ঢাকা, মঙ্গলবার, ১ ভাদ্র ১৪২৯, ১৬ আগস্ট ২০২২, ১৭ মহররম ১৪৪৪

ইসলাম

শত বছর পর তুরস্কের ইসহাক পাশা মসজিদে আবার নামাজ শুরু

ইসলাম ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৪৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ২, ২০১৫
শত বছর পর তুরস্কের ইসহাক পাশা মসজিদে আবার নামাজ শুরু

তুরস্কের বর্তমান ক্ষমতাসীন জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টিকে (একেপি) ইসলামপন্থী বলেই মনে করা হয়। ফলে একেপি ক্ষমতায় এসে ধীরে ধীরে কিছু ইসলামি মূল্যবোধ প্রতিস্থাপনে মনোযোগী হয়।



এরই ধারাবাহিকতায় তুরস্কে মদ বিক্রির ক্ষেত্রে কিছু নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়, প্রকাশ্যে চুমু দেওয়াকে নিষিদ্ধ করা হয়, স্বাস্থ্য বীমা ব্যবস্থায় গর্ভপাতকে সংযোজন না করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বন্ধ থাকা বেশকিছু ঐতিহাসিক মসজিদ নামাজের জন্য পুনরায় খুলে দেওয়া হয়। নারীদের বোরকা পড়ার অনুমতি দেওয়া হয়, ইসলামি শিক্ষার ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়। আরবি আজান দেওয়া শুরু হয়। এসবের পেছনে বর্তমান প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেব এরদোগানের অবদান বেশি।

এসব কাজের ধারাবাহিকতায় এবার দীর্ঘ এক শতাব্দী পর তুরস্কের ঐতিহাসিক ‘ইসহাক পাশা’ মসজিদটি নামাজের জন্য খুলে দেওয়া হলো। মসজিদটি তুরস্কের আগরি প্রদেশের ঢগুবায়িজিদ শহরে অবস্থিত। ১৮ শতাব্দীর উসমানীয় শাসনামলে অনন্য এ মসজিদ নির্মাণ করা হয়।

মসজিদটি ইসহাক পাশার দ্বিতীয় অঙ্গন হিসেবে প্রসিদ্ধ। এতদিন বিভিন্ন সমস্যা এবং অবকাঠামোগত ধ্বংসের কারণে মসজিদটি অব্যবহারযোগ্য ছিল। ইসহাক পাশা মসজিদটি ইসহাক পাশার প্রাসাদের কাছে অবস্থিত। ওই প্রাসাদটি ১৬৮৫ সালের দিকে নির্মাণ করা হয়।

প্রাসাদটি তুরস্কের সীমান্তের কাছাকাছি একটি পর্বতের পাশে পাহাড়ের ওপর নির্মিত। ইসহাক পাশার প্রাসাদটি পর্যটকদের কাছে বেশ মূল্যবান ও ঐতিহাসিক ধন। এই প্রাসাদের অভ্যন্তরে মসজিদটির কথা এতদিন অনেকে ভুলেই ছিলেন।

২০০৩ সালে এরদোগান প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব লাভের পর ঐতিহাসিক সব মসজিদ সংস্কার কিংবা পুনঃনির্মাণ করে নামাজের জন্য খুলে দেওয়ার ঘোষণা দেন। এরই ধারাবাহিকতায় ইসহাক পাশা মসজিদটি পুনঃনির্মাণ করা হলো।

পুনঃনির্মাণের পর ইসহাক পাশা মসজিদ উদ্বোধনের সময় তুরস্কের জনগণ ব্যাপকভাবে অভিনন্দন ও স্বাগত জানিয়েছে এরদোগানকে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আগরি প্রদেশের গভর্নর মুসা ইশিনসহ তুরস্কের ধর্মীয় সম্প্রদায়ের নেতৃস্থানীয় আলেম ও সরকারি কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৮৪৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ০২, ২০১৫
এমএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa