ঢাকা, শুক্রবার, ১৩ মাঘ ১৪২৮, ২৮ জানুয়ারি ২০২২, ২৪ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

মুক্তিযুদ্ধকে কটাক্ষ করায় ফখরুলের গ্রেপ্তার দাবি নাসিমের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১০

ঢাকা: মহান মুক্তিযুদ্ধকে কটাক্ষ করায় জামায়াত নেতা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর আইনজীবী ব্যারিস্টার ফখরুল ইসলামকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে গ্রেপ্তার করার দাবি জানিয়েছেন সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মোহম্মদ নাসিম।

পাশাপাশি ফখরুল ইসলামের নাগরিকত্ব বাতিল ও তার বিচারও দাবি করেন তিনি।



রোববার সকালে জাতীয় প্রেসকাবের সামনে ব্যারিস্টার ফখরুলের কটাক্ষের প্রতিবাদে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক পরিষদ মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে। এখানেই নাসিম তার এ দাবি জানান।

নাসিম বলেন, ‘যখন যুদ্ধাপরাধীর বিচার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে, স্বীকৃত যুদ্ধাপরাধীদের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু হয়েছে, এমন একটি সময়ে মুক্তিযুদ্ধের বিরুদ্ধে ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য দিয়ে সে (ফখরুল) কোনোভাবেই কারাগারের বাইরে থাকতে পারে না। ’

তিনি বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধ ও আইনের শাসনের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতেই তাকে অবিলম্বে গ্রেপ্তার করতে হবে। ’

এ সময় নাসিম বর্তমান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে প্রশ্ন করে বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে এ ধরনের বক্তব্য দিয়ে কীভাবে ওই আইনজীবী কারাগারের বাইরে থাকতে পারে?’

যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বানচালে বিএনপি-জামায়াত জোট ষড়যন্ত্র করছে জানিয়ে নাসিম বলেন, ‘দেশে যখন যুদ্ধাপরাধীদের বিচার প্রক্রিয়া চলছে, তখন বিএনপি-জামায়াত জোট নানা ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে তা বন্ধ করার চেষ্টা করছে। সর্বোচ্চ আদালতের বিচারক হয়ে ফকরুল ইসলামের এ ধরনের বক্তব্য সেই ষড়যন্ত্রেই অংশ। ’

তবে যত ষড়যন্ত্রই হোক, যথাসময়েই বিচার সম্পন্ন হবে বলে জানান নাসিম।

তিনি বলেন, ‘পৃথিবীর কোনো শক্তিই নেই গোলাম আযমসহ স্বীকৃত যুদ্ধাপরাধীদের বিচার প্রক্রিয়া বন্ধ করে। যত বাধাই আসুক না কেন, এ সরকারের আমলেই যুদ্ধাপরাধীদের বিচার সম্পন্ন করা হবে। ’

সংবিধান সংশোধনের মাধ্যমে একটি অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ তৈরি করা হবে বলেও জানান তিনি।

উল্লেখ্য, গত ২১ সেপ্টেম্বর ব্যারিস্টার ফকরুল ইসলাম তার এক বক্তব্যে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধকে ভারত-পাকিস্তানের যুদ্ধ হিসাবে অভিহিত করেন।

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবদুল হক সবুজের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী ওলামা লীগের সভাপতি মাওলানা ইলিয়াস হোসেন বিন হেলালী, বঙ্গমাতা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আনিসুর রহমান প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৪১১ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa