ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ মাঘ ১৪২৮, ২৭ জানুয়ারি ২০২২, ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

স্বাস্থ্য

অ্যান্ডোসকপিক অর্থোপেডিক সার্জারিতে অপারেশন পরবর্তী সমস্যা কমে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩০ ঘণ্টা, আগস্ট ১১, ২০১২

ঢাকা: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) অ্যান্ডোসকপিক অর্থোপেডিক সার্জারি বিষয়ক এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থোপেডিক সার্জারি বিভাগ ও মালয়েশিয়ার কেপিজে হেলথকেয়ার বারহাড এর যৌথ উদ্যোগে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।


 
অর্থোপেডিক সার্জারি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. নকুল কুমার দত্তের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত।

আরো বক্তব্য রাখেন অর্থোপেডিক সার্জারি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ডা. আবু জাফর চৌধুরী, বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থোপেডিক সার্জারি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মো. কামরুল আহসান, কেপিজে হেলথকেয়ার বারহাড’র ডা. আব্দুল হাদী বিন হুসাইন, ডা. আতফুল হাই শিবলী, কেপিজে হেলথকেয়ার’র সিনিয়র করপোরেট এক্সিকিউটিভ নুর হাফিজান মোহাম্মদ  নুর প্রমুখ।     

সেমিনারে বক্তারা জানান, অ্যান্ডোসকপিক অর্থোপেডিক সার্জারিতে কাটাকাটি না করেই অপারেশন করা হয়। এতে করে অপারেশন পরবর্তী রোগীর সমস্যা ও জটিলতা অনেকখানিই কমে যায়। এ ধরনের চিকিৎসায় অপারেশন পরবর্তী সময়ে রোগীকে অল্প দিন হাসপাতালে অবস্থান করতে হয়। না কেটে অপারেশন করায় রোগীরা কম ব্যাথা অনুভব করেন। এছাড়া রোগীর টিস্যুতে ইনজুরির সমস্যাও কম। সাধারণ সার্জারি চেয়ে তুলনামূলকভাবে এ ধরনের চিকিৎসা রোগীর জন্য বেশি আরামদায়ক।

বাংলাদেশ সময়: ১৭২৭ ঘণ্টা, আগস্ট ১১, ২০১২
এমএন/সম্পাদনা: আবু হাসান শাহীন, নিউজরুম এডিটর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa