ঢাকা, সোমবার, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫ শাবান ১৪৪৫

রাজনীতি

ডাবলু সরকারকে বহিষ্কারে এবার কেন্দ্রে চিঠি 

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭৩৬ ঘণ্টা, মার্চ ৩০, ২০২৩
ডাবলু সরকারকে বহিষ্কারে এবার কেন্দ্রে চিঠি 

রাজশাহী: নানা অপকর্ম ও নৈতিক স্খলনের অভিযোগ তুলে এবার রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারকে দল থেকে বহিষ্কারের জন্য কেন্দ্রে অর্থাৎ আওয়ামী লীগ সভাপতি বরাবর চিঠি পাঠানো হয়েছে।  

বুধবার (২৯ মার্চ) মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে পাঁচ পৃষ্ঠার চিঠিটি দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সভাপতির দফতরে পাঠানো হয়।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া সই করে চিঠিটি নিয়েছেন।

একইসঙ্গে চিঠির অনুলিপি দেওয়া হয়েছে রাজশাহী বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য আব্দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাসান মাহমুদ ও সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামালকেও।

রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষে চিঠিতে সই করেছেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান কমিটির সদস্য এবং রাজশাহী জেলা ও দায়রা জজ আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের কৌশলী মোজাফফর হোসেন।

চিঠিটি বিবেচনায় নেওয়ার জন্য সুপারিশ করেছেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও বিএমডিএর চেয়ারম্যান সাবেক এমপি বেগম আখতার জাহান। এ ছাড়া এতে নির্বাহী কমিটিসহ মহানগরের ৪৮ জন সদস্য সই করেছেন।

চিঠিতে ডাবলু সরকারকে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি রাজাকার আব্দুস সাত্তার টিপুর প্রধান সহযোগী মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি রাজাকার আব্দুর রশিদ সরকারের পুত্র বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

চিঠিতে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারের একটি আপত্তিকর ভিডিও গত ১৭ ফেব্রুয়ারি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। ফলে রাজশাহীসহ আশপাশের জেলা এবং স্থানীয় ও জাতীয় গণমাধ্যমে বিষয়টি আলোচনার প্রধান বিষয় হয়ে দাঁড়ায়।  

ডাবলু সরকারের এমন নৈতিক স্খলনজনিত কর্মকাণ্ডের প্রতিবাদে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠন তাকে রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকসহ সব কর্মকাণ্ড থেকে বহিষ্কারের দাবি জানায়।

চিঠিতে আরও বলা হয়, ডাবলু সরকারের কর্মকাণ্ডে দলের ভাবমূর্তি ধ্বংস করছে, যা আগামী জাতীয় নির্বাচনসহ অন্যান্য নির্বাচনে ব্যাপক প্রভাব ফেলবে। ইতোমধ্যে দলের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের মধ্যে চরম অসন্তোষ ও বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে।

ডাবলু সরকারের আপত্তিকর ভিডিও ভাইরালের পর থেকে তাকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবি ওঠে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের পক্ষ থেকে। সর্বশেষ গত ২৭ মার্চ ডাবলু সরকারকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করে নগর আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। নগরীর লক্ষ্মীপুর মোড়ে এ মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিলের আয়োজন করা হয়েছিল।  

এর আগে তিন দফায় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে তাকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবি জানায় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।

গত ১৭ ফেব্রুয়ারি রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারের একটি আপত্তিকর ভিডিও নেট দুনিয়ার ছড়িয়ে পড়ে। এ ছাড়া বিভিন্ন লোকজনের কাছে হোয়াটসঅ্যাপেও পাঠানো হয় ভিডিওটি। এ ভিডিও ছড়ানোর অভিযোগে গত ১৮ ফেব্রুয়ারি নগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানায় ডাবলু সরকার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একটি মামলা করেন।

মামলার এজাহারে ডাবলু সরকার অভিযোগ করেন, একটি অনলাইন পোর্টালের ফেসবুক পেজে কে বা কারা তাকে রাজনৈতিক ও সামাজিকভাবে হেয়প্রতিপন্ন করতে এডিটিংয়ের মাধ্যমে মিথ্যা, অশ্লীল ভিডিও তৈরি করে সম্মানহানি করার চেষ্টা করেছে।  

বাংলাদেশ সময়: ০৭৩৪ ঘণ্টা, মার্চ ৩০, ২০২৩

এসএস/আরএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।