ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

নির্বাচন

নির্বাচনী সহিংসতায় হাসপাতালে ভর্তি ৬১, নতুন ওয়ার্ড চালু

খোরশেদ আলম সাগর, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০২১
নির্বাচনী সহিংসতায় হাসপাতালে ভর্তি ৬১, নতুন ওয়ার্ড চালু

লালমনিরহাট: লালমনিরহাটে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সহিংসতায় গত ২৪ ঘণ্টায় আদিতমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আহত ৬১ জনকে ভর্তি করা হয়েছে। রোগীর চাপের কারণে চালু করা হয়েছে নতুন ওয়ার্ড।


 
শুক্রবার (১২ নভেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় বাংলানিউজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন আদিতমারী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তৌফিক আহমেদ।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) আদিতমারী উপজেলার আটটি ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য ও সাধারণ সদস্য পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনকে ঘিরে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে সহিংস ঘটনা ঘটে। নির্বাচন পরবর্তী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে জয়-পরাজয় ও ভোট দেওয়া, না দেওয়া নিয়েও বেশ কিছু স্থানে হামলা এবং  অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। এতে বেশ কিছু লোক আহত হয়েছেন। আহতদের আদিতমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ পার্শ্ববর্তী সদর হাসপাতালসহ কয়েকটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এদিকে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট আদিতমারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রোগীর চাপ বেড়ে যাওয়ায় নতুন ওয়ার্ড চালু করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডেও রাখা হচ্ছে নির্বাচনী সহিংসতায় আহত রোগীদের। রোগীর চাপ বেড়ে যাওয়ায় চিকিৎসকরাও বেশ ব্যস্ত রয়েছেন। অনেক রোগী প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়িতে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নির্বাচনী সহিংসতায় আহত হয়ে এ হাসপাতালে ৬১ জন রোগী ভর্তি হয়েছে। এদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় দুইজনকে লালমনিরহাট সদর হাসপাতাল ও ছয়জনকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আদিতমারী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তৌফিক আহমেদ জানান, নির্বাচনী সহিংসতায় আহত রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। রোগীর চাপ বেড়ে যাওয়ায় নতুন ওয়ার্ড চালু করা হয়েছে। রোগীদের চিকিৎসায় পর্যাপ্ত ওষুধপত্রসহ চিকিৎসক রয়েছেন।

এদিকে নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা দমানোর জন্য থানা পুলিশের নিয়মিত টহলের সঙ্গে যুক্ত রয়েছে পাঁচটি মোবাইল টিম। তবুও দমানো যাচ্ছে না নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা। হামলার শিকার লোকজন বিচার চেয়ে থানায় লিখিত অভিযোগও দায়ের করছেন। সেদিক থেকে থানায় অভিযোগের চাপও বেড়েছে।

আদিতমারী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোক্তারুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, সহিংসতা রোধে মাঠে কাজ করছে অতিরিক্ত পাঁচটি মোবাইল টিম। এছাড়াও থানা পুলিশের নিয়মিত টহলও অব্যাহত রয়েছে। নির্বাচনী সহিংসতায় এখন পর্যন্ত ৪টি অভিযোগ দায়ের হয়েছে। সব ঘটনা সুষ্ঠুভাবে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০২১
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa