ঢাকা, শুক্রবার, ৭ আশ্বিন ১৪৩০, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৫

অর্থনীতি-ব্যবসা

দীর্ঘ মেয়াদে ঋণ পেলে মধ্যবিত্তের বেশিরভাগই ফ্ল্যাট কিনবে

ইসমাইল হোসেন, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯১৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০১৬
দীর্ঘ মেয়াদে ঋণ পেলে মধ্যবিত্তের বেশিরভাগই ফ্ল্যাট কিনবে রিহ্যাবের ডিরেক্টর-মেলার কো-চেয়ারম্যান কামাল মাহমুদউ ছবি: বাংলানিউজ

রিহ্যাব মেলায় মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষ ৫০-৭০ লাখ টাকার মধ্যে ফ্ল্যাট কেনার আগ্রহ প্রকাশ করছে বলে জানিয়েছেন রিহ্যাবের ডিরেক্টর এবং এবারের মেলার কো-চেয়ারম্যান (প্রেস অ্যান্ড মিডিয়া স্ট্যান্ডিং কমিটি) কামাল মাহমুদ।

ঢাকা: রিহ্যাব মেলায় মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষ ৫০-৭০ লাখ টাকার মধ্যে ফ্ল্যাট কেনার আগ্রহ প্রকাশ করছে বলে জানিয়েছেন রিহ্যাবের ডিরেক্টর এবং এবারের মেলার কো-চেয়ারম্যান (প্রেস অ্যান্ড মিডিয়া স্ট্যান্ডিং কমিটি) কামাল মাহমুদ। এজন্য গ্রাহকদের দীর্ঘ মেয়াদী ঋণ সুবিধা দেওয়া উচিত বলেও মনে করেন তিনি।


 
রিহ্যাব মেলার পঞ্চম ও শেষ দিন মেলার অফিস কক্ষে বাংলানিউজের সঙ্গে আলাপকালে এ তথ্য জানান।
 
তিনি বলেন, মেলায় ৫০-৭০ লাখের মধ্যে ফ্ল্যাট বেশি বেচা কেনা–হচ্ছে। এজন্য দীর্ঘ মেয়াদী লোন হলে মেক্সিমাম লোক ফ্ল্যাট ক্রয় করতে পারবে। লোনটা দীর্ঘ মেয়াদে হলে মধ্যবিত্ত শ্রেণির সবাই মাথা গোজার ঠাঁই পাবে।
 
এজন্য গ্রাহকদের জন্য দীর্ঘ মেয়াদী লোন এবং সরকারের সুদৃষ্টি প্রত্যাশা করেন কামাল।
 
বর্তমানে হাতে গোনা কয়েকটি ব্যাংক এবং বেসরকারি হাউজিং কোম্পানি গৃহ নির্মাণে স্বল্প সময়ে ঋণ সুবিধা দিচ্ছে। এটা অপ্রতুল উল্লেখ করে তিনি বলেন, বেসরকারি হাউজিং লোন কোম্পানিগুলোর তুলনায় সরকারি ব্যাংকগুলোও যেন এগিয়ে আসে।
 
রিহ্যাবের বাইরে থাকা কোম্পানিগুলোকে এক কাতারে নিয়ে আসার জন্য নিবন্ধন ফি কমানোর দাবি জানিয়ে কামাল বলেন, ১৪ শতাংশ নিবন্ধন ফি পৃথিবীর কোথাও নেই, সরকারকে এটা কমাতে হবে।
 
বাইরে থাকা প্রতিষ্ঠানগুলোকে রিহ্যাবের আওতাভুক্ত করতে ইতোমধ্যে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে একটি আইন প্রণয়নের জন্য কাজ করা হচ্ছে বলে জানান রিহ্যাব ডিরেক্টর কামাল।
 
তিনি বলেন, রিহ্যাবের আওতাভুক্ত ছাড়া রিয়েল এস্টেট বিজনেস আর কেউ করতে পারবে না। আবাসন খাতে বিনিয়োগের পরিমাণ অনেক বেড়ে গেছে।
 
রিহ্যাবের নিবন্ধিত প্রবাসী বা দেশের ক্রেতারা টাকা দিয়ে প্লট বা অ্যাপার্টমেন্ট না পেয়ে থাকলে মেডিয়েশন সেলে অভিযোগ করলে সমাধান পাওয়া যায় বলেও জানান রিহ্যাব ডিরেক্টর।
 
পাশাপাশি সেকেন্ড হোমের কারণে আমাদের দেশের অর্থ বাইরে চলে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেন কামাল।
 
বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপুর আবাসিকে পাইপ লাইনে গ্যাস সংযোগ না দেয়ার ঘোষণা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমরা সরকারের সিদ্ধান্তের বাইরে যেতে পারি না। সরকার যা বলবে সেটা মানতে হবে। বিদেশের মতো এলপিজি হলে কোনো সমস্যা থাকবে না।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৫১০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০১৬
এমআইএইচ/এসএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa