ঢাকা, রবিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ক্রিকেট

বাংলাদেশের কোচ হচ্ছেন না সিমন্স

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৪৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩১, ২০১৭
বাংলাদেশের কোচ হচ্ছেন না সিমন্স ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের প্রধান কোচ হওয়ার দৌড়ে থাকা ফিল সিমন্স আফগানিস্তান টিমের দায়িত্ব নিয়েছেন। ডিসেম্বরের শুরুর দিকে মাশরাফি-সাকিবদের কোচ হওয়ার জন্য বিসিবি’তে সাক্ষাৎকার দিয়ে গেছেন তিনি।

চন্ডিকা হাতুরুসিংহে শ্রীলঙ্কার কোচ হওয়ার পর কোচের চেয়ারটি এখনো ফাঁকা! এখনো স্থায়ীভাবে কাউকে বসায়নি বিসিবি (বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড)। সিমন্সের আগে হাতুরুর উত্তরসূরি হতে পরীক্ষা দিয়েছেন টাইগারদের সাবেক কোচ রিচার্ড পাইবাস।

জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে ঘরের মাটিতে অনুষ্ঠেয় ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজ (শ্রীলঙ্কা ও জিম্বাবুয়ে) ও লঙ্কানদের বিপক্ষে টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ সামনে রেখে অন্তর্বর্তীকালীন মেয়াদে কাজ করছেন খালেদ মাহমুদ সুজন।

নতুন হেড কোচ হিসেবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের টি-২০ বিশ্বকাপ জয়ী সিমন্সের নাম ঘোষণা করেছে আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (এসিবি)। তিনি লালচাঁদ রাজপুতের স্থলাভিষিক্ত হবেন, যার সঙ্গে চুক্তি নবায়ন করেনি এসিবি।

আগামী ৮ জানুয়ারি থেকে কাজ শুরু করবেন সাবেক ক্যারিবীয় কোচ। ফেব্রুয়ারিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সীমিত ওভারের সিরিজ সামনে রেখে দুবাইতে অাফগান স্কোয়াডের সঙ্গে যোগ দেবেন ৫৪ বছর বয়সী সিমন্স। তার চুক্তির মেয়াদ ২০১৯ বিশ্বকাপ পর্যন্ত।

এসিবি’র তিনজনের সংক্ষিপ্ত তালিকার একজন ছিলেন সিমন্স, যারা বিগ মাসগুলোতে সাক্ষাৎকার দিয়ে এসেছেন। আয়ারল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে অভিজ্ঞতা ও সাফল্যের জন্যই তিনি ফেভারিট ছিলেন। গত বছর আফগানিস্তানের টিমের খন্ডকালীন কোচিং পরামর্শক ভূমিকাটাও সিমন্সের জন্য সহায়ক ভূমিকা রেখেছে।

এসিবি প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শফিক স্তানিকজাই বলেন, ‘আমরা সিমন্সকে বেছে নিয়েছি কারণ তিনি আমাদের দল সম্পর্কে জানেন। তিনি উইন্ডিজ, জিম্বাবুয়ে, আয়ারল্যান্ডের কোচ ছিলেন, এই তিনটি টিমের বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বেও খেলবে আফগানিস্তান। কোচ ভূমিকায় তার সম্ভাবনা ভালো ‘

সিমন্সের প্রথম চ্যালেঞ্জ হবে সীমিত ওভারের ক্রিকেট। জিম্বাবুয়ে সিরিজ (২টি টি-টোয়েন্টি ও ৫টি ওয়ানডে) শেষে মার্চে ওয়ার্ল্ডকাপ কোয়ালিফায়ার চ্যালেঞ্জে নামবে আফগানরা। আগামী বছরই নিজেদের ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথম টেস্ট খেলতে ভারত সফর করবে তারা। দিনক্ষণ এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

খেলোয়াড়ী জীবনে উইন্ডিজের জার্সিতে ২৬টি টেস্ট ও ১৪৩টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন অলরাউন্ডার সিমন্স। কোচিং ক্যারিয়ারে ২০০৪ সালে জিম্বাবুয়ের দায়িত্ব নেন। কিন্তু এক বছর যেতে না যেতেই তাকে অযৌক্তিকভাবে বরখাস্ত করা হয়।

২০০৭-২০১৫ সাল পর্যন্ত আয়ারল্যান্ডের কোচ ছিলেন সিমন্স। এরপর নিজ দেশের দায়িত্বভার কাঁধে নেন। তার অধীনে ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ঘরে তোলে কারিবীয়রা।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৭ ঘণ্টা, ৩১ ডিসেম্বর, ২০১৭
এমআরএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa