ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

স্বাস্থ্য

ডিসেম্বরের মধ্যে টিকা পাবেন ১০ কোটি মানুষ: স্বাস্থ্য সচিব

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৪৯ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১১, ২০২১
ডিসেম্বরের মধ্যে টিকা পাবেন ১০ কোটি মানুষ: স্বাস্থ্য সচিব

ঢাকা: আগামী ডিসেম্বর মাসের মধ্যেই দেশের ১০ কোটি মানুষকে টিকা দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য  ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব লোকমান হোসেন মিয়া।  

শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুর ২টায় রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে জাতীয় মানষিক স্বাস্থ্য হাসপাতাল অডিটোরিয়ামে বিশ্ব আত্মহত্যা প্রতিরোধ দিবস উপলক্ষে অনুষ্ঠিত এক আলোচনা সভায় স্বাস্থ্য সচিব এ কথা বলেন।

স্বাস্থ্য সচিব বলেন, আমি গত ৪ এপ্রিল স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় যোগ দিয়েছিলাম। সেদিন আমাদের একটিও ভ্যাকসিন ছিল না। এখন ১৮ কোটি ভ্যাকসিন নিশ্চিত হয়েছে। শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) ৫৪ লাক ভ্যাকসিন এসেছে। এ মাসে  আড়াই থেকে ৩ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। ডিসেম্বরের মধ্যে আমরা ১৬ থেকে ২০ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়া হবে।  

তিনি বলেন, আমাদের এখানে কোনো কিছুই ইতিবাচকভাবে নেওয়া হয় না। প্রথমে সবাই ভাবলো ভ্যাকসিন নেওয়া যাবে কি না, পাওয়া যাবে কিনা। যখন প্রথম ভ্যাকসিন আসলো, সরকার সবাইকে ভ্যাকসিন নিতে বললো। কিন্তু সবাই ভাবলো ভ্যাকসিনে কাজ হবে কিনা, ভ্যাকসিন নিলে মারা যাব কিনা। তখন প্রধানমন্ত্রী আগে মন্ত্রী এবং সচিবদের ভ্যাকসিন নিতে বললেন। আমরা টিকা নেওয়ার পর জনগণ পর্যবেক্ষণ করল আমরা মারা যাই কিনা। এটাও একটা মানসিক রোগ। তবে এখন সবাই টিকা নেওয়া শুরু করেছে।

করোনাভাইরাস প্রসঙ্গ উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রথমে মানুষ বলতো এটা বড়লোকের রোগ, গরিবের না। কিছুদিন আগে কী অবস্থা হলো? গ্রামের লেকেরাও আক্রান্ত হলেন এবং মারা গেলেন। রোগের কাছে বড়লোক, কিংবা গরিব বলে কোনো কথা নেই। মৃত্যুর সময় হলে প্রত্যকেই মারা যাবেন।

২০ কোটি মানুষকে কোন পরিকল্পনায় টিকা দেয়া হবে জানতে চাইলে স্বাস্থ্য সচিব সাংবাদিকদের বলেন, প্রয়োজনে টিকা দেওয়ার কেন্দ্র এবং কলেবর আরও বাড়ানো হবে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ফিজিসিয়ানের সভাপতি অধ্যাপক ডা. ওয়াজিউল আলম চৌধুরী।

প্যানেল আলোচক ছিলেন অধ্যাপক ডা. গোলাম রব্বানি, অধ্যাপক ডা. এম এ মোহিত কামাল, অধ্যাপক ডা. রোবেদ আমিন, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব) অধ্যাপক ডা. মো. আজিজুল ইসলাম।

তারা বলেন, আত্মহত্যা একটি মানসিক রোগ, তবে এটা নির্মূল করা সম্ভব। পরিবার, সমাজ এবং চিকিৎসক সবাই মিলে সচেতনতা সৃষ্টি করতে পারলে সমাজ থেকে এ রোগ নির্মূল হবে। শারীরিক স্বাস্থ্যের পাশাপাশি মানসিক স্বাস্থ্যের প্রতিও আমাদের সমান গুরুত্ব দিতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৪৮ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১১, ২০২১

আরকেআর/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa