ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৮ মে ২০২৪, ১৯ জিলকদ ১৪৪৫

অর্থনীতি-ব্যবসা

পুঁজিবাজারের শীর্ষ ব্রোকারদের সঙ্গে বিএসইসি’র সভা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৫৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ২২, ২০২৪
পুঁজিবাজারের শীর্ষ ব্রোকারদের সঙ্গে বিএসইসি’র সভা

ঢাকা: পুঁজিবাজারের অংশীজন ও শীর্ষ ব্রোকারেজ হাউসগুলোর প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজি অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

সোমবার (২২ এপ্রিল) বিকেলে আগারগাঁওয়ে বিএসইসি কার্যালয়ে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এতে সভাপতিত্ব করেন বিএসইসির কমিশনার অধ্যাপক ড. শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ।  

সভায় অন্যান্যের মধ্যে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ পিএলসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক, ডিএসই ব্রোকারস অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট, বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্টসহ পুঁজিবাজারের শীর্ষ ব্রোকারেজ হাউসসমূহের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালকরা উপস্থিত ছিলেন।  

সভায় দেশের পুঁজিবাজারের বর্তমান অবস্থা, চ্যালেঞ্জ এবং অন্যান্য সম্পর্কিত বিষয়ের ওপর আলোচনা হয়।

সভায় বিএসইসি’র কমিশনার ড. শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, পুঁজিবাজারের অংশীজন এবং ব্রোকাররা বাজারের সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত হয়ে কাজ করছেন। নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি বাজার সংশ্লিষ্টদের মতামত গুরুত্ব সহকারে মূল্যায়ন করে থাকে এবং পুঁজিবাজারের বিভিন্ন বিষয়ে বাজার সংশ্লিষ্টদের মতামত ও পরামর্শ এর মাধ্যমে দেশের পুঁজিবাজারের সমৃদ্ধি নিশ্চিত করাই বিএসইসির লক্ষ্য। পুঁজিবাজারের বর্তমান পরিস্থিতির উত্তরণে আজকের সভায় বাজার সংশ্লিষ্টদের মতামত ও পরামর্শ আমলে নিয়ে কাজ করবে বিএসইসি।  

তিনি বলেন, বাংলাদেশের অর্থনৈতিক পরিস্থিতি ও আর্থিক অবস্থান যেমন উন্নতি হচ্ছে এবং দেশের পুঁজিবাজারও দ্রুতই প্রাণবন্ত ও বলিষ্ঠ রূপে ফিরবে বলে আশা করা যায়। সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় দ্রুতই বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ ও পুঁজির সুরক্ষা নিশ্চিত করে দেশের পুঁজিবাজারের উন্নয়ন ত্বরান্বিত করার বিষয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।  

সভায় আগত সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান তিনি।

সভায় বিএসইসি'র নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ রেজাউল করিম পুঁজিবাজারের বর্তমান পরিস্থিতিতে বিদ্যমান চ্যালেঞ্জগুলো তুলে ধরে করণীয় বিষয়ে আলোকপাত করেন এবং বিএসইসি'র নিবন্ধনপ্রাপ্ত প্রতিষ্ঠানগুলোর (স্টক ডিলার, মার্চেন্ট ব্যাংক, অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি, মিউচুয়্যাল ফান্ড ইত্যাদি) বিনিয়োগ বাড়ানোর জন্য আহ্বান জানান।

এছাড়াও ব্যাংকের বিনিয়োগ বাড়ানোর বিষয়ে ব্যাংকগুলোর হেড অব ট্রেজারিদের সঙ্গে একটি সভা অনুষ্ঠানের বিষয়ে মতামত দেন তিনি।

সভায় বর্তমান বাজার পরিস্থিতিসহ দেশের পুঁজিবাজারে সংকটগুলো ও সংকট উত্তরনের উপায়সহ এবং পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের বিভিন্ন দিক এ সময় আলোচনায় উঠে আসে। বাজারের তারল্য সমস্যা, অর্থনৈতিক অস্থিরতাসহ বিভিন্ন সমস্যার কথাও তুলে ধরেন তারা।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫৭ ঘণ্টা, এপ্রিল ২২, ২০২৪
এসএমএকে/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad