ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ২৪ রবিউস সানি ১৪৪৩

ফুটবল

শনিবারের ৪ ম্যাচে এগিয়ে যারা

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪০ ঘণ্টা, জুন ১৪, ২০১৪
শনিবারের ৪ ম্যাচে এগিয়ে যারা

ঢাকা: কলম্বিয়া-গ্রিস খেলায় বিশেজ্ঞদের মতে এগিয়ে রয়েছে কলম্বিয়াই। কেন না তারা বিশ্বকাপের গ্রুপ ঘোষণার পর পরই বলে রেখেছিলো এবার তারা হচ্ছে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন।



যদিও কলম্বিয়া দলের সেরা তারকা রাদামেল ফালকাও ইনজুরির কারণে দল থেকে ছিটকে পড়েছেন তবুও তাদের বিশ্বকাপ দলে রয়েছেন বেশ কয়েকজন নির্ভারযোগ্য খেলোয়াড়।

অন্যদিকে শনিবারেরে‌ ম্যাচে গ্রিসকে ফুটবল বিশেজ্ঞরা এগিয়ে না রাখলেও তারা এবারের বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে প্রতি তিন ম্যাচের মধ্যে গড় দু’টি করে ম্যাচে কোনো গোলই হজম করেনি।

তবে বিশেজ্ঞদের মত, গ্রিস গ্রুপ পর্বে কলম্বিয়ার সঙ্গে খেলা বাদে বাকি দুই ম্যাচে কোনো খোল খাবে না। শুধু কলম্বিয়ার সঙ্গেই তাদের খোল হজম করতে হবে।

অন্যদিকে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের সাত মাচে কলম্বিয়ার জালে বল ঢুকতে দেয়নি দলের গোলরক্ষক দাভিদ ওসপিনা। এ ম্যাচেও এ ধারা অব্যাহত থাকলে কলম্বিয়ার চেয়ে গ্রিস যে পিছিয়েই পড়বে এমনটাই মত বিশেজ্ঞদের।


উরুগুয়ে-কোস্টারিকা

কোস্টারিকা তাদের গ্রুপের সবচেয়ে দুর্বল দল! শক্তি, সামর্থ থাকা সত্ত্বেও তাদের দুর্বল করেছে বিশ্বজয়ীদের সঙ্গে এক গ্রুপে খেলাটা।

আর্জেন্টিনার সমান দুইবার বিশ্বকাপ জয়ী উরুগুয়ের সঙ্গে কোস্টারিকার প্রথম খেলায় কোন অঘটন দেখছেন না বিশেজ্ঞরা। তাদের মতে, এ ম্যাচে জয় হবে দুইবার শিরোপায় চুমু দেওয়া উরুগুরেরই।

তবে এই ম্যাচে ইনজুরির কারণে এখনও সেরে না ওঠা সুয়ারেজ না খেলায় খেলাটা বেশ প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ হবে বলছেন বিশেজ্ঞরা।

তাদের মতে, বিশ্বকাপ বাইচাই পর্বে কোস্টারিকা নিজেদের ২২ শতাংশ গোল দিয়েছে প্রথম ১৫ মিনিটে। এবার যার ব্যাতিক্রম হয়ে যেতে পারে। আর যদি ব্যাতিক্রম না হয় তা হলে খেলার মোড় ঘুরে যেতে আর অপেক্ষা থাকলো না বটে।

ইংল্যান্ড-ইতালি

খুব ঠান্ডা মাথার ফুটবল হবে ইংল্যান্ড ও ইতালির মধ্যে। কেন-না যে কোনো প্রকার ভুলে হেরে গেলেই যে বাধবে বিপত্তি!

তাই ফুটবল বিশেজ্ঞদের মতে, এ ম্যাচটি ড্র হলেও হতে পারে।

এ ম্যাচে আরেকটি বিষয় বেশ গুরুত্বপূর্ণ তা হলো বিশ্বকাপ কিংবা ইউরোতে ইতালিকে কখোনো হারাতে পারেনি ইংল্যান্ড। আর তাই এবারও এর ব্যাতিক্রম না হলে জয়ের স্বাদে মুখ মিষ্টি করতেও পারে ইতালি।

জাপান-আইভরিকোস্ট
 
জাপানের খেলার মধ্য দিয়ে ২০১৪ বিশ্বকাপে এশিয়ার প্রথম খেলা এ দিন। তাই এশিয়াবাসীর জন্য দিনটি বেশ গুরুত্বপূর্ণ। ঠিক এমনটাই বলছে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো। আর বিশ্লেষকদের ভাষায় এ ম্যাচটি হবে বিশ্বকাপের এ পর্যন্ত সবচেয়ে প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ খেলা।

জাপান ও আইভরিকোস্ট দুই দলই এ ম্যাচে খেলবে আক্রমনাত্মক ফুটবল। এক দিকে আইভরিকোস্টের বুড়ো দ্রগবার জাদুর অপেক্ষা অন্যদিকে জাপানের সমন্বয় ফুটবল। এ দুয়ের মধ্যে লড়াইটা বেশ জমে উঠবে এ ম্যাচে।

তাই বিশেজ্ঞদের মতে, এ ম্যাচে এগিয়ে রাখার মতো কাউকে না পাওয়া গেলেও খানিকটা এগিয়ে থাকছে যে আইভরিকোস্টই তাই ধরে নেওয়া হচ্ছে।

তবে বিশেজ্ঞদের মতে এ ম্যাচে আসতে পারে ব্রাজিল বিশ্বকাপের প্রথম ড্রও।
 

বাংলাদেশ সময়: ২১৩৬ ঘণ্টা, জুন ১৪, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa