ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯, ১১ আগস্ট ২০২২, ১২ মহররম ১৪৪৪

লাইফস্টাইল

কেন মেঝেতে বসে খাবার খাবেন?

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬২২ ঘণ্টা, অক্টোবর ১২, ২০২১
কেন মেঝেতে বসে খাবার খাবেন? ছবি: প্রতীকী

বর্তমান সময়ে মানুষের মাঝে মাটিতে বা মেঝেতে বসে খাবার খাওয়ার প্রবণতা কমে যাচ্ছে। গ্রামে এলাকায় কিছু সংখ্যক মানুষ এখনো মাটিতে বসে খাবার খেলেও শহরে তা একেবারেই নেই বললেই চলে।

মাটিতে বসে খাওয়া বাঙালির আদি অভ্যাস। এছাড়া ইসলামেও বলা আছে মাটিতে বসে খেলে অনেক উপকার হয় শরীরের।  কিন্তু বেশিরভাগ মানুষ এখন চেয়ার টেবিলে বসে খেতে অভ্যস্ত হয়ে পড়েছেন। স্বাস্থ্য ভালো রাখতে মাটিতে বসে খাওয়ার অভ্যাস করার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা।

আসুন জেনে নেই কারণগুলো-

খাবার দ্রুত হজম হয়: মাটিতে বসে খেলে থালা সামনে রেখে সামান্য ঝুঁকে খেতে হয়, তারপর আবার সোজা হয়ে বসতে হয়, এটাই স্বাভাবিক অভ্যাস। বারবার এ ঘটনা ঘটে বলেই অ্যাবডোমেনের মাসেলে টান পড়ে। এতে খাবার দ্রুত হজম হয়।

ওজন কমে: মাটিতে বসে খেলে ওজন কমতে পারে দ্রুত। কারণ, এতে অ্যাবডোমেনের মাসেলের মুভমেন্ট হয় যা পেটের মেদ অনেকটা কমতে পারে। এতে মাথারও অনেকটা রিল্যাক্স হয়। এভাবে বসে খেলে বেশি খাওয়াও সম্ভব নয়। ফলে খাওয়া নিয়ন্ত্রণে থাকে।

শরীরে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে: মাটিতে বসে খেলে শরীরে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে। এতে হার্টের অবস্থা ভাল থাকে। কারণ, মাটিতে বসলে হার্টের ওপর চাপ কম পড়ে। আর সারা শরীরে সমানভাবে রক্ত সঞ্চালিত হয়।

শরীরের উপকার: মাটিতে বসে খাওয়ার অভ্যাস করলে আপনার বসার স্বাভাবিক অভ্যাসটাই পাল্টে যেতে পারে। এর ফলে কোমর, পা থেকে মেরুদণ্ড, সব কিছুর উপকার হয়।

শরীরের রিল্যাক্সেশন: মেঝে বা মাটিতে বসে খেলে মাথা ও শরীরের রিল্যাক্সেশন হয়। পদ্মাসনে সেই কারণে মেডিটেশন করতে বলা হয়। পদ্মাসনে না হোক, মেঝে বা মাটিতে বসে খেলেই শরীরে সহজে অক্সিজেন ফ্লো তৈরি হয়, যা শরীরকে সুস্থ রাখে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২২ ঘণ্টা, অক্টোবর ১২, ২০২১
জেডএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa