ঢাকা, শনিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

শিল্প

কেমিকেল ছাড়াই ইটিপি প্রযুক্তি দিচ্ছে এনভাইরোস

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭০০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২১, ২০১৭
কেমিকেল ছাড়াই ইটিপি প্রযুক্তি দিচ্ছে এনভাইরোস এনভাইরোস টেক লিমিডেটেডের স্টল/ছবি: জিএম মুজিবুর

ঢাকা: দূষিত বর্জ্যকে পরিবেশের উপযোগী করতে কারখানাগুলোতে এফ্লুয়েন্ট ট্রিটমেন্ট প্লান্ট বা ইটিপি আবশ্যকীয়। তবে প্রচলিত ইটিপিগুলোতে বর্জ্য শুদ্ধ করতে কেমিকেলের ব্যবহার করা হয়।

এ কারণে কেমিকেলের ব্যবহার ছাড়া আরও পরিবেশবান্ধব ইটিপি প্রযুক্তি নিয়ে এসেছে এনভাইরোস টেক লিমিডেট। কোনো ধরনের কেমিকেলের ব্যবহার ছাড়াই কম সময়ে অনেক বেশি বর্জ্য শোষণের ক্ষমতা সম্পন্ন ইটিপি প্রযুক্তি দিচ্ছে প্রতিষ্ঠাটি।

এনভাইরোস টেক লিমিটেড বিশ্বে প্রথমবারের মতো নিয়ে এসেছে অত্যাধুনিক তাড়িত-জারণ এবং বাতান্বয়ন ট্রিটমেন্ট পদ্ধতি।

রাজধানীর ইন্যারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরায় (আইসিসিবি) চার দিনব্যাপী পোশাকশিল্পের সর্বাধুনিক ও সর্বশেষ প্রযুক্তি নিয়ে আয়োজিত আন্তর্জাতিক প্রদর্শনী গার্মেন্টটেকে দেখা মেলে অত্যাধুনিক ইটিপি প্রযুক্তির।

কনভেনশনসিটির এক নম্বর হল গুলবাহারের ১০২ নম্বর স্টলে বর্জ্য পরিশোধনের পুরো প্রযুক্তিটাই তুলে ধরা হচ্ছে দর্শনার্থীদের সামনে। কম সময়ে অধিক বর্জ্য শোধন যেমন সম্ভব তেমনি পরিশোধিত বর্জ্যের পানি নিত্য কাজেও ব্যবহার সম্ভব বলে জানিয়েছেন এনভাইরোস টেক লিমিটেডের বাংলাদেশ প্রধান মো. ফজলে আজিজ তারিক।

তিনি বাংলানিউজকে বলেন, কোনো ধরনের কেমিকেলের ব্যবহার ছাড়াই বর্জ্য শোধন করায় শোধনকৃত পানি যেমন নিত্য ব্যবহার করা যায়, তেমনি শোধনের পর যে শক্ত পদার্থ থাকে (স্লাগ) সেটিও সহজে পরিবেশের সঙ্গে মিশে যেতে পারে। প্রচলিত ইটিপি প্রযুক্তির চেয়ে এই পদ্ধতিতে সময় কম লাগে। তেমনি স্লাগের পরিমাণও কম বের হয়।

জানা যায়, সম্পূর্ণ নিজের গবেষণা থেকে এ প্রযুক্তিটির উদ্ভাবন করেছেন ভারতের গবেষক ড. রমেশ বাবু। ভারতের ২৭টি শীর্ষ কারখানা এ প্রজেক্ট চালু করেছে। হাতে রয়েছে আরও সাতটি। এছাড়া বাংলাদেশের বিশ্বসেরা দুটি প্রতিষ্ঠানেও এ সেবা দিচ্ছে এনভাইরোস।

‍গার্মেন্টটেকে ব্যাপক সাড়া মিলেছে জানিয়ে ফজলে আজিজ তারিক বলেন, গত চারদিনে প্রায় ৫০টি কারখানা প্রতিনিধি আমাদের স্টল ভিজিট করেছেন। এদের মধ্যে অন্তত ১০ শতাংশ আমাদের সঙ্গে চুক্তিতে যাবে বলে আশা করছি।

ইটিপির মাধ্যমে পরিবেশ দূষণ দূর করে দেশকে উন্নত মানের পরিবেশ আনা সম্ভব বলে মনে করেন তিনি।

বাংলাদেশ সময়: জানুয়ারি ২১, ২০১৬।
জেপি/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa