ঢাকা, সোমবার, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ মে ২০২২, ২১ শাওয়াল ১৪৪৩

জলবায়ু ও পরিবেশ

আবারো দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা তেঁতুলিয়ায়

সোহাগ হায়দার, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪১৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ৭, ২০২১
আবারো দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা তেঁতুলিয়ায়

পঞ্চগড়: গত কয়েকদিন ধরে দেশজুড়ে তাপমাত্রা অনেকটাই উঠানামা করছে। এর মাঝে গত ৫ নভেম্বর একদিন সিলেটের শ্রীমঙ্গলে দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হলেও টানা ১৩ দিন ধরে উত্তরের প্রন্তিক ও হিমালয়ের পাদদেশে অবস্থিত উপজেলা তেঁতুলিয়ায় দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হচ্ছে।

তবে গত ১১দিন টানা রাত থেকে সকাল পর্যন্ত ঘন কুয়াশা লক্ষ্য করা গেলেও গত দুইদিন ধরে তেমন কুয়াশা লক্ষ্য করা যাচ্ছে না।

আবহাওয়া অফিস বলছে, হিমালয় এ উপজেলার একেবারে কাছে হওয়ায় এখানে তাপমাত্রা অনেকটাই নিচে নেমে আসে। তবে দিনের তাপমাত্রা খানিকটা বেশি থাকলেও রাতের তাপমাত্রা পরিবর্তিত হচ্ছে। এতে করে আবহাওয়ার এক বিরূপ রূপ দেখা দিয়েছে পঞ্চগড় জেলায়।

রোববার (৭ নভেম্বর) পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া আবহাওয়া অফিসে সকাল ৯টায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৪ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা সকাল ১১টার সারাদেশের সঙ্গে নির্ণয় শেষে দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন বলে জানায় আবহাওয়া অফিস। তবে একই দিন বেলা ১২টার সময় ২৯ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা।

আরও জানা যায়, গত ১ মাস ধরে এ জেলায় ৩০ ডিগ্রি তাপমাত্রা থেকে হ্রাস পেয়ে ১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ঘরে বিরাজ করছে। দিন দিন তাপমাত্রা নিচের দিকে নামার কারণে জেলার ৫ উপজেলার বিভিন্ন এলাকার গরীব ও খেটে খাওয়া মানুষেরা সন্ধ্যা থেকে সকাল পর্যন্ত পড়েছে চরম দুর্ভোগে।

সরজমিনে ঘুরে দেখা যায়, প্রথম সকাল থেকেই সূর্যের মুখ দেখা গেছে। দিনের বেলা সূর্যের আলোর দেখা গেলেও রৌদ্রের পাশাপাশি খানিকটা হিমেল হাওয়া বইতে দেখা যায়। এছাড়া সন্ধ্যা নামার সঙ্গে সঙ্গে কনকনে শীত ও কুয়াশা পড়ে। তবে দিন দিন এ জেলায় তাপমাত্রা হ্রাস পাওয়ায় মানুষ ইতোমধ্যে সন্ধ্যা থেকে সকাল পর্যন্ত গরম কাপড় পরিধান করতে শুরু করেছে।

তেঁতুলিয়া সদর ইউনিয়নের স্থানীয় বাসিন্দা রবিউল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, গত কয়েক দিন ধরে কনকনে শীত অনুভূত হচ্ছে। হঠাৎ করে শীত অনুভূত হওয়ার কারণে আমরা গরম কাপড়ের আশ্রয় নিয়েছি। তবে যতোই দিন যাচ্ছে ততোই শীতের তীব্রতা ও কুয়াশা বাড়ছে।

এদিকে ভজনপুর এলাকার বাসিন্দা হাবিবুর রহমান হাবলু বাংলানিউজকে বলেন, বর্তমানে ভোটের প্রচারণায় দিন-রাত ব্যস্ত থাকতে হচ্ছে। তবে এর মাঝে দিনের বেলা আবহাওয়া গরম থাকলেও প্রথম সন্ধ্যা থেকে শীত অনুভূত হচ্ছে। তবে গভীর রাতে প্রচণ্ড শীত করছে। গরম কাপড় ছাড়া থাকা যায় না।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবক্ষেণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাসেল শাহ বাংলানিউজকে বলেন, টানা ১১দিন দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন থাকার পর একদিন বিরতি থেকে গত ১৩ দিন থেকে হিমালয়ের পাদদেশে অবস্থিত উপজেলা তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হচ্ছে। রোববার (৭ নভেম্বর) সকাল ৯টায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৪ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত শনিবার (৬ নভেম্বর) সকালে রেকর্ড করা হয়েছিল ১৪ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা একদিনের ব্যবধানে দশমিক ২ ডিগ্রি বেড়ে যায়। তবে শনিবার দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩০ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়। আগামীতে তাপমাত্রা আরো নিচে নামতে পারে বলে এই কর্মকর্তা আরো জানান।

বাংলাদেশ সময়: ১৪১০ ঘণ্টা, নভেম্বর ০৭, ২০২১
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa