ঢাকা, রবিবার, ৯ মাঘ ১৪২৮, ২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

ক্রিকেট

আজমল-ওয়ার্নার যুদ্ধ

ইশতিয়াক হুসাইন, স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩১৪ ঘণ্টা, মার্চ ২৩, ২০১৪
আজমল-ওয়ার্নার যুদ্ধ

ঢাকা: ক্রিকেট খেলা হয় ১১ জনে। তবে আজ এই খেলা হবে মূলত দুই জনে।

রোববার বিকেল সাড়ে ৩টায় মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে নামছে টুর্নামেন্টের ফেবারিটের তকমা লাগানো পাকিস্তান ও চারবার বিশ্বকাপ জয়ী অস্ট্রেলিয়া।

এই দুই দলের ১১ জনের খেলার চেয়ে ক্রিকেট বোদ্ধারা মুখিয়ে আছেন পাকিস্তানের স্পিন জাদুকর সাঈদ আজমল ও অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড ওয়ার্নারের খেলা দেখতে। আসলেই আজ এই দুই দলের খেলা বললে ভুলই হবে। খেলা হবে আজ এই দুই স্টার খেলোয়াড়ের মধ্যে।  

ওপেনিংয়ে ব্যাটিংয়ে নেমে আগুন ঝরাবেন ওয়ার্নার। আক্রমণাত্মক ওয়ার্নারের দারুণ সূচনা বিপক্ষ দলকে শুরুতেই ফেলে দেয় চাপে। প্রতিপক্ষ ওই চাপ সামলাতে না পেরে যুদ্ধে নেমেই ব্যাকফুটে চলে যায়। আর অস্ট্রেলিয়ার জন্য ওয়ার্নারের এই আক্রমণাত্মক সূচনা দারুণ একটি প্ল্যাটফর্ম তৈরি করে দেয় পরবর্তী ব্যাটসম্যানদের জন্য। অন্তত অ্যারন ফিঞ্চের রেকর্ড দেখে তা টের পাওয়া যায়। ২০১৩ সালের জুন থেকে এ পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার অ্যারন ফিঞ্চ ৪১টি চার মেরেছেন, যা যেকোনো ব্যাটসম্যানের চেয়ে বেশি।  

রোববার এই ওয়ার্নারকেই মোকাবেলা করতে হবে বিশ্বের অন্যতম সেরা ঘূর্ণিবলের। পাকিস্তানের এই স্পিনার এ পর্যন্ত টি২০তে ৮২টি উইকেট নিয়েছেন। শুক্রবার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের কাছে হারলেও সাঈদ আজমলের স্পিন-বিষ ঠিকই টের পেয়েছে ভারতীয়রা। যদি আর কিছু পুঁজি ব্যাটসম্যানরা দিতে পারতেন তাহলে আজমলের স্পিন আরো ক্ষুরধার হয়ে উঠতো। তাছাড়া উপমহাদেশের কন্ডিশনে যেকোনো সময় জ্বলে উঠতে পারেন তিনি। অন্তত সর্বশেষ টি২০ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া-পাকিস্তান দ্বৈরথে আজমল (১৭ রানে তিন উইকেট) যা করেছিলেন আজ তারই পুনরাবৃত্তি চান পাক অধিনায়ক হাফিজ।    

ওয়ার্নার আগুন ঝরানো ব্যাটিংয়ে বিপক্ষ বোলারদের কাঁপন ধরিয়েছেন উপমহাদেশের বাইরে। এবার এখানকার কন্ডিশনে কতটুকু পারবেন তা দেখার বিষয়। অন্তত অস্ট্রেলিয়ান কাপ্তান বেইলি ওর দিকেই তাকিয়ে রয়েছেন। আর মোহাম্মদ হাফিজ ভরসা মানছেন আজমলকেই।

চারবার ওয়ানডে বিশ্বকাপ জয়ী অস্ট্রেলিয়ার কাছে টি২০ কাপ অধরাই রয়ে গেল। আজ কি পারবে ওয়ার্নারের ব্যাটিংয়ের মতো দারুণ একটি সূচনা এনে দিতে। ভারতের বিপক্ষে হারই আজ তাতিয়ে দেবে পাকিস্তানকে। ইতিহাস বলে দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেলেই পাকিস্তানিরা ঘুরে দাঁড়ায়।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০০ ঘণ্টা, মার্চ ২৩, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa