ঢাকা, শনিবার, ১ কার্তিক ১৪২৮, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

মাছ ছাড়া নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ২৬

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২১
মাছ ছাড়া নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ২৬

মেহেরপুর: মেহেরপুরে বিরোধপূর্ণ নদীতে মাছ ছাড়া নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয়পক্ষের ২৬ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরের দিকে মাথাভাঙ্গা নদীর সিন্দুরকৌটা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

মাথাভাঙ্গা নদীর গাংনী উপজেলার সিন্দুরকৌটা ও শুকুরকান্দী এলাকায় মাছ অবমুক্তকরণ নিয়ে নদীর দাবিদার কামাল হোসেন ও মোশাররফ হোসেন গ্রুপের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

আহতদের মধ্যে সিন্দুরকৌটা গ্রামের মহসিন আলীর ছেলে মোশাররফ হোসেন(৪২), শামসের আলীর ছেলে হামিদুল ইসলাম (৪০), লুৎফর রহমানের ছেলে আমাল হোসেন (২৮), নায়েব আলীর ছেলে রতন আলী (৩৮), হেকমত আলীর ছেলে শফিরুল ইসলাম (৩৫) ও জিন্দার আলী (৪২) এর অবস্থা খারাপ হওয়ায় তারা গাংনী মেহেরপুর ও কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। অন্যরা সামান্য আহত হওয়ায় তারা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

এক পক্ষের নেতা রতন আলী বলেন, আগ্নেয়াস্ত্র, চুরি ডাকাতি, বোমা বিস্ফোরণসহ অন্তত ছয়টি মামলার আসামি কামাল হোসেন অবৈধভাবে নদী দখল নিয়ে মাছ চাষ করছেন। আমরা প্রকৃত মালিক হলেও কামাল বাহিনীর লোকজন আমাদের নদীতে আসতে দেইনি। সাম্প্রতিক সময়ে কামাল হোসেন ইয়াবাসহ গ্রেফতার হয়ে বর্তমানে মেহেরপুর কারাগারে রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সকালে নিজেদের অংশে মাছের পোনা অবমুক্ত করছিলাম। এসময় কামাল হোসেনের সন্ত্রাসী বাহিনী আমাদের ওপর হামলা চালায়। এতে আমিসহ আমাদের অন্তত ১৬ জন আহত হয়।

এদিকে কামাল হোসেন গ্রুপের কাউকে পাওয়া যায়নি।

গাংনী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বজলরু রহমান জানান, মারামরির খবর পাওয়ার পর এলাকায় পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তবে এখনও কোনো পক্ষ থেকে মামলা দায়ের করা হয়নি।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২১
এনএইচআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa