ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ শাবান ১৪৪৫

জাতীয়

টানা সাতবার শিল্পকলার ডিজি লাকী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৫২ ঘণ্টা, মার্চ ২৯, ২০২৩
টানা সাতবার শিল্পকলার ডিজি লাকী

ঢাকা: শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক পদে আবারও পুনঃনিয়োগ পেয়েছেন লিয়াকত আলী লাকী। টানা সপ্তমবার এই পদে নিয়োগ পেলেন তিনি।

নাট্য নির্দেশক, অভিনেতা লিয়াকত আলী লাকী বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক (ডিজি) পদে নিয়োগ পেয়েছিলেন ২০১১ সালের ৭ এপ্রিল। এরপর গত একযুগ ধরে পদটিতে বহাল আছেন তিনি।

সপ্তমবারের মতো আরও দুই বছরের জন্য পুনঃনিয়োগ পেয়েছেন লাকী। এর আগে এত দীর্ঘ সময় শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক পদে কেউ ছিলেন না। ফলে পদটিতে রেকর্ড গড়লেন তিনি।

বুধবার (২৯ মার্চ) জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের এক প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি (কর্মকর্তা ও কর্মচারী) প্রবিধানমালা ১৯৯২-এর বিধি ৩(ঘ) অনুযায়ী বিশিষ্ট সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব লিয়াকত আলী লাকীকে তার বর্তমান চুক্তির ধারাবাহিকতায় ও অনুরূপ শর্তে আগামী ১৩ এপ্রিল ২০২৩ অথবা যোগদানের তারিখ থেকে পরবর্তী ২ (দুই) বছর মেয়াদে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক পদে পুনরায় চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ প্রদান করা হলো।

লিয়াকত আলী লাকী ২০১১ সালের ৭ এপ্রিল নিয়োগ পাওয়ার পর ২০১৩ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৪ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ সালের ২৭ মার্চ, ২০১৮ সালের ১৯ মার্চ এবং ২০২০ সালের ১৩ এপ্রিল পুনঃনিয়োগ পান। তিনি বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের সভাপতি পদে রয়েছেন।

নাট্যজন লিয়াকত আলী লাকী ১৯৫৭ সালের ১৩ জানুয়ারি ঢাকার নবাবগঞ্জ উপজেলার আগলা টিকরপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা শেখ সাদেক আলী এবং মাতা মাজেদা আলী।

লাকী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইংরেজি সাহিত্যে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন। পরে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রন্থাগার বিজ্ঞান বিভাগ থেকে ডিপ্লোমা অর্জন করেন। পাশাপাশি জাপান দূতাবাস থেকে এক বছরের জাপানি ভাষা শিক্ষা কোর্স সম্পন্ন করেন।

সঙ্গীতের প্রতি অনুরাগ থেকে তিনি বুলবুল ললিতকলা একাডেমি থেকে উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতে ৫ বছরের সার্টিফিকেট কোর্সও করেছেন। নাট্যকলায় অবদানের জন্য লিয়াকত আলী লাকী ২০১৯ সালে একুশে পদক লাভ করেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫১ ঘণ্টা, মার্চ ২৯, ২০২৩
এইচএমএস/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।