ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৮ মে ২০২৪, ১৯ জিলকদ ১৪৪৫

ফুটবল

‘ইউনাইটেড বিশ্বাসঘাতকতা করেছে’- বোমা ফাটালেন রোনালদো

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১২৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৪, ২০২২
‘ইউনাইটেড বিশ্বাসঘাতকতা করেছে’- বোমা ফাটালেন রোনালদো

দীর্ঘদিন পর মুখ খুললেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। এবং তাতে একপ্রকার 'বোমা' ফাটালেন পর্তুগিজ উইঙ্গার।

সরাসরি আঙুল তুললেন বর্তমান ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের দিকে। তার দাবি, রেড ডেভিলরা তার সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করেছে।  

গত গ্রীষ্মে ইউনাইটেড ছেড়ে অন্য কোথাও পাড়ি জমাতে চেয়েছিলেন রোনালদো। কারণ তার লক্ষ্য চ্যাম্পিয়নস লিগ খেলা। কিন্তু ইউনাইটেড খেলছে ইউরোপা লিগে। যদিও আগস্টেই আবার ইউনাইটেডের হয়ে নিজের সেরাটা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু নতুন কোচ এরিক টেন হাগের দলে জায়গা পাওয়া তার জন্য প্রায় অসম্ভব হয়ে উঠেছে। লিগের পয়েন্ট তালিকার পাঁচে থাকা ক্লাবের কাছ থেকে প্রত্যাশিত আচরণ না পাওয়ায় চরম হতাশা প্রকাশ করলেন তিনি।

২০২২ বিশ্বকাপ খেলার উদ্দেশে কাতারে যাবেন রোনালদো। এর আগে ব্রিটিশ সাংবাদিক পিয়ার্স মরগানকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মনের অর্গল খুলে দিয়েছেন তিনি। ম্যানচেস্টার ইউনাইটডের তার সঙ্গে যা হচ্ছে তা নিয়ে তিনি এককথায় বলেন, 'প্রতারিত বোধ করছি'।  

শুধু কি তাই, বর্তমান কোচ এরিক টেন হাগের দিকেও অভিযোগের তীর ছুড়েছেন রোনালদো। তার অভিযোগ, তাকে ক্লাব ছাড়তে চাপ দিচ্ছেন টেন হাগ। শুধু টেন হাগ একাই নন, রোনালদোকে নাকি ক্লাব ছাড়া করতে চায় খোদ মালিকপক্ষ। এ নিয়ে তিনি বলেন, 'হ্যাঁ, শুধু কোচ একাই নন, ক্লাবের আরও দুই-তিন ব্যক্তি আমাকে ক্লাবছাড়া করতে চান। আমি প্রতারিত বোধ করছি। আমার মনে হচ্ছিল কেউ কেউ আমাকে এখানে দেখতে চায় না, শুধু এবছর নয় গত বছরও। '

গত ৬ নভেম্বর অ্যাস্টন ভিলার বিপক্ষে হুট করেই রোনালদোর হাতে অধিনায়কের আর্মব্যান্ড তুলে দেন কোচ টেন হাগ। ম্যাচটিতে ৩-১ গোলে হেরে যায় তার দল। এরপর অজানা কারণে তাকে আর মাঠে নামতে দেখা যায়নি। এর আগে গত মাসে প্রিমিয়ার লিগে চেলসির বিপক্ষে তাকে দলেই রাখেননি টেন হাগ। এর ৩ দিন আগে টটেনহ্যামের বিপক্ষে বদলি হিসেবে নামতে অস্বীকার করেছিলেন রোনালদো। এ নিয়ে প্রশ্ন করলে রোনালদো বলেন, 'আমার প্রতি তার কোনো শ্রদ্ধাবোধ নেই, এজন্য তার প্রতিও আমার শ্রদ্ধাবোধ নেই। ' 

২০২১ এর আগস্টে জুভেন্টাস ছেড়ে ইউনাইটেডে ফেরার পর যে ভিন্ন চিত্র দেখেছেন তা নিয়েও কথা বলেছেন রোনালদো। তিনি বলেন, 'আমি মনে করি সমর্থকদের সত্যটা জানা জরুরি। আমি ক্লাবের জন্য সেরাটা চাই। এজন্য আমি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে ফিরেছি। কিন্তু (সাবেক কোচ) স্যা অ্যালেক্স (ফার্গুসন) যাওয়ার পর, আমি ক্লাবের কোনো উন্নতি দেখি না। আমি এই ক্লাব এবং এর সমর্থকদের ভালোবাসি। তারা সবসময় আমার পাশে থেকেছে। কিন্তু ভিন্নভাবে সব চালাতে গেলে...অনেক কিছু বদলে ফেলতে হবে। '

রোনালদো জানিয়েছেন, ইউনাইটেডের প্রতি তার যে দৃষ্টিভঙ্গি তা এসেছে ফার্গুসনের কাছ থেকে। শুধু সাবেক গুরুর কারণেই জুভেন্টাস ছেড়ে ইউনাইটেডে ফিরেছেন তিনি। যদিও তার ম্যানচেস্টার সিটিতে পাড়ি জমানোর জোর গুঞ্জন শোনা গেছে তখন। ফার্গুসনকে নিয়ে কথা বলতে গিয়ে তাই কিছুটা আবেগী হয়ে পড়েন রোনালদো। তিনি বলেন, 'বাকি সবার চেয়ে তিনি ভালো জানেন যে ক্লাব সঠিক পথে চলছে না। অনেকে এটা দেখতে পাচ্ছে না... কারণ তারা দেখতে চায় না; তারা অন্ধ। '

বাংলাদেশ সময়: ১১২৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৪, ২০২২
এমএইচএম 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।