ঢাকা, শনিবার, ১ কার্তিক ১৪২৮, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

ফুটবল

‘ফিরছেন’ মেসি, ‘ফিরছে’ আর্জেন্টিনা

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭৩৬ ঘণ্টা, জুন ১৬, ২০১৪
‘ফিরছেন’ মেসি, ‘ফিরছে’ আর্জেন্টিনা লিওনেল মেসি

ঢাকা: ক্ষুদে ফুটবল জাদুকর লিওনেল মেসির ম্যাজিকে বিশ্বকাপে প্রথম ম্যাচেই ২-১ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে আর্জেন্টিনা।

খেলার প্রথমার্ধে প্রত্যাশা অনুযায়ী দ্যুতি ছড়াতে পারেনি দলটির ফ্যাব ফোরের (লিওনেল মেসি, গঞ্জালো হিগুয়েন, সার্জিও আগুয়েরো, অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া) কোনো সদস্য।


 
এদের মধ্যে প্রথম একাদশেই ছিলেন না গঞ্জালো হিগুয়েইন। আর বাকি তিন জন খেললেও বল পায়ে খুব একটা দেখা যায়নি তাদের। সুপার হিরোদের এমন অনুজ্জ্বল পারফম্যান্সে প্রথমার্ধটা একেবারেই ম্যাড়মেড়ে দেখিয়েছে আর্জেন্টিনাকে।
 
তবে দ্বিতীয়র্ধের ২০ মিনিটে অর্থাৎ খেলার ৬৫ মিনিটে এবারের বিশ্বকাপের প্রথম গোল করেন মেসি। প্রতিপক্ষের দুই ডিফেন্ডারকে বোকা বানিয়ে তার নেওয়া শট ঠেকানোর কোনো সুযোগই পাননি বসনিয়া গোলরক্ষক। এ গোলের মধ্যদিয়ে মেসি জানান দিয়ে রাখলেন গোল্ডেন বুটের দৌঁড়ে থাকছেন তিনিও।

এর আগে, খেলা শুরুর মাত্র তিন মিনিটেই এগিয়ে যায় আর্জেন্টিনা। মেসির ফ্রি কিক বসনিয়ান ডিফেন্ডার কোলাসিনাক ক্লিয়ার করতে গিয়ে ভুল করে নিজ জালে বল জড়িয়ে ফেলেন। ফল যা হওয়ার হয়ও তা। ১-০ তে এগিয়ে যায় আলেসান্দ্রো সাবেলার শীর্ষরা।

তবে, প্রথমার্ধে আলেসান্দ্রো সাবেলার শীর্ষদের দৌঁড় ছিলো ওটুকুই। খেলার প্রথমার্ধে আর কোনো সুযোগ সৃষ্টি করতে পারেনি আর্জেন্টিনা। এমনকি ফ্যাব ফোরের তিন সদস্য মেসি, আগুয়েরো ও অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া কেউ তেমন কোনো ঝলকও দেখাতে পারেনি।
 
উল্টো বসনিয়ার আক্রমণ ভাগের সদস্যদের আক্রমণ ঠেকাতেই তটস্থ ছিলো আর্জেন্টিনার রক্ষণভাগ। ভাগ্য সহায় হলে প্রথমার্ধেই গোল পরিশোধ করে এগিয়ে থাকতে পারতো বসনিয়া।
 
দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই ফ্যাব ফোরের চতুর্থ সদস্য হিগুয়েনকে মাঠে নামান স্যাবেলা। সেই সঙ্গে মাঠে নামেন মধ্য মাঠের সেনা গ্যাগো। দুই খেলোয়াড় বদল করলেও খুব একটা বদলায় না আর্জেন্টিনার খেলার চিত্র।
 
বরং দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই আর্জেন্টিনাকে চেপে ধরে বসনিয়া। তবে দুর্বল আক্রমণ ভাগের কারণে বেশ কয়েকটি সুযোগ সৃষ্টি করেও তা কাজে লাগাতে পারেনি তারা। অপরদিকে দ্বিতীয়ার্ধের ১২ মিনিটের মাথায় কিছুটা সহজ সুযোগ পান ফুটবল ঈশ্বর ম্যারাডোনার মেয়ে জামাই আগুয়েরো। কিন্তু তার লক্ষ্যচ্যুত শট ঠেকাতে কোনো চেষ্টাই করতে হয়নি বসনিয়া গোলরক্ষককে।
 
এরইমধ্যে খেলার ৬৫ মিনিটে ঝলক দেখানোর সুযোগ পান মেসি। সুযোগ পেয়ে ভক্তদের বঞ্চিত করেননি তিনি। তবে ওই গোলটুকুই। এরপর আবারও খোলসে ঢাকা পড়ে যান বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার এ স্বপ্নের ফেরিওয়ালা। ফলে প্রথম ম্যাচে অতৃপ্তি নিয়েই থাকতে হচ্ছে আর্জেন্টিনা ভক্তদের।

এদিকে দ্বিতীয়ার্ধের শুরুর মতো দ্বিতীয় গোল খেয়ে আবারও আর্জেন্টিনাকে চেপে ধরে বসনিয়া। খেলার ৮৪ মিনিটে বসনিয়া স্ট্রাইকার ইবিসেভিচ গোল করে ব্যবধান কমিয়ে আনেন ২-১ এ। অবশ্য এ গোলের জন্য তার অবদানের চেয়ে আর্জেন্টিনার গোলরক্ষকের ব্যর্থতাই ছিলো বেশি।

বাংলাদেশ সময়: ০৭৩২ ঘণ্টা, জুন ১৬, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa