ঢাকা, বুধবার, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

আদালত

এরশাদের সাজার বিরুদ্ধে আপিল শুনানি ১৫ নভেম্বর

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০১ ঘণ্টা, নভেম্বর ১, ২০১৬
এরশাদের সাজার বিরুদ্ধে আপিল শুনানি ১৫ নভেম্বর

ঢাকা: দুর্নীতির মামলায় তিন বছরের সাজার রায়ের বিরুদ্ধে সাবেক রাষ্ট্রপতি এইচ এম এরশাদের আপিল আবেদনের শুনানির দিন আগামী ১৫ নভেম্বর ধার্য করেছেন হাইকোর্ট।

 

 
বিচারপতি মো. রুহুল কুদ্দুসের একক হাইকোর্ট বেঞ্চ মঙ্গলবার (০১ নভেম্বর) এ আদেশ দেন।


 
আদালতে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পক্ষে ছিলেন আইনজীবী খুরশীদ আলম খান। এরশাদের পক্ষে ছিলেন শেখ সিরাজুল ইসলাম।
 
খুরশীদ আলম খান জানান, আসামিপক্ষের আবেদনে দুই সপ্তাহ সময় দিয়ে ১৫ নভেম্বর দিন ধার্য করেছেন হাইকোর্ট। এরপর শুনানি মুলতবির আর কোনো আবেদন করতে পারবেন না বলেও জানিয়েছেন।
 
২০১২ সালের ২৬ জুন সাজার রায়ের বিরুদ্ধে  এইচ এম এরশাদের আপিলে পক্ষভুক্ত হয় দুদক। আপিলে পক্ষভুক্ত হতে দুদকের করা আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ওইদিন বিচারপতি খোন্দকার মুসা খালেদ ও বিচারপতি আবু তাহের মো. সাইফুর রহমানের  হাইকোর্টের অবকাশকালীন বেঞ্চ তা মঞ্জুর করেন।

দীর্ঘদিন পর এ মামলায় আপিল শুনানির দিন ধার্য করতে গত ২২ আগস্ট আবেদন করেছিলো দুদক।
 
এরপর আবেদনটি কয়েক দফা কার্যতালিকায় এলেও মামলার নথি না আসায় শুনানি শুরু হয়নি।
 
১৯৮৩ সালের ১১ ডিসেম্বর থেকে ১৯৯০ সালের ৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত রাষ্ট্রপতি থাকাকালে পাওয়া বিভিন্ন উপহার রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা না দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে এরশাদের বিরুদ্ধে। এ অভিযোগে ১৯৯১ সালের ৮ জানুয়ারি ত‍ৎকালীন দুর্নীতি দমন ব্যুরোর উপ-পরিচালক সালেহ উদ্দিন আহমেদ সেনানিবাস থানায় মামলাটি করেন। মামলায় এক কোটি ৯০ লাখ ৮১ হাজার ৫৬৫ টাকা আর্থিক অনিয়মের অভিযোগ আনা হয়।

ওই মামলায় ১৯৯২ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিভাগীয় বিশেষ জজ আদালতের রায়ে এরশাদের তিন বছরের সাজা হয়। একই সঙ্গে ওই অর্থ ও একটি টয়োটা ল্যান্ডক্রুজার গাড়ি বাজেয়াপ্ত করারও নির্দেশ দেওয়া হয়। এ রায়ের বিরুদ্ধে  ১৯৯২ সালে হাইকোর্টে আপিল করেন এরশাদ।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৫৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ০১,২০১৬
ইএস/এএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa