ঢাকা, বুধবার, ১৮ মাঘ ১৪২৯, ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৯ রজব ১৪৪৪

শিক্ষা

‘শিক্ষার্থীদের জঙ্গিবাদে জড়াচ্ছে স্বাধীনতাবিরোধী চক্র’

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৮৫০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২২, ২০১৬
‘শিক্ষার্থীদের জঙ্গিবাদে জড়াচ্ছে স্বাধীনতাবিরোধী চক্র’ শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বক্তব্য রাখছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ-ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

স্বাধীনতাবিরোধী চক্র দেশের তরুণ শিক্ষার্থীদের জঙ্গিবাদে জড়াচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

ঢাকা: স্বাধীনতাবিরোধী চক্র দেশের তরুণ শিক্ষার্থীদের জঙ্গিবাদে জড়াচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

বৃহস্পতিবার (২২ ডিসেম্বর) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টসের (ইউল্যাব) চতুর্থ সমাবর্তন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য রাষ্ট্রপতির পক্ষে সমাবর্তন অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন,‘দেশ যখন উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রেখে এগিয়ে যাচ্ছে, ঠিক তখন একদল স্বাধীনতাবিরোধী কুচক্রী এ উন্নয়ন ও অগ্রগতিকে ব্যাহত করার জন্য নানাভাবে চেষ্টা করছে। এরা বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী শিক্ষার্থীদের সন্ত্রাস ও জঙ্গি কার্যক্রমের সঙ্গে জড়িয়ে তাদের ধ্বংসের মুখে ঠেলে দিচ্ছে। ইসলামের ভুল ব্যাখ্যাদানকারী জঙ্গিদের কুমন্ত্রণায় প্ররোচিত হয়ে বেশকিছু তরুণ মেধাবী শিক্ষার্থী নিজেদের জীবনকে ধ্বংস করেছে। পরিবার পরিজনকে পথে বসিয়েছে, সমাজের ও দেশের চরম ক্ষতি সাধান করেছে। ’

তরুণ, মেধাবী, কোমলমতি, প্রাণবন্ত ও সম্ভাবনাময় শিক্ষার্থীরা যাতে সন্ত্রাসী ও জঙ্গিদের কবলে পড়ে জীবন ধ্বংস না করে, সেদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখতে সবার প্রতি আহবানও জানান নুরুল ইসলাম নাহিদ।

সদ্য গ্রাজুয়েটদের উদ্দেশে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, দেশের সামগ্রিক আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্য প্রয়োজন দক্ষ মানবসম্পদ। তথ্য-প্রযুক্তির মহাসড়কে বাংলাদেশের অবস্থান সুদৃঢ় করার জন্য নিজেদের মেধা, শিক্ষা ও দক্ষতা কাজে লাগিয়ে বিশ্বমানের মানবসম্পদে পরিণত হতে হবে।

স্নাতক ও স্নাতোকোত্তর পর্যায়ে মোট এক হাজার ৩২৫ জন শিক্ষার্থী এ সমাবর্তনে সনদ পেয়েছেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান।

এছাড়া সমাবর্তন অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- মানবাধিকারকর্মী অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল, ইউল্য‍াব বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সহসভাপতি ডক্টর কাজী আনিস আহমেদ, ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ইমরান রহমান।

ইউজিসি’র চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নান বলেন, সার্টিফিকেট অজর্ন করলেই শিক্ষিত হওয়া যায় না। চোখ থাকলেই দেখা যায় না। দেখার জন্য মনের আলো, চিন্তার আলো কিংবা দৃষ্টিভঙ্গির আলো থাকতে হয়। এখনকার শিক্ষার্থীরা বিদেশি ধনকুবেরসহ হোমড়া-চোমড়া অনেকের নাম জানলেও দেশ সম্পর্কে জানে না। এটা পীড়াদায়ক।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৪৩ ডিসেম্বর ২২, ২০১৬
জেপি/জিপি/টিআই

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa