ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৭ মে ২০২৪, ১৮ জিলকদ ১৪৪৫

সৌদি আরব

ওয়াদি আল জ্বিন

যেখানে বন্ধ ইঞ্জিনেও গাড়ি চলে ঢালুর বিপরীতে

মোহাম্মদ আল আমীন, সৌদি আরব করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭৪৫ ঘণ্টা, আগস্ট ২, ২০১৪
যেখানে বন্ধ ইঞ্জিনেও গাড়ি চলে ঢালুর বিপরীতে সংগৃহীত

রিয়াদ: ওয়াদি আল জ্বিন। যেখানে ইঞ্জিন বন্ধ থাকলেও গাড়ি চলতে শুরু করে ঢালুর বিপরীতে।

ইঞ্জিন অফ থাকলে গাড়ি ঢালুর দিকে চলে একথা আমরা সবাই জানি কিন্তু ঢালুর বিপরীতে উপরের দিকে যায় এমন কথা খুব কম মানুষই শুনেছেন। তবে এটাই বাস্তবে ঘটে রহস্যময় ওয়াদি আল জ্বিনে।
 
অনেকেরই ধারণা জায়গাটিতে প্রচুর চুম্বকজাতীয় পদার্থ আছে তাই এমনটি হতে পারে। কিন্তু এখানে এমনকি পানির বোতল কিংবা পানি ফেললেও তা ঢালুর বিপরীত দিকে গড়াতে থাকে।

ওয়াদি আল জ্বিন জায়গাটির অবস্থান মদিনার আল বায়দা উপত্যকায় । উপত্যকাটি মসজিদে নববীর উত্তর পশ্চিম দিকে প্রায় ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত।

২০০৯-২০১০ সালের দিকে সৌদি সরকার এই ওয়াদি আল জ্বিনে একটি রাস্তা বানানোর পরিকল্পনা করে। কিন্তু ত্রিশ কিলোমিটার পর্যন্ত কাজ করার পর সমস্যা শুরু হয় । হঠাৎ দেখা যায় রাস্তা নির্মাণের যন্ত্রপাতি আস্তে আস্তে মদিনা শহরের দিকে স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলে যাচ্ছে । যেন কেউ যন্ত্রপাতিগুলো মদিনার দিকে ঠেলছে। কিন্তু কে ঠেলছে তাকে দেখা যাচ্ছে না । এমনকি পিচ ঢালাইয়ের ভারী রোলারগুলোও বন্ধ থাকা অবস্থায় আস্তে আস্তে ঢালু বেয়ে উপরের দিকে উঠতে থাকে।

এ সব দেখে কর্মরত শ্রমিকরা ভয় পেয়ে যায়। তারা কাজ করতে অস্বীকার করে। রাস্তাটির কাজ যেখানে বন্ধ করা হয় সেখানে চারিদিকে বিশাল কালো পাহাড়। ওখানেই শেষ মাথায় গোল চক্করের মতন করে আবার সেই রাস্তা দিয়েই মদিনা শহরে আসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ওই রাস্তাটি ২০০কিলোমিটার করার কথা থাকলেও ৪০কিলোমিটার করেই নির্মাণ কাজ শেষ করে সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ।

সৌদি নাগরিকরাও সহজে কেউ এই স্থানটিতে যেতে চান না। তবে রাস্তাটি সকাল ৮ থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত খোলা রাখা হয়। বিকাল ৪ টার পর আর কোন গাড়ি বা মানুষকে ওয়াদি জ্বিন এলাকায় যেতে দেওয়া হয় না ।




বাংলাদেশ সময়: ০৭৩৬ ঘণ্টা, আগস্ট ০২, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

সৌদি আরব এর সর্বশেষ