ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯, ১২ আগস্ট ২০২২, ১৩ মহররম ১৪৪৪

নির্বাচন ও ইসি

বিদায়ের আগে কুসিক নির্বাচনও করতে চায় ইসি

ইকরাম-উদ দৌলা, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৫৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৭, ২০২১
বিদায়ের আগে কুসিক নির্বাচনও করতে চায় ইসি

ঢাকা: বিদায় নেওয়ার আগে কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচন সম্পন্ন করার কথাও ভাবছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এক্ষেত্রে মধ্য জানুয়ারি থেকে মধ্য ফেব্রুয়ারির মধ্যেই ভোটগ্রহণ হতে পারে।

ইসি সূত্র জানিয়েছে, ২০১৭ সালের ৩০ মার্চ সর্বশেষ কুসিক নির্বাচন হয়েছিল। নির্বাচিত করপোরেশনের প্রথম সভা অনুষ্ঠিত হয়েছিল ১৭ মে। এক্ষেত্রে ভোটগ্রহণ করতে হবে আগামী ১৬ মে এর মধ্যে।

কর্মকর্তারা বলছেন, আইন অনুযায়ী প্রথম সভা থেকে পরবর্তী পাঁচ বছর হয় নির্বাচিত করপোরেশনের মেয়াদ। এজন্য মেয়াদ শেষ হবে ২০২২ সালের ১৬ মে। আর ভোটগ্রহণ করতে হয়, মেয়াদ শেষ হওয়ার আগের ১৮০ দিনের মধ্যে। এক্ষেত্রে গত ১৬ নভেম্বর থেকে এ সিটি নির্বাচনের সময় গণনা শুরু হয়ে গেছে।

কেএম নূরুল হুদার নেতৃত্বাধীন বর্তমান কমিশন দায়িত্বগ্রহণ করেছিলেন ২০১৭ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি। ২০২২ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি তাদের মেয়াদ পাঁচ বছর পূর্ণ হবে। তাই সময় গণনা শুরু হয়েছে এমন সব নির্বাচন সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। তবে কুসিক নির্বাচন করার পরিকল্পনা আগে ছিল না। অতি সম্প্রতি এই নির্বাচনটিও সম্পন্ন করার নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে সংস্থাটি।
এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনার বেগম কবিতা খানম জানিয়েছেন, মেয়াদ পূর্তির আগেই কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচন সম্পন্ন করার কথা ভাবছেন। এজন্য করোনা ভাইরাসের নতুন ধরণ ওমিক্রনের ওপর সজাগ দৃষ্টি রাখছেন তারা। তাই করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়েই নির্বাচন সম্পন্ন করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন।

তিনি বলেন, কুসিক নির্বাচন নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত এখনো হয়নি। তবে যদি প্রয়োজন হয় তফসিল দেওয়া হবে।

ইসির নির্বাচন পরিচালনা শাখার কর্মকর্তারা বলছেন, নির্বাচন নিয়ে এখনো কোনো কমিশন বৈঠক হয়নি। আনুষ্ঠানিক কোনো আলোচনাও হয়নি। বৈঠকে আলোচনার জন্য সব তথ্যাদী সংগ্রহ করা হচ্ছে। বর্তমান কমিশনের মেয়াদে ভোট হলে মধ্য জানুয়ারি থেকে মধ্য ফেব্রুয়ারির মধ্যেই করতে হবে।

২০১৭ সালের নির্বাচনে বিএনপি নেতা মনিরুল হক সাক্কু দ্বিতীয়বারের মতো এ সিটিতে নির্বাচিত হয়েছিলেন। এই সিটিতে সে সময় ভোট হয়েছিল ১০৩টি কেন্দ্রে। মোট ভোটার ছিল ২ লাখ ৭ হাজার ৫৬৬ জন।

২০১১ সালে দু’টি পৌরসভাকে একীভূত করে গঠন করা হয় কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নামে নতুন একটি করপোরেশন। ওই বছরই প্রথম নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। কুমিল্লা সিটি করপোরেশন ২৭টি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত।

সম্প্রতি নারয়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। আগামী ১৫ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ সময়। মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২০ ডিসেম্বর। প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২৭ ডিসেম্বর। আর ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ১৬ জানুয়ারি। যাওয়ার আগে সারাদেশের সব ইউপি নির্বাচনও ধারাবাহিকভাবে সম্পন্ন করছে ইসি। ইতোমধ্যে তিন ধাপের ইউপি ভোট শেষ করেছে সংস্থাটি। আগামী ২৬ ডিসেম্বর চতুর্থ ধাপের ইউপি ভোট হবে। এছাড়া পঞ্চম ধাপের ইউপি ভোট হবে ৫ জানুয়ারি।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২১, ২০২১
ইইইডি/এমআরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa