ঢাকা, বুধবার, ২ ভাদ্র ১৪২৯, ১৭ আগস্ট ২০২২, ১৮ মহররম ১৪৪৪

তথ্যপ্রযুক্তি

ইন্টারনেটকে মৌলিক অধিকার হিসেবে সংবিধানে অর্ন্তভুক্তের আহ্বান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪১৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৬
ইন্টারনেটকে মৌলিক অধিকার হিসেবে সংবিধানে অর্ন্তভুক্তের আহ্বান ছবি: আনোয়ার হোসেন রানা-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

খাদ্য ও শিক্ষার মতো ইন্টারনেটকে জনগণের মৌলিক অধিকার হিসেবে সংবিধানে অর্ন্তভুক্তের আহ্বান জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

ঢাকা: খাদ্য ও শিক্ষার মতো ইন্টারনেটকে জনগণের মৌলিক অধিকার হিসেবে সংবিধানে অর্ন্তভুক্তের আহ্বান জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

মন্ত্রী বলেন, এখন ভাত ও শিক্ষার মতো ইন্টারনেট আমাদের বেসিক নিড হয়ে দাঁড়িয়েছে।

এ কারণে ইন্টারনেটকে মৌলিক অধিকার করা হোক।

কয়েকদিন আগে মেক্সিকো ইন্টারনেটকে তাদের মৌলিক অধিকার হিসেবে সংবিধানে অর্ন্তভুক্ত করেছেন বলে উদাহারণ দেন তিনি।

বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে তিন দিনব্যাপি ‘ল্যাপটপ ফেয়ার ২০১৬’র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

টেকশোডটকমের পৃষ্টপোষকতায় ল্যাপটপ মেলার আয়োজন করেছে এক্সপো মেকার।

এসময় উপস্থিত ছিলেন-বেসিসের সভাপতি মোস্তফা জব্বার, বিসিএসের সভাপতি আলি আশফাক, এক্সপো মেকারের পরিচালনা বিভাগের প্রধান ও মেলার সমন্বয়ক নাহিদ হাসনাইন সিদ্দিকী।
মন্ত্রী বলেন, অবাধ তথ্য প্রযুক্তির সুযোগে থেকে জঙ্গি-সন্ত্রাসী ও বড় বড় রাষ্ট্র সাইবার জগতকে সামরিকরণ করে প্রতিনিয়ত সন্ত্রাসমূলক হুমকি দিচ্ছে। এরপর আমাদের পেছনে যাওয়ার সুযোগ নেই। এজন্য আমাদের সাইবার জগতকে নিরাপত্তা দিতে হবে।

এসময় তিনি সাইবার জগতের নিরাপত্তার জন্য বৈশ্বিক চুক্তির আহ্বান জানান।

এছাড়া সাইবার জগতের নিরাপদ প্রসারের জন্য ইন্টারনেটের বিষয়ে বৈশ্বিক গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাপনারও দাবি করেন তিনি।

তিনি বলেন, দেশে ল্যাপটপের বিশাল বাজার তৈরি হয়েছে, এজন্য হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার নির্ভরতা চাই। এই দুটো যন্ত্রে টেকনিক্যালি দুর্বলতা থাকলে আমরা মার খাব। ল্যাপটপের ব্যাপক প্রসারতার জন্য হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার সহজলভ্যতা চাই।
 
এসময় তিনি দেশের অভ্যন্তরীণ ও পাশের দেশের বাজারগুলোকে কাজে লাগিয়ে দেশেই ল্যাপটপ উৎপাদনের আহ্বান জানান।

এবারের মেলায় ১টি মেগা প্যাভিলিয়ন, ৬টি প্যাভিলিয়ন, ৬টি মিনি প্যাভিলিয়ন ও ৪৪ স্টলে দেশ-বিদেশের শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা ও বিপণনকারী প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের সর্বশেষ প্রযুক্তির পণ্য প্রদর্শন ও বিক্রি করছে।

মেলায় এসার, ডেল, আসুস, এইচপি, লেনোভো, লাভা, ওয়ালটন, অ্যাভিরা, আই-লাইফ, রাপ্পো, ইসেট, লিনেক্স, রিভসহ বিভিন্ন ব্র্যান্ডের ল্যাপটপের প্রর্দশনী করা হচ্ছে।

‘প্রযুক্তিতে মুক্তি’ স্লোগানে শুরু হওয়া এ মেলা বিকেলে উদ্বোধন করা হলেও সকাল ১০টা থেকে জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করা হয়।

ইউনিফর্ম পরিহিত অবস্থায় স্কুল শিক্ষার্থী ও প্রতিবন্ধীরা বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশের সুযোগ পাবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০১৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৬
এমসি/আরবি/পিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa