ঢাকা, বুধবার, ১১ কার্তিক ১৪২৮, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

ফুটবল

চেলসি-লিভারপুল ম্যাচে কেউ জেতেনি

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০৩০ ঘণ্টা, আগস্ট ২৯, ২০২১
চেলসি-লিভারপুল ম্যাচে কেউ জেতেনি

ম্যাচ শুরুর দিকে গোল করে এগিয়ে গিয়েছিল চেলসি। কিন্তু ১০ জনের দলে পরিণত হওয়ার পাশাপাশি প্রতিপক্ষকে উপহার দিল স্পট কিক, যা থেকে সমতা ফেরাল লিভারপুল।

বাকি সময়ে দুই দল আর জালের দেখা না পাওয়ায় ড্রয়ে শেষ হয় মৌসুমের প্রথম ‘বিগ ম্যাচ’।

অ্যানফিল্ডে শনিবার প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়েছে। কাই হাভার্টজের গোলে চেলসি এগিয়ে যাওয়ার পর পেনাল্টি থেকে সমতা টানেন মোহামেদ সালাহ।

প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন চেলসির রিস জেমস। ওই পেনাল্টি থেকেই লক্ষ্যভেদ করেন সালাহ।

পুরো ম্যাচে বল দখলের পাশাপাশি আক্রমণে দাপট ছিল লিভারপুলের। ম্যাচে গোলের জন্য তাদের ২৩ শটের ৮টি ছিল লক্ষ্যে। চেলসির ৬ শটের ৩টি লক্ষ্যে।

এগিয়ে যাওয়ার লড়াইয়ে চতুর্থ মিনিটে সুবর্ণ সুযোগ পায় লিভারপুল। ডি-বক্সের সামনে থেকে হার্ভে এলিয়টের শট পোস্টের সামান্য বাইরে দিয়ে যায়।


দশম মিনিটে সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করেন জর্ডান হেন্ডারসন। ট্রেন্ট অ্যালেকজ্যান্ডার-আর্নল্ডের ক্রস ভালো পজিশনে পেয়ে শট লক্ষ্যে রাখতে পারেননি ইংলিশ মিডফিল্ডার।

২২তম মিনিটে নিজেদের প্রথম সুযোগে এগিয়ে যায় চেলসি। জেমসের কর্নারে দারুণ হেডে বল জালে পাঠান জার্মান মিডফিল্ডার হাভার্টজ।

৩৭তম মিনিটে আরেকটি সুযোগ নষ্ট হয় লিভারপুলের। সাদিও মানের বাড়ানো বল ডি-বক্সে পেয়ে উড়িয়ে মারেন এলিয়ট।

প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে জোয়েল মাতিপের হেড ক্রসবারে লাগার পর মানের প্রচেষ্টা গোললাইন থেকে ফেরান জেমস, কিন্তু বল চেলসি ডিফেন্ডারের হাতে লাগায় পেনাল্টির জোরালো আবেদন করেন লিভারপুলের খেলোয়াড়রা।

ভিএআরের সাহায্যে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি, আর জেমসকে সরাসরি দেখান লাল কার্ড। স্পট কিকে বল জালে পাঠাতে ভুল করেননি সালাহ। গোলের পর হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়েন দুই দলের কয়েকজন খেলোয়াড়। হলুদ কার্ড দেখেন চেলসি গোলরক্ষক এদুয়াঁ মঁদি।

প্রতিপক্ষে একজন কম থাকার সুযোগে দ্বিতীয়ার্ধে তাদের চেপে ধরে লিভারপুল। ৫১তম মিনিটে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ আসে দলটির সামনে। সালাহর ক্রসে ডি-বক্সে দিয়োগো জটার হেড ক্রসবারের ওপর দিয়ে উড়ে যায়।

পরের মিনিটে প্রায় ২৫ গজ দূর থেকে ভার্জিল ফন ডাইকের নিচু শট ঝাঁপিয়ে ঠেকান মঁদি। ৫৯ মিনিটে ডি-বক্সের বাইরে থেকে ফাবিনিয়োর শটও দারুণ দক্ষতায় ফেরান তিনি।

৬৪তম মিনিটে সুযোগ পান চেলসির রোমেলু লুকাকু। ডি-বক্সে তার ভলি ঠেকান ডিফেন্ডার মাতিপ। ৮২তম মিনিটে সালাহর দুর্বল শট সহজে ঠেকিয়ে ১ পয়েন্ট নিশ্চিত করেন মঁদি।

তিন ম্যাচে দুই জয় ও একটি করে ড্রয়ে প্রথম চার দলের পয়েন্ট সমান ৭। গোল পার্থক্যে ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেড শীর্ষে, চেলসি দুইয়ে, লিভারপুল তিনে, চারে এভারটন এবং এক পয়েন্ট কম নিয়ে পাঁচে ম্যানচেস্টার সিটি।

বাংলাদেশ সময়: ১০৩০ ঘণ্টা,আগস্ট ২৯, ২০২১
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa