ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ৩০ মে ২০২৪, ২১ জিলকদ ১৪৪৫

রাজনীতি

বিএনপির গণসমাবেশ বাধাগ্রস্ত করতেই বাস ধর্মঘট: ডা. জাহিদ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ১০, ২০২২
বিএনপির গণসমাবেশ বাধাগ্রস্ত করতেই বাস ধর্মঘট: ডা. জাহিদ

ফরিদপুর: ফরিদপুরে বিএনপির গণসমাবেশকে বাধাগ্রস্ত করার জন্যই বাস ও মিনিবাস মালিক সমিতির ধর্মঘট ডাকা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এজডএম জাহিদ হোসেন।  

ফরিদপুর বিভাগীয় গণসমাবেশের প্রধান সমন্বয়কারীর দায়িত্বে থাকা এ নেতা বলেন, বাস ও মিনিবাস মালিক সমিতি মহাসড়কে তিন চাকার যান চলাচল নিষিদ্ধের দাবিতে যে চিঠি দিয়েছিলো তাতে তারা বৃহস্পতিবার (১০ নভেম্বর) সন্ধ্যা পর্যন্ত দাবি মেনে নেওয়ার জন্য আল্টিমেটাম দিয়েছিল।

কিন্তু তাদের সেই আল্টিমেটাম শেষ হওয়ার আগেই তারা শহরে মাইকিং করে বাস ধর্মঘটের কথা জানিয়ে দিয়েছে। এটি যে সরকারেরই একটি পাতানো খেলা এতে সেটিই প্রমাণ হয়ে গেছে।  

বৃহস্পতিবার বিকেলে জেলা শহরের উপকণ্ঠে কোমরপুরের আজিজ ইন্সটিটিউশন মাঠে ফরিদপুরের বিভাগীয় গণসমাবেশস্থলে আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে ডা. এজডএম জাহিদ হোসেন এসব কথা বলেন।

এসময় বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জহিরুল হক শাহজাদা মিয়া, বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ও বিভাগীয় গণসমাবেশের সমন্বয়ক শামা ওবায়েদ ইসলাম, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক খন্দকার মাশুকুর রহমান ও সেলিমুজ্জামান সেলিম, মহিলা দলের যুগ্ন-সম্পাদক চৌধুরী নায়াবা ইউসুফ, কৃষক দলের সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাবুল, জেলা বিএনপির আহ্বায়ক সৈয়দ মোদাররেস আলী ঈছা, যুবদলের সাবেক সহ-সভাপতি মাহবুবুল হাসান ভুইয়া পিংকু, মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক এএফএম কাইয়ুম জঙ্গিসহ বৃহত্তর ফরিদপুরেরসহ কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।  

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদ ইসলাম জানান, বিএনপির গণসমাবেশের দুদিন আগেই আমাদের হাজার হাজার নেতাকর্মী মাঠে সমবেত হয়েছেন। তাদের কারও হাতেই কোন লাঠি নেই। সব প্রতিবন্ধকতাকে উপেক্ষা করে আমরা শান্তিপূর্ণভাবে এই গণসমাবেশ সফল করবো। এতে লক্ষাধিক লোকের সমাগম হবে। মাঠ ছেড়ে জনতার উপস্থিতি ছড়িয়ে পরবে ফরিদপুর শহরেও।  

এদিকে, বুধবার দুপুরের পর থেকেই নেতাকর্মীরা ফরিদপুরের এই বিভাগীয় গণসমাবেশে আসতে শুরু করেছেন। রাতে তারা সেখানেই অবস্থান করেন। সন্ধ্যার পরে বৃহত্তর ফরিদপুরের অন্যান্য জেলা থেকে খন্ড খন্ড দল আকারে অনেকে সমাবেশস্থলে এসে পৌঁছান। এছাড়া অনেকে ব্যক্তিগত ও দলবদ্ধভাবেও গণসমাবেশস্থলে আসেন। বৃহস্পতিবার সকালে ফরিদপুরের এই বিভাগীয় গণসমাবেশ উপলক্ষে শহরের গোয়ালচামটে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত এ সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জহিরুল হক শাহজাদা মিয়া, মহিলা দলের সহ-সভাপতি ইয়াসমিন আরা হক, যুবদলের সাবেক সহ-সভাপতি মাহবুবুল হাসান ভুইয়া পিংকু, জেলা মহিলা দলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বিলকিস ইসলাম, কোতয়ালী থানা বিএনপির সভাপতি রউফউন্নবী, মহানগর যুবদলের সভাপতি বেনজির আহমেদ তাবরীজ, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমুখ।

বাস ও মিনিবাস মালিক সমিতির ধর্মঘটে মাইকিং
ফরিদপুর জেলার সকল রুটে বাস মিনিবাস চলাচল বন্ধ রাখার জন্য বৃহস্পতিবার শহরে মাইকিং করা হয়েছে। ফরিদপুর জেলা মালিক সমিতি ঐক্য পরিষদ ফরিদপুরের নামে সকাল থেকেই শহরে এই মাইকিং করা হয়। এতে বলা হয়, মহাসড়কে তিনচাকার যান চলাচল নিষিদ্ধের দাবিতে ১১ নভেম্বর শুক্রবার সকাল ৬টা হতে ১২ নভেম্বর শনিবার রাত ৮টা পর্যন্ত জেলার সকল রুটে বাস মিনিবাস চলাচল বন্ধ রাখতে বলা হলো।

এর আগে গত সোমবার ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক অতুল সরকারের মাধ্যমে জেলা মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদের নেতারা ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার বরাবর একটি চিঠি দেন। ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক গোলাম নাসির স্বাক্ষরিত ওই চিঠিতে বলা হয়, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের  ২০২০ সালের ২৯ মের সভার ১৩ নম্বর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মহাসড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধের পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য বিনীত অনুরোধ জানানো হচ্ছে। না হলে ১১ নভেম্বর শুক্রবার সকাল ৬টা থেকে ১২ নভেম্বর শনিবার রাত ৮টা পর্যন্ত ফরিদপুর জেলা বাস টার্মিনাল থেকে আঞ্চলিক বাস ও মিনিবাসসহ দূরপাল্লার পরিবহনের সব রুটের বাস চলাচল বন্ধ রাখা হবে।

এদিকে, ফরিদপুর পরিবহন মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের সহ-সভাপতি জুবায়ের জাকির বলেন, বাস মিনিবাস বন্ধের সঙ্গে বিএনপির সমাবেশের কোনো সম্পর্ক নেই। আমরা কয়েকদিন আগে থেকেই এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এর সঙ্গে বিএনপির সমাবেশের তারিখ মিলে গেলে আমাদের কি করার আছে? মহাসড়কে ত্রি-হুইলার নছিমন, করিমন, ভটভটি, মাহিন্দ্রা, ব্যাটারিচালিত রিকশা, ইজিবাইক ও ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধের নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্ত্বেও এসব অবৈধ যান মহাসড়কে অবাধে চলাচল করছে। এর প্রতিবাদে আমরা এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

বাংলাদেশ সময়: ২১৫৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ১০, ২০২২
এসএ
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।