ঢাকা, রবিবার, ১৭ আশ্বিন ১৪২৯, ০২ অক্টোবর ২০২২, ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

রাজনীতি

নুরে আলম হত্যার প্রতিবাদে যুবদলের সমাবেশ শুরু

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৪৮ ঘণ্টা, আগস্ট ৮, ২০২২
নুরে আলম হত্যার প্রতিবাদে যুবদলের সমাবেশ শুরু

ঢাকা: ভোলা জেলা ছাত্রদল সভাপতি নুরে আলম ও স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা আব্দুর রহিমকে হত্যা এবং জ্বালানি তেল ও সারের অস্বাভাবিক মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে জাতীয়তাবাদী যুবদলের উদ্যোগে বিক্ষোভ-সমাবেশ শুরু হয়েছে।

পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী সোমবার (৮ আগস্ট) বিকেল তিনটায় নয়াপল্টনে বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এই বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

যুবদল সভাপতি সুলতান সালাউদ্দীন টুকুর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মোনায়েম মুন্নার  পরিচালনায় সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আরও বক্তব্য দেবেন স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়সহ বিএনপি ও যুবদলের কেন্দ্রীয় নেতারা।

সমাবেশ মঞ্চে উপস্থিত আছেন বিএনপি নেতা সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, আবদুস সালাম আজাদ, শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, আমিনুল হক, সাইফুল আলম নীরব, আমিরুজ্জামান খান শিমুল, যুবদল নেতা মামুন হাসান, ইসহাক সরকার, গোলাম মাওলা শাহীন, শফিকুল ইসলাম মিল্টন, কৃষক দলের শহিদুল ইসলাম বাবুল, স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা আবদুল কাদির ভূইয়া জুয়েল প্রমুখ।

বিদ্যুতের লোডশেডিং ও জ্বালানি খাতে অব্যবস্থাপনার প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে গত ৩১ জুলাই ভোলায় সমাবেশ শেষে বিক্ষোভ মিছিল করতে গেলে পুলিশ বাধা দেয়। এক পর্যায়ে পুলিশ লাঠিচার্জ, টিয়ার শেল নিক্ষেপ এবং গুলি চালায়। গুলিতে ঘটনাস্থলেই স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা আবদুর রহিম মাতবর নিহত হন। গুলিবিদ্ধ আরও অন্তত ২৪ জন নেতাকর্মী ভোলা, বরিশাল ও ঢাকায় বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত ভোলা জেলা ছাত্রদল সভাপতি নুরে আলম গত বুধবার (৩ আগস্ট)  ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে থাকা অবস্থায় মারা যান।

 

এ ঘটনার প্রতিবাদে শুক্রবার থেকে ৯ দিনের কর্মসূচি শুরু করেছে বিএনপি এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন। সারাদেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত এবং কালো পতাকা উত্তোলন ও দোয়ার আয়োজন করছে বিএনপি। এই কর্মসূচি আগামী রোববার পর্যন্ত চলবে। একই ঘটনার প্রতিবাদে রোববার (৭ আগস্ট) কৃষক দল নয়াপল্টনে সমাবেশ করেছে।   সোমবার যুবদল করছে, ১০ আগস্ট শ্রমিক দল, ১১ আগস্ট মহিলা দল ও পর দিন ১২ আগস্ট স্বেচ্ছাসেবক দল সমাবেশ করবে।

এদিকে কর্মসুচিতে যোগ দিতে দুপুর একটার পর থেকেই ব্যানার ও ফেস্টুন নিয়ে যুবদলের নেতাকর্মীরা মিছিলসহ সমাবেশ স্থালে আসতে থাকেন। ইতোমধ্যে কয়েক হাজার নেতাকর্মীর দলীয় কার্যালয়ের সামনে জড়ো হয়েছেন। ফলে নয়াপল্টনের ভিআইপি রোডের এক পাশে যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে।  

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪৭ ঘণ্টা, আগস্ট ০৮, ২০২২
এমএইচ/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa