ঢাকা, বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ০৭ শাওয়াল ১৪৪৫

ইসলাম

সালাম দিয়ে অন্যের ঘরে প্রবেশ করুন

মো. আমিনুল ইসলাম | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭৩৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ৬, ২০২১
সালাম দিয়ে অন্যের ঘরে প্রবেশ করুন

কারও ঘরে প্রবেশ করার আগে অনুমতি নেওয়ার ব্যাপারে আল-কোরআনে আয়াত নাজিল হয়েছে। আল্লাহ বলেন, ‘হে মুমিনগণ, তোমরা কখনো নিজেদের ঘর ছাড়া অন্য কারও ঘরে অনুমতি ছাড়া এবং সালাম না করে প্রবেশ কর না।

এটা তোমাদের জন্য অতি উত্তম, আশা করা যায় তোমরা এ থেকে শিক্ষা গ্রহণ করতে পারবে। ’ সুরা আন নুর, আয়াত ২৭।

আল্লাহ আরও বলেন, ‘যদি তোমরা কাউকে সেখানে না পাও তাহলে সেখানে প্রবেশ কোর না, যতক্ষণ না তোমাদের ঘরে ঢোকার অনুমতি দেওয়া হয়। যদি কোনো কারণে তোমাদের বলা হয় ফিরে যাও, তাহলে তোমরা অবশ্যই ফিরে যাবে এটা তোমাদের জন্য উত্তম। তোমরা যা কর আল্লাহ সে সম্পর্কে সবিশেষ অবহিত থাকেন। ’ সুরা আন নুর, আয়াত ২৮।

কারও বাড়িতে প্রবেশ কোর না যতক্ষণ না অনুমতি নিয়ে নাও। এর মাধ্যমে আল্লাহ রব্বুল আলামিন আমাদের সঙ্গে একে অন্যের পরিচিতি, অন্তরঙ্গতা, ঘনিষ্ঠতা ও প্রীতি সৃষ্টি করার ব্যাপারে গুরুত্বারোপ করেছেন। কাজেই আয়াতের সঠিক অর্থ হবে: কোনো পরিচিত/অপরিচিত লোকদের ঘরে প্রবেশ কোর না যতক্ষণ না তাদের অন্তরঙ্গ করে নেবে অথবা তাদের সম্মতি জেনে নেবে।

অর্থাৎ এ কথা জেনে নেবে যে ঘরের মালিক তোমার আসাকে অপ্রীতিকর বা বিরক্তিকর মনে করছে না এবং তার ঘরে প্রবেশকে সে পছন্দ করছে। দ্বিতীয়ত, ঘরের লোকদের সালাম করা। মুফাসসিরদের মতে প্রথমে অনুমতি নাও এবং ঘরে প্রবেশের সময় সালাম দাও।

রাসুল (সা.) ব্যক্তিগত গোপনীয়তার এ অধিকারটিকে কেবল ঘরের চৌহদ্দির মধ্যেই সীমাবদ্ধ রাখেননি বরং একে একটি অধিকার হিসেবে গণ্য করেছেন। অনুমতি না নিয়ে অন্যের ঘরে উঁকিঝুঁকি মারা, বাইরে থেকে তাকিয়ে দেখা নিষিদ্ধ। এক ব্যক্তি রাসুল (সা.)-এর কাছে এলেন এবং ঠিক তাঁর দরজার সামনে দাঁড়িয়ে অনুমতি চাইলেন। রাসুল (সা.) তাকে বললেন, ‘পেছনে সরে গিয়ে দাঁড়াও, যাতে দৃষ্টি না পড়ে। সেজন্যই তো অনুমতি চাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ’ আবু দাউদ।

জনৈক ব্যক্তি রাসুলকে (সা.) জিজ্ঞেস করল, আমি আমার মায়ের কাছে যাওয়ার জন্য অনুমতি চাইব? তিনি বললেন হ্যাঁ, অনুমতি চাইবে। লোকটি বলল, হে আল্লাহর রসুল আমি তো আমার মায়ের ঘরেই একসঙ্গে বসবাস করি। রাসুল (সা.) বললেন, তবু অনুমতি না নিয়ে তুমি ঘরে যাবে না। তুমি কি তোমার মাকে উলঙ্গ অবস্থায় দেখতে পছন্দ কর? সে বলল না। তিনি বললেন, তাই অনুমতি চাওয়া আবশ্যক। মুয়াত্তা ইমাম মালিক।

অনুমতি নেওয়ার ব্যাপারে শুধু অন্যের ঘরে প্রবেশ করার অনুমতি নেওয়ার হুকুম দেওয়া হয়নি। বরং নিজের মা-বোনদের কাছে যাওয়ার সময়ও অনুমতি নিতে হবে। আবদুল্লাহ ইবনে মাসুদ (রা.) বলেন, ‘নিজের মা-বোনদের কাছে যাওয়ার সময়ও অনুমতি নিয়ে যাও। ’ ইবনে কাসির।

আল্লাহ রব্বুল আলামিন আমাদের সবাইকে অনুমতি নিয়ে ও সালাম দিয়ে অন্য কারও ঘরে প্রবেশ করার তৌফিক দান করুন। অনুমতি না নিয়ে যেন আমরা কারও ঘরে প্রবেশ না করি।

বাংলাদেশ সময়: ০৭৩২ ঘণ্টা, নভেম্বর ০৬, ২০২১
এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।