ঢাকা, বুধবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

প্রবাসে বাংলাদেশ

‘আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস’

পৃথিবীর প্রথম মনুমেন্টের ১০ বছর পূর্তি উদযাপন

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০৩৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৬
পৃথিবীর প্রথম মনুমেন্টের ১০ বছর পূর্তি উদযাপন

ঢাকা: পৃথিবীর প্রথম ‘আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস’ মনুমেন্ট স্থাপনের ১০ বছর পূর্তি উদযাপন করেছে একুশে একাডেমি অস্ট্রেলিয়া।

সিডনির এশফিল্ড হাইস্কুল অডিটোরিয়ামে ১৪ ফেব্রুয়ারি এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।



এতে বাংলাদেশ কনস্যুলর জেনারেল,অস্ট্রেলিয়ান সংসদ সদস্য, সিটি কাউন্সিলের মেয়র এবং কাউন্সিলরসহ বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক ব্যক্তিরা অংশ নেন।

আয়োজক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক লরেন্স ব্যারেলের সঞ্চালনায় বাংলাদেশ এবং অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান শুরু হয়।

আমন্ত্রিত অতিথিদের বক্তব্য শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান শেষ হয়।

এসময় বক্তব্য রাখেন একুশে একাডেমি অস্ট্রেলিয়ার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি নেহাল নেয়ামুল বারী, বর্তমান সভাপতি ড. আবদুল ওহাব, অস্ট্রেলিয়ান লেবার পার্টির নেতা কার্ল সালেহ, স্ট্রাথফিল্ড সিটি কাউন্সিলের মেয়র রাজদত্ত, টুংগাবী সিটি কাউন্সিলের সাবেক মেয়র প্রবীর মৈত্র, এসবিএস বাংলা রেডিও সাংবাদিক আবু রেজা আরেফিন, মুক্তমঞ্চ-এর সম্পাদক, একুশে একাডেমির সংগঠক, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ নেতা আল-নোমান শামীম প্রমুখ।

এশফিল্ড সিটি কাউন্সিল, বাংলাদেশ হাইকমিশন এবং অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী বাংলাদেশি কমিউনিটির প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ সাহায্য-সহযোগিতায় সিডনির এশফিল্ড হেরিটেজ পার্কে ২০০৬ সালের ১৯ ফেব্রুয়ারি পৃথিবীর প্রথম আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস মনুমেন্ট (শহীদ মিনার) নির্মাণ করা হয়।

ইউনেস্কো ১৯৯৯ সালে ২১ ফেব্রুয়ারিকে ‘আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস’ ঘোষণা করার পরে এটি পৃথিবীর প্রথম নির্মিত মনুমেন্ট। একুশে একাডেমি অস্ট্রেলিয়া ১৯৯৯ সাল থেকেই শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে প্রতি বছর বইমেলার আয়োজন করে আসছে।

একুশে একাডেমি অস্ট্রেলিয়া পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১০৩৪ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৬
এটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa