ঢাকা, বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ০৭ শাওয়াল ১৪৪৫

রাজনীতি

বিএনপির কর্মসূচি রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করেছে: হাছান মাহমুদ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪১৯ ঘণ্টা, এপ্রিল ২, ২০২৩
বিএনপির কর্মসূচি রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করেছে: হাছান মাহমুদ

ঢাকা: বিএনপির কর্মসূচি নিঃসন্দেহে রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করেছে বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী হাছান মাহমুদ। একইসঙ্গে তিনি জানান, বিএনপির খোঁচায় সরকারের কিছু আসে যায় না।

রোববার (২ এপ্রিল) দুপুরে সচিবালয়ে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে বাংলাদেশ সংবাদপত্র পরিষদের (বিএসপি) নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা জানান।  

রমজান মাসে বিএনপি আন্দোলনকে কীভাবে দেখছেন- এমন প্রশ্নের জবাবে হাছান মাহমুদ বলেন, আমরা কখনো শুনিনি, দেখিনি পবিত্র রমজানের মধ্যে কেউ রাজনৈতিক কর্মসূচি দিয়ে রাস্তায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়ায়। এখন রমজানেও বিএনপি মানুষকে নিস্তার দিচ্ছে না। দলের কর্মসূচি নিসন্দেহে রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করেছে।  

তিনি বলেন, তারা (বিএনপি) ইসলামের কথা বলে, অথচ রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করে তারা কর্মসূচি পালন করছে। এটি অনভিপ্রেত, দুঃখজনক, তাদের অপরাজনীতির বহিঃপ্রকাশ।  

বিএনপির রাজনীতি সহিংসতার দিকে যাচ্ছে- এ বিষয়ে মত জানতে চাইলে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বিএনপি চাইত সহিংসতা। তাদের রাজনীতিই হচ্ছে সহিংসতার রাজনীতি। তারা ২০১৩, ১৪ ও ১৫ সালে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে মানুষ হত্যা করেছে, জীবন্ত মানুষকে পুড়িয়ে হত্যা করেছে। যারা রাজনীতি জানে না, বুঝে না, করে না তাদেরকে পুড়িয়ে হত্যা করেছে।  

তিনি বলেন, তারা (বিএনপি) পরেও সহিংসতা করার চেষ্টা করেছে। গত ১০ ডিসেম্বরের আগে দেশের বিভিন্ন জায়গায় সহিংসতার চেষ্টা করেছে। সহিংসতার জন্য অফিসের মধ্যে তাজা বোমা মজুদ করে রেখেছিল। বিএনপি চায় সহিংসতা। তবে তারা আগের মতো সহিংসতা করতে পারবে না।  

বিএনপির এই কর্মকাণ্ডে সরকার শঙ্কিত কি না- জানতে চাইলে হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপির এই খোঁচানিতে সরকারের কিছু আসে যায় না। এরকম খোঁচানি আমরা ১৪ বছর ধরে দেখছি। ২০১৩, ১৪ ও ১৫ সালে তাদের সহিংস রাজনীতি মোকাবিলা করছি। সরকার জানে কখন কি করতে হবে, আওয়ামী লীগ জানে-বুঝে কখন কী করতে হবে।

বিএনপি মহাসচিব বলেছেন, পল্লবীর ইফতার পার্টিতে সাংবাদিকদের ওপর হামলা আওয়ামী লীগ করেছে। বিষয়টি কীভাবে দেখছেন-  জানতে চাইলে তথ্যমন্ত্রী বলেন, পল্লবীতে সাংবাদিকদের ওপর হামলা হয়েছে আমি সেটার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। ইফতার পার্টিতে বিএনপি সাংবাদিকদের ওপর হামলা করেছে। এটি অত্যন্ত নিন্দনীয় এবং এর তীব্র নিন্দা জানাই।  

তিনি বলেন, তাদের ইফতার পার্টিতে কি আওয়ামী লীগ গিয়েছিল? ইফতার পার্টির ভিডিও ফুটেজ রয়েছে, কে কোন দলের, কার কি পোস্ট, সেটা সরকারও জানে, তারাও জানে। বিএনপির মহাসচিব মিথ্যা বলায় যে তিনি চ্যাম্পিয়ান, তা আরও একবার প্রমাণ করলেন এই বক্তব্য দিয়ে। মিথ্যা বলায় যদি অস্কারর পুরুষ থাকত তাহলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেব তা পেতেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৪১৬ ঘণ্টা, এপ্রিল ২,২০২৩

জিসিজি/আরএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।