে বারবার প্রধানমন্ত্রীকে আমাদের বিরক্ত করতে না হয়। এসব ক্ষেত্রে সময়টা খুব গুরুত্বপূর্ণ। আমরা জানি বাংলাদেশের আমলাতান্ত্রিক জটিলতা অনেক বেশি। তাই এটি খুব তাড়াতাড়ি করা দরকার। তাহলে সব শিল্পীই আর্থিক সহযোগিতা পাবেন। ’ শিল্পীদের নিজেদের একটা তহবিল থাকাও জরুরি, যাতে আমরা নিজেরা নিজেদের সহায়তা করতে পারি।

এছাড়া  কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবরও বিপুল ভট্টাচার্যের পাশে দাঁড়িয়েছেন। তিনি ঘোষণা দিয়েছেন সঙ্গীতপ্রতিভা অন্বেষণ কার্যক্রমের বিচারক হিসেবে আয়োজকদের কাছ পাওয়া সব টাকা তিনি শিল্পীর তহবিলে দিবেন। আয়োজকদের কাছ  থেকে তিনি ৫ লাখ টাকা সম্মানী পাচ্ছেন।

বেসরকারি রেডিও স্টেশন রেডিও ফুর্তিও শিল্পীর সহায়তায় এগিয়ে এসেছেন। ৯ অক্টোবর শনিবার রাজধানীর ডেল্টা হাসপাতালে রেডিও ফুর্তির পক্ষ থেকে ফিন্যান্সিয়াল অফিসার নাসির উদ্দিনসহ অন্যান্য কর্মকর্তা শিল্পীকে দেখেতে যান। এ সময় তারা ১ লাখ টাকার চেক শিল্পীর হাতে তুলে দেন।

বাংলাদেশ স্থানীয় সময় ২২৫০, অক্টোবর ১০, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa