ঢাকা, সোমবার, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২২ শাবান ১৪৪৫

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

স্ত্রীর চেয়ে সম্পদ কম নোমান আল মাহমুদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯২৭ ঘণ্টা, মার্চ ২৮, ২০২৩
স্ত্রীর চেয়ে সম্পদ কম নোমান আল মাহমুদের নোমান আল মাহমুদ।

চট্টগ্রাম: পেশায় ব্যবসায়ী নোমান আল মাহমুদের চেয়ে সম্পদের পরিমাণ বেশি স্ত্রী শামীমা আক্তারের। নিজের ২০ লাখ ১৬ হাজার ৬৬২ টাকা অস্থাবর সম্পত্তির বিপরীতে স্ত্রীর নামে আছে ২৩ লাখ ৫৬ হাজার টাকার সম্পত্তি ও ৫০ লাখ টাকার সঞ্চয়পত্র ও স্থায়ী আমানতে বিনিয়োগ।

চট্টগ্রাম–৮ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) আসনের উপ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী নোমান আল মাহমুদের হলফনামায় দেওয়া হয়েছে এমন তথ্য।

সোমবার (২৭ মার্চ) নির্বাচন কমিশনের মনোনয়নপত্র জমা দেন তিনি।

এতে দেখা গেছে, নোমান আল মাহমুদের শিক্ষাগত যোগ্যতা এইচএসসি পাস। নগরের কাপাসগোলা নেম এন্টারপ্রাইজ নামে (সাপ্লাই ব্যবসা) একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করেন তিনি। যার বার্ষিক আয় দেখিয়েছেন সাড়ে ৪ লাখ টাকা।  

অস্থাবর সম্পদের তালিকায় নোমান আল মাহমুদের নিজ নামে ১৭ লাখ ৯৬ হাজার ৬৯২ টাকার হাতেনগদ, ব্যাংকে ১ লাখ ৬০ হাজার টাকা জমা রয়েছে ও নগদ টাকা, বন্ড, ঋণপত্র ও স্টক একচেঞ্জসহ আরও ৬০ হাজার টাকা রয়েছে বলে উল্লেখ করেছেন হলফনামায়।  

অন্যদিকে অস্থাবর সম্পত্তি হিসেবে স্ত্রী শামীমা আক্তারের নামে রয়েছে ২০ লাখ ১৬ হাজার ৪১৪ টাকার হাতে নগদ ও ৩ লাখ ৪০ হাজার ব্যাংক জমা। তবে নগদ ও ব্যাংক জমা মিলিয়ে ২৩ লাখ ৫৬ হাজার টাকার বিপরীতে তার নামে রয়েছে ৪০ লাখ টাকার ব্যাংক ঋণ। আবার সঞ্চয়পত্র ও স্থায়ী আমানতে ৫০ লাখ টাকার বিনিয়োগও আছে স্ত্রীর নামে।

এ ছাড়া দেড় লাখ টাকার ১০ ভরি স্বর্ণ, টিভি–ফ্রিজ আসবাবপত্র মিলে আরও লাখ টাকার অস্থাবর সম্পত্তির কথা উল্লেখ করেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত এ প্রার্থী। তা ছাড়া ব্যবসায় মূলধনও রয়েছে প্রায় ৯ লাখ ৬০ হাজার টাকা।

স্থাবর সম্পত্তির মধ্যে আবাসিক–বাণিজ্যিক দালান, বাড়ি, অ্যাপার্টমেন্ট, কৃষি–অকৃষি জমি কিছুই নেই নোমান আল মাহমুদের। তবে উত্তরাধিকার সূত্রে পাওয়া স্বামী-স্ত্রীর যৌথ মালিকানায় ১ দশমিক ২১ শতাংশ অকৃষি জমি, ৩৮২ বর্গফুটের এজমালি সম্পদ রয়েছে। এ ছাড়া স্ত্রীর নামে ৩১৫ বর্গফুটের একটি এজমালি ভিটা রয়েছে। ।

গত ৬ ফেব্রুয়ারি মোছলেম উদ্দিন আহমদের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া এ আসনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ২৭ এপ্রিল। আগামী ২৯ মার্চ মনোনয়ন যাচাই বাছাই করা হবে। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন ৫ এপ্রিল। প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হবে ৬ এপ্রিল।

চট্টগ্রাম-৮ আসনে ভোটার ৫ লাখ ১৭ হাজার ৬৫২ জন। এর মধ্যে পুরুষ ২ লাখ ৬৩ হাজার ৫৪৩ জন, নারী ২ লাখ ৫৪ হাজার ১০৯ জন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০৭ ঘণ্টা, মার্চ ২৮, ২০২৩
এমআর/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad