ঢাকা, সোমবার, ২ বৈশাখ ১৪৩১, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৫ শাওয়াল ১৪৪৫

ফুটবল

নেইমার থেকে এমবাপ্পে- এক নজরে পিএসজির সেরা দশ দামি ফুটবলার

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮০২ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০২২
নেইমার থেকে এমবাপ্পে- এক নজরে পিএসজির সেরা দশ দামি ফুটবলার সংগৃহীত ছবি

ইউরোপে নিজেদের আধিপত্য বিস্তারের লক্ষ্যে গত কয়েক মৌসুমে রেকর্ড ২ বিলিয়ন ইউরো খরচ করেছে ফরাসি ক্লাব প্যারিস সেইন্ট জার্মেই (পিএসজি)। ২০১১ সালে  কাতার স্পোর্টস ইনভেস্টমেন্ট নামক এক কোম্পানি দলটির শেয়ার কেনার পর থেকে দলবদলে একের পর এক চমক দেখাতে থাকে ফরাসি এই ক্লাবটি।

ফরাসি লিগের পাশাপাশি ইউরোপ তথা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নিজেদের দাপট দেখানোর লক্ষ্যে গত কয়েক বছর ধরেই দলবদলে বড় তারকা খেলোয়াড়দের দলে ভেড়াচ্ছে পিএসজি।  

সর্বশেষ এক দশকের মধ্যে পিএসজি সবচেয়ে বেশি চমক দেখায় ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার নেইমারকে দলে ভিড়িয়ে। স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনা থেকে রেকর্ড ২২২ মিলিয়ন ইউরোতে ২০১৭ সালে নেইমারকে নিজেদের করে নেয় এই ফরাসি জায়ান্টরা। তবে শুধু এতেই থেমে থাকেনি পিএসজি। নিজেদের শক্তিমত্তা আরও বৃদ্ধির লক্ষ্যে নেইমারকে দলে ভেড়ানোর দুই বছর পরই আরেক তরুণ ফরাসি তারকাকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। ২০১৯ সালে ১৮০ মিলিয়ন ইউরোতে মোনাকো থেকে এমবাপ্পেকে নিজেদের করে নেয় পিএসজি।  

এক নজরে পিএসজির ১০ দামি ফুটবলার

১০। হাভিয়ের পাস্তোরে: কাতার স্পোর্টস ইনভেস্টমেন্ট দায়িত্ব নেয়ার পর প্রথম তারকা ফুটবলার হিসেবে হাভিয়ের পাস্তোরেকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। ২০১১ সালে পালের্মো থেকে প্রায় ৩৮ মিলিয়ন ইউরোতে পাস্তোরেকে নিজেদের করে নেয় পিএসজি। পিএসজির জার্সি গায়ে ১৮৬ ম্যাচে মাঠে নেমে ২৯টি গোল করেন তিনি। ক্যারিয়ারের প্রায় ৭ বছর পিএসজিতেই কাটিয়েছেন তিনি।  

৯। থিয়াগো সিলভা: ব্রাজিলিয়ান তারকা ডিফেন্ডার ত্থিয়াগো সিলভা পিএসজির দামি খেলোয়াড়দের একজন। নিজেদের ডিফেন্সকে আরও মজবুত করার লক্ষ্যে ২০১২ সালে ৪২ মিলিয়ন ইউরোতে সিলভাকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। পিএসজির সাথে চুক্তি করার ১২ দিন পুর্বে মিলানের সঙ্গে ২০১৭ সাল পর্যন্ত চুক্তি বৃদ্ধি করেছিলেন সিলভা। তবে, নানা নাটকীয়তার পর মিলান ছেড়ে পিএসজিতেই যোগ দেন তিনি।  

৮। নুনু মেন্দেস: দলের ডিফেন্স শক্তিকে অটুট রাখার লক্ষ্যে ২০২১ সালে পর্তুগিজ লেফট ব্যাক নুনু মেন্দেসকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। ধারে ৪৮.৮০ মিলিয়ন ইউরোতে তরুণ এই লেফট-ব্যাককে নিজেদের করে নেয় পিএসজি। পিএসজির হয়ে দারুণ এক মৌসুম পার করার সুবাদে সে বছর লিগ ওয়ানের বর্ষসেরা তরুণ খেলোয়াড় নির্বাচিত হন তিনি। একই সাথে ঘোষিত বর্ষসেরা দলেও সুযোগ মেলে তরুণ এই পর্তুগিজ তারকার।  

৭। দাভিদ লুইজ: ব্রাজিলিয়ান পরীক্ষিত ডিফেন্ডার থিয়াগো সিলভাকে রেকর্ড ফি’তে দলের ভেড়ানোর দুই বছর পর নিজেদের রেকর্ড নিজেরাই অতিক্রম করে পিএসজি। ২০১৪ সালে আরেক ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার দাভিদ লুইজকে ৪৯.৫০ মিলিয়ন ইউরোতে দলে ভেড়ায় ফরাসি ক্লাবটি। দুই মৌসুম পিএসজিতে থাকাকালীন সময়ে তিনি পিএসজির হয়ে ফ্রান্সের ঘরোয়া ফুটবলের সকল শিরোপা জয়ের স্বাদ পায়। দুই বছর পিএসজিতে কাটিয়ে ২০১৬ সালে আবারও চেলসিতে যোগ দেয় লুইজ। বর্তমানে ফ্লেমিঙ্গোর হয়ে খেলছেন অভিজ্ঞ এই ডিফেন্ডার।  

৬। মাউরো ইকার্দি: ২০১৯ সালে রেকর্ড ৫০ মিলিয়ন ইউরোতে ইন্টার মিলান থেকে লোনে পিএসজিতে যোগ দেয় ইকার্দি। পিএসজির হয়ে লিগ ওয়ান, ফরাসি কাপ জয়ের রেকর্ড রয়েছে ইকার্দির। মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন লিগে ৭ ম্যাচে ৫ গোল করে যৌথভাবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সর্বাধিক গোলদাতা ছিলেন তিনি।  

৫। আনহেল দি মারিয়া: ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে নিজের নামের প্রতি সুবিচার করতে না পেরে ২০১৫ সালে ৬৩ মিলিয়ন ইউরোতে পিএসজিতে যোগ দেন দি মারিয়া। সাত বছরের দীর্ঘ ক্যারিয়ারে পিএসজির হয়ে দি মারিয়া ঘরোয়া সকল টুর্নামেন্টেই জয়ের স্বাদ লাভ করেন। পাশাপাশি ২০১৯-২০ মৌসুমে বায়ার্ন মিউনিখের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালও খেলেন তিনি। ২০২২ সালে জুভেন্টাসে যোগ দেয়ার আগে ২৯৫ ম্যাচে ৯২ গোল ও ১১২ অ্যাসিস্ট করেন পিএসজির জার্সি গায়ে।  

৪। এদিনসন কাভানি: ষষ্ঠ দামি খেলোয়াড় হিসেবে ২০১৩ সালে ৬৪.৫০ মিলিয়ন ইউরোতে কাভানিকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। নাপোলি থেকে পিএসজিতে যোগ দেওয়া কাভানি পিএসজির জার্সি গায়ে সে সময় বিশ্বের অন্যতম সেরা স্ট্রাইকার ছিলেন। পিএসজির হয়ে টানা দুই বার ট্রেবল জয়েরও সাক্ষী এই কাভানি।  

৩। আশরাফ হাকিমি: ইন্টার মিলান থেকে ২০২১ সালে ৬৬.৫০ মিলিয়ন ইউরোতে হাকিমিকে দলে ভেড়ায় পিএসজি। দলের সঙ্গে দ্রুত মানিয়ে নিয়ে মরক্কোর এই তারকা ফুটবলার অতি দ্রুতই পিএসজির এক গুরুত্বপূর্ণ ফুটবলার হয়ে উঠে। নিজের অভিষেক ম্যাচেই গোলের দেখা পেয়েছিলেন তিনি।  

২। কিলিয়ান এমবাপ্পে: বিশ্বের অনেক দামি ক্লাবেরই নজর ছিলেন ফরাসি তারকা এমবাপ্পের উপর। তবে, সবাইকে পেছনে ফেলে ২০১৭ সালের আগস্টে রেকর্ড ১৮০ মিলিয়ন ইউরোতে তারকা ফুটবলার এমবাপ্পেকে লোনে দলে ভেড়ায় পিএসজি। পিএসজির জার্সি গায়ে অভিষেক ম্যাচেই গোলের দেখা পান তিনি। শুধু তাই নয়, চ্যাম্পিয়ন্স লিগের অভিষেক ম্যাচেও গোল করে নিজের জাত চেনাতে ভুল করেননি তিনি।  

২০১৮ সালে ফুটবল ইতিহাসের দ্বিতীয় দামি ফুটবলার হিসেবে ১৮০ মিলিয়ন ইউরোতে এমবাপ্পের সাথে চুক্তি করে পিএসজি। এর আগে, তিনি পিএসজির হয়ে লোনে খেলেছিলেন। পিএসজির জার্সি গায়ে সকল টুর্নামেন্ট মিলিয়ে প্রায় ২০০ গোলের মালিক এই ফরাসি ফুটবলার।  

১। নেইমার: ফুটবল বিশ্বের সবচেয়ে দামি ফুটবলার হিসেবে ২০১৭ সালে ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার নেইমারের সঙ্গে চুক্তি করে পিএসজি। ২২২ মিলিয়ন ইউরো পরিশোধ করে বার্সেলোনা থেকে নেইমারকে নিজেদের করে নেয় পিএসজি। ২০২০-২১ মৌসুম বাদে পিএসজির হয়ে প্রতি মৌসুমেই ক্লাবটির হয়ে শিরোপা জয়ের স্বাদ এনে দেন তিনি। ২০১৭ সালের পর থেকে এখন পর্যন্ত পিএসজির জার্সি গায়ে শতাধিক গোল করেছেন তিনি।

বাংলাদেশ সম: ১৭৬০ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০২২
এমএইচএম 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad