ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

আন্তর্জাতিক

নাগরিকদের ঘোর আপত্তির মধ্যেই শিনজো আবের রাষ্ট্রীয় শেষকৃত্য আজ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৪৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২২
নাগরিকদের ঘোর আপত্তির মধ্যেই শিনজো আবের রাষ্ট্রীয় শেষকৃত্য আজ

জাপানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের রাষ্ট্রীয়ভাবে শেষকৃত্য হচ্ছে মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর)। তবে, এ আয়োজন নিয়ে দেশটির নাগরিকদের মধ্যে ঘোর আপত্তি ছিল।

আল জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, জুলাইয়ে প্রচারাভিযান চলাকালে দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত জাপানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবেকে সম্মান জানাতে প্রস্তুতি শেষ হয়েছে। তবে, রাষ্ট্রীয় এ অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া যা জাতিকে গভীরভাবে বিভক্ত করেছে। কিন্তু তারপরও দীর্ঘকালের প্রধানমন্ত্রীর রাষ্ট্রীয় শেষকৃত্যের আয়োজন পরিচালনা করতে বদ্ধপরিকর বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা।

মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) আবের শেষকৃত্যে অংশ নেবেন বিশ্ব নেতৃবৃন্দসহ চার হাজার মানুষ। উপস্থিত থাকবেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস, ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির সভাপতি টমাস বাখ। আরও উপস্থিত থাকবেন অস্ট্রেলিয়া ও সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রীরা। চীন ও রাশিয়ার প্রতিনিধিরাও থাকবেন বলে খবরে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিশ্বের শিল্পোন্নত দেশগুলোর জোট গ্রুপ অব সেভেন (জি৭) নেতারাও আবের শেষকৃত্যে যোগ দিতে প্রস্তুত। তবে নিজ দেশে প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলার জন্য কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো জাপান সফর বাতিল করেছেন। অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে রাজধানী টোকিওতে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। নিপ্পন বুডোকান হলের আশেপাশে যেখানে অনুষ্ঠানটি হবে সেখানকার নিরাপত্তায় মোতায়েন থাকবে ২০ হাজার পুলিশ। খরচ হচ্ছে প্রায় ১ দশমিক ৬৬ বিলিয়ন ইয়েন। যা ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের শেষকৃত্যের খরচের চেয়েও বেশি।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেবেন প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা ও তার পূর্বসূরি ইয়োশিহিদে সুগা। অনুষ্ঠানস্থলের আশপাশে দেশটির বহু নাগরিক সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে বিদায় জানাতে ফুল হাতে অপেক্ষা করছেন। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার দুপুর ২টায় শেষকৃত্যানুষ্ঠান শুরু হবে। এসময় আবের দেহভস্ম নির্ধারিত ভেন্যুতে নিয়ে যাওয়া হবে। সেখানে একজন অনার গার্ড কামান থেকে ১৯ রাউন্ড গোলাবর্ষণ করবেন।

এদিকে, আবের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়ার বিরোধীরা প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সংসদ ভবন ও অন্যান্য স্থানে সমাবেশ করেছেন। অনুষ্ঠানটি বাতিলের জন্য মামলাও করেছেন তারা।

গত ৫৫ বছরের মধ্যে একজন সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে বিপুল অর্থ খরচ করে বিদায় জানাচ্ছে জাপান। সমালোচকরা এমন আইনের কোনো ভিত্তি নেই বলে মন্তব্য করেছেন।

এর আগে ১৯৬৭ সালে সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিগেরু ইয়োশিদাকে এমন সম্মাননা জানিয়ে বিদায় দেওয়া হয়। যুদ্ধ-পরবর্তী সময়ে তিনি জাপানকে পুনরুদ্ধারে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন।

গত ৮ জুলাই পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর নারায় নির্বাচনী প্রচারের বক্তৃতার সময় এক বন্দুকধারীর হামলায় নিহত হন আবে। ওই ঘটনার চার দিন পর ব্যক্তিগতভাবে অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া করা হয় ২০১২ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত জাপানের প্রধানমন্ত্রী থাকা আবের। তার মৃতদেহ দাহ করা হয়েছে।

সূত্র: আল জাজিরা

বাংলাদেশ সময়: ১১৪২ ঘণ্টা, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২
এমজে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa