ঢাকা, রবিবার, ১০ আশ্বিন ১৪২৯, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ২৭ সফর ১৪৪৪

বিএনপি

সরকারের ব্যর্থতায় ধর্ষণ হচ্ছে: নিপুণ রায়

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০০৩ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৭, ২০২০
সরকারের ব্যর্থতায় ধর্ষণ হচ্ছে: নিপুণ রায়

ঢাকা: অগণতান্ত্রিক সরকার ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্যর্থতার কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শিক্ষার্থী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন নারী ও শিশু অধিকার ফোরামের সদস্য সচিব ও বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট নিপুণ রায় চৌধুরী।

সোমবার (০৬ জানুয়ারি) বিকেল ৪টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ওই শিক্ষার্থীর সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে তিনি এ মন্তব্য করেন।

এর আগে ধর্ষণের শিকার ওই শিক্ষার্থীকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে দেখতে যায় নারী ও শিশু অধিকার ফোরামের প্রতিনিধি দল।

পরে ঢামেক হাসপাতালের পরিচালকের অনুমতি সাপেক্ষে নিপুণ রায় চৌধুরী ওই শিক্ষার্থী ও তার মায়ের সঙ্গে দেখা করেন।

এসময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরফত আলী সপু, স্বাস্থ্য বিষয়ক সহ সম্পাদক ডা. মো. রফিকুল ইসলাম, ক্রীড়া সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, নির্বাহী কমিটির সদস্য ফরিদা ইয়াসমিন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের আহ্বায়ক রাকিবুল ইসলাম রাকিব প্রমুখ।

নিপুণ রায় চৌধুরী বলেন, দেশের সবচেয়ে বড় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন মেধাবী শিক্ষার্থীকে গাড়ি থেকে নেমে ধর্ষণের শিকার হতে হলো। এখানে সবচেয়ে বড় কথা আমাদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী কিংবা যারা প্রশাসনে দায়িত্বে আছেন, তারা এর আগে যে কেসগুলো হয়েছে, সেখানে যথাযথ ভূমিকা রাখেনি। পাশাপাশি এত খুন-গুম এগুলোর প্রতিবাদে বাংলাদেশের মানুষ সোচ্চার হচ্ছে না। ফলে প্রতিনিয়ত এ ধরনের ধর্ষণের ঘটনা ঘটছে। এরই একটি ধারাবাহিকতা গতকালের ঘটনাটি।

তিনি বলেন, ভিকটিম শিক্ষার্থী মানসিকভাবে খুবই বিপর্যস্ত। তাই আমি ভেতরে তার সঙ্গে কথা বলতে পারিনি। শারীরিকভাবে তার বিভিন্ন জায়গায় ক্ষতের চিহ্ন, যেটা চোখে না দেখে বিশ্লেষণ করা সম্ভব না। তার মা একজন শিক্ষিকা। তার মা-ও মেয়ের এ অবস্থায় মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছেন।

আপনারা কোনো সামাজিক সংগঠনের পক্ষ থেকে এসেছেন, না-কি বিএনপির পক্ষ থেকে এসেছেন- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে নিপুণ রায় বলেন, নারী ও শিশু অধিকার ফোরাম একটি সামাজিক সংগঠন। তবে আমাদের এই সংগঠনের স্বপ্নদ্রষ্টা তারেক রহমান। তাই আমি তারেক রহমানের পক্ষ থেকে আপনাদের বলতে চাই, আপনারা সচেতন হোন, সত্যভাবে অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে শিখুন এবং এই সরকার যেন অন্যায়কারীদের সুযোগ করে দিতে না পারে সেজন্য মাঠে থাকতে হবে। জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠিত হলে গণতন্ত্র যে রকম পুনঃপ্রতিষ্ঠা পাবে, তেমনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীও তাদের সঠিক কাজটা পালন করবে। এখন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রধান কাজ হচ্ছে বিরোধী দল নিপীড়ন করা।

এ ঘটনার জন্য আপনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্যর্থতাকে দায়ী করছেন কি-না- এমন প্রশ্নের জবাবে নিপুণ রায় বলেন, এখানে শুধু আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্যর্থতা না, পুরো রাষ্ট্র ব্যবস্থার ব্যর্থতা রয়েছে। যেখানে রাষ্ট্রকাঠামো দুর্বল হয়ে যায়, সেখানে শুধু আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্যর্থতা বলা যাবে না।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৬, ২০২০
এমএইচ/টিএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa