ঢাকা, শুক্রবার, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

বইমেলা

ড. এম আলিমউল্যা মিয়ান: ‘স্বপ্ন ছাড়িয়ে যাওয়া মানুষ’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯২১ ঘণ্টা, মার্চ ৬, ২০২২
ড. এম আলিমউল্যা মিয়ান: ‘স্বপ্ন ছাড়িয়ে যাওয়া মানুষ’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন ছবি: শাকিল আহমেদ

ঢাকা: বাংলাদেশে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের পথিকৃত অধ্যাপক ড. এম আলিমউল্যা মিয়ানের জীবন অবলম্বনে ইমদাদুল হক মিলন রচিত ‘স্বপ্ন ছাড়িয়ে যাওয়া মানুষ’ বইয়ের প্রকাশনা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার (৫ মার্চ) বিকেলে বাংলা একাডেমির আবদুল করিম সাহিত্য বিশারদ মিলনায়তনে এই বইয়ের প্রকাশনা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়।

 

অনুষ্ঠানের আয়োজন করে ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস এগ্রিকালচার অ্যান্ড টেকনোলজি (আইইউবিএটি)।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ।

তিনি এ সময় তার বক্তব্যে বলেন, ড. আলিমউল্যা মিয়ানের জীবনে যেমন সফলতা আছে, তেমনি গল্পও আছে। আগ্রহী এবং অদম্য মানুষ ছিলেন তিনি। এরশাদ বিরোধী আন্দোলনের সময় একটি সুষ্ঠ সুন্দর ও অরাজনৈতিক ক্যাম্পাসের প্রেক্ষাপট নিয়েই তিনি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ধারণাটা নিয়ে আসেন। তার স্বপ্ন ছিল দেশের প্রতিটি গ্রাম থেকে ছেলে মেয়েরা উঠে আসবে, উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হবে। সেই থেকে পথচলা শুরু এবং আজ দেশে শিক্ষাক্ষেত্রে একটি বড় ভূমিকা পালন করছে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়। আমি তার স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানায়। গ্রন্থের লেখক ইমদাদুল হক মিলন বলেন, অধ্যাপক মিয়ান নিজেকে কখনো স্বপ্ন ছাড়িয়ে যাওয়া মানুষ হিসেবে দাবি করেননি। একজন মানুষ বাংলাদেশে প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন দেখেছেন, প্রথম প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি প্রতিষ্ঠা করেছেন, তিনি পথ দেখিয়েছেন এবং আজকে বাংলাদেশে এত এত প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি। আমার মনে হয়েছে তিনি যে স্বপ্ন দেখেছেন, তিনি নিজে সেই স্বপ্নকে স্থাপন করেছেন। এবং নিঃসন্দেহেই তিনি তার স্বপ্নকে ছাড়িয়ে গিয়েছেন। তিনি সবসময় বলতেন, আমি বাংলাদেশের প্রত্যেকটি গ্রামে একজন গ্র্যজুয়েট দেখবো এবং তিনি তা করেছেন।

আয়োজনে সভাপতির বক্তব্যে আইইউবিএটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. আবদুর রব বলেন, এই বইয়ের মাধ্যমে অধ্যাপক ড. আলিমউল্যা মিয়ানের অনেক অজানা তথ্যই আমাদের সামনে উঠে এসেছে। তাকে নিয়ে আমাদের আরও গবেষণার প্রয়োজন।

বইয়ের প্রকাশনা উৎসবে অতিথি হিসেবে মঞ্চে আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন ফর ডেভেলপমেন্ট রিসার্চের মহাপরিচালক মোনায়েম সরকার, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান এবং রোটারি ইন্টারন্যাশনালের সাবেক ডিস্ট্রিক্ট গভর্নর রোটারিয়ান এসএএম শওকত হোসেন।

অনুষ্ঠানে ড. এম আলিমউল্যা মিয়ানের আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু মহল, সহকর্মী, শিক্ষার্থী, শুভাকাঙ্ক্ষী এবং আইইউবিএটির শিক্ষক-শিক্ষার্থী কর্মকর্তারা অংশ নেন। তারা তাদের স্মৃতিচারণের মধ্য দিয়ে মূর্ত করে তোলেন ড. এম আলিমউল্যা মিয়ানকে।

বাংলাদেশ সময়: ০৯১৭ ঘণ্টা, মার্চ ০৬, ২০২২
এইচএমএস/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa