ঢাকা, মঙ্গলবার, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২১ মে ২০২৪, ১২ জিলকদ ১৪৪৫

অর্থনীতি-ব্যবসা

সোমবার খুলছে আশুলিয়ার সব বন্ধ গার্মেন্টস

উর্মি মাহবুব, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯২৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০১৬
সোমবার খুলছে আশুলিয়ার সব বন্ধ গার্মেন্টস

আশুলিয়ায় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ হয়ে যাওয়া ৫৫টি কারখানা সোমবার (২৬ ডিসেম্বর) থেকে খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে তৈরি পোশাকশিল্প–মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ।

ঢাকা: আশুলিয়ায় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ হয়ে যাওয়া ৫৫টি কারখানা সোমবার (২৬ ডিসেম্বর) থেকে খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে তৈরি পোশাকশিল্প–মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ।

আশুলিয়ার বন্ধ হয়ে যাওয়ার কারখানা মালিকদের সঙ্গে রোববার (২৫ ডিসেম্বর) দুপুর একটায় জরুরি বৈঠকে বসেন বিজিএমইএ সভাপতি ও পরিচালকরা।

সভায় বন্ধ সব গার্মেন্টস খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয় বলে জানিয়েছেন বৈঠকে উপস্থিত দায়িত্বশীল একটি সূত্র।  

সূত্রটি জানায়, ১১ ডিসেম্বর থেকে আশুলিয়া এলাকায় সৃষ্ট শ্রমিক অসন্তোষকে কেন্দ্র করে ২০ ডিসেম্বর ৫৫টি কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দিতে বাধ্য হয় মালিকপক্ষ। শ্রমিক অসন্তোষের কারণে প্রতিদিন গড়ে ৮০ কোটি টাকার ক্ষতির সম্মুখিন হয় মালিকপক্ষ। সে হিসাবে গত ১৫ দিনে প্রায় দেড় হাজার কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে এ শিল্পে। শিল্প ও শ্রমিকের স্বার্থের দিকে খেয়াল রেখেই ২৬ ডিসেম্বর সোমবার থেকে কারখানা খুলে দেয়ার জন্য সিদ্ধান্ত নিয়েছে মালিকপক্ষ।

এ সিদ্ধান্ত আনুষ্ঠানিকভাবে সংবাদ সম্মেলন করে গণমাধ্যমের মাধ্যমে রোববার সন্ধ্যা ৭টায় জানানো হবে বলে জানিয়েছে সূত্রটি।  

বিজিএমইএ’র জনসংযোগ বিভাগের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে সন্ধ্যা সাতটায় জরুরি সংবাদ সম্মেলনের বিষয়টির সত্যতা স্বীকার করলেও কি বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন তা জানান নি সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।  

মজুরি বৃদ্ধি, শ্রমিক ছাটাই না করা, বাড়ি ভাড়া বৃদ্ধি না করাসহ বেশ কিছু দাবিতে ১১ ডিসেম্বর থেকে উত্তপ্ত হয়ে উঠে আশুলিয়ার পোশাক শিল্প এলাকা। ২০ ডিসেম্বর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে না পেরে বিজিএমইএ ৫৫টি কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেয়।  

বাংলাদেশ সময়: ১৫২২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০১৬
ইউএম/এসএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।