ঢাকা, রবিবার, ১২ আষাঢ় ১৪২৯, ২৬ জুন ২০২২, ২৬ জিলকদ ১৪৪৩

জলবায়ু ও পরিবেশ

প্যাকেটজাত মাছ কেড়ে নিচ্ছে ডলফিনের প্রাণ!

পরিবেশ-জীববৈচিত্র্য ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৪৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৬, ২০১৫
প্যাকেটজাত মাছ কেড়ে নিচ্ছে ডলফিনের প্রাণ!

ঢাকা: বুদ্ধিমান ও বন্ধুভাবাপন্ন প্রাণী ডলফিন। জলজ এ প্রাণীটি সুন্দরও বটে।

মানুষের কোনো ক্ষতিও করে না এরা। অথচ আমাদের ক্ষুধা নিবারণের জন্য বিনা কারণে প্রাণ দিতে হচ্ছে তাদের। আমরা যখন ঘরে বসে স্যান্ডউইচ খাচ্ছি, তখনই মারা যাচ্ছে তারা। কিন্তু কীভাবে?

এর উত্তর উঠে এসেছে গবেষকদের প্রতিবেদনে। সম্প্রতি এক গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়, বাজারে প্যাকেট অবস্থায় পাওয়া যায় এমন ৯৮ শতাংশ মাছ যে পদ্ধতিতে ধরা হয়, সেটির ফলে নির্বিচারে সমুদ্রের অধিকাংশ প্রাণী মারা যায়। সেগুলোর মধ্যে ডলফিন অন্যতম।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ব্রিটেনের বাজারে অনেক প্রতিষ্ঠান আছে যারা মাছ প্যাকেটজাত করে বিক্রি করে। স্থানীয়দের চাহিদার যোগান মেটাতে টুনা মাছ বিক্রি হয় বেশি। এখন কথা হলো কীভাবে তাহলে ডলফিন মারা যায়?

টুনা মাছ ডলফিনের প্রিয় খাবারগুলোর মধ্যে একটি। তাই তারা এই মাছগুলোর পিছনে ছুটে বেড়ায় কিংবা টুনাগুলোর আশপাশে থাকে। আর এই সুযোগ কাজে লাগায় জেলেরা। তারা জানে ডলফিনের আশপাশে টুনা মাছ পাওয়া যাবে। সেখানেই তারা জাল ফেলে। এসময় তাদের জালে আটকা পড়ে ডলফিন।

এক প্রতিবেদনে দেখা যায়, প্রতি বছর জালে আটকা পড়ে মারা যায় কমপক্ষে ৩ লাখ ডলফিন।

আরেকটি পদ্ধতি হলো ফিশ অ্যাগ্রাভেটিং নামক এক যন্ত্র। এই যন্ত্রটির মাধ্যমে ছোট মাছকে আকৃষ্ট করা হয়। যন্ত্রটির নীচে ফুটবলের মতো গোলাকার সুবিশাল একটি জাল থাকে। যখন মাছগুলো এই জালের উপরে একত্রিত হয় তখন এই ছোট মাছের ঝাঁক বড় মাছকে আকৃষ্ট করে। আর এসময়ই জাল উঠিয়ে ফেলা হয়।

এসব জালেও আটকা পড়ে বা আহত হয়ে মারা যায় অনেক ডলফিন। আর প্রতিবছর এভাবে প্রায় এক মিলিয়ন ডলফিন মারা যায়।

বাংলাদেশ সময়: ০০৪০ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৬, ২০১৫
আরএইচএস/এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa